বাটলা হাউস এনকাউন্টার মামলায় অভিযুক্ত আরিজ খানের ফাঁসির আদেশ দিল্লির আদালতের!

বাটলা হাউস এনকাউন্টার মামলায় অভিযুক্ত আরিজ খানের ফাঁসির আদেশ দিল্লির আদালতের!

বাটলা হাউড এনকাউন্টার কাণ্ডে অভিযুক্ত আরিজ খান৷ Photo-File

২০০৮ সালে দক্ষিণ দিল্লির জামিয়া নগরে বাটলা হাউজ এনকাউন্টারে পুলিশের স্পেশাল সেলের ইন্সপেক্টর মোহন চাঁদ শর্মার মৃত্যু হয়৷

  • Share this:

    #দিল্লি: বাটলা হাউস এনকাউন্টার কাণ্ডে পুলিশ ইন্সপেক্টর মোহনচাঁদ শর্মাকে হত্যার অভিযোগে আরিজ খানকে ফাঁসির আদেশ দিল দিল্লির একটি আদালত৷ এই ঘটনাকে বিরলের মধ্যে বিরতম বলে আখ্যা দেন বিচারক৷

    এর পাশাপাশি অভিযুক্ত আরিজ খানকে ১১ লাখ টাকা জরিমানাও করেছেন অ্যাডিশনাল সেশন জাজ সন্দীপ যাদব৷ এর মধ্যে ১০ লক্ষ টাকা অবিলম্বে নিহত ইন্সপেক্টরের পরিবারকে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক৷

    এই মামলায় অভিযুক্ত ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের সদস্য আরিজের মৃত্যুদণ্ডেরই আবেদন করেছিল পুলিশ৷ তাদের যুক্তি ছিল, এটা নিছক একটা খুনই নয় বরং আইনের রক্ষাকারী এক পুলিশ অফিসারের হত্যা৷

    পাল্টা আরিজ খানের আইনজীবীর দাবি ছিল, এই হত্যাকাণ্ড পূর্ব পরিকল্পিত ছিল না৷ গত ৮ মার্চ মামলার বিচার চলাকালীন আদালত মন্তব্য করে, 'আরিজ খান এবং তার সহযোগীরা যে পুলিশ অফিসারকে লক্ষ্য করে গুলি চালিয়েছিল তার প্রমাণিত হয়েছে৷'

    ২০০৮ সালে দক্ষিণ দিল্লির জামিয়া নগরে বাটলা হাউজ এনকাউন্টারে পুলিশের স্পেশাল সেলের ইন্সপেক্টর মোহন চাঁদ শর্মার মৃত্যু হয়৷ এই ঘটনায় আর এক অভিযুক্ত ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের জঙ্গি শাহজাদ আহমেদকে ২০১৩ সালের জুলাই মাসে যাবজ্জীবন জেলের শাস্তি দিয়েছিল নিম্ন আদালত৷ এই রায়ের বিরুদ্ধে দিল্লি হাইকোর্টে আবেদন করেছিল শাহজাদ আহমেদ৷ যদিও সেই মামলা এখনও বিচারাধীন রয়েছে৷

    বাটলা হাউস এনকাউন্টারের ঘটনার পর পালিয়ে গিয়েছিল আরিজ খান৷ তার পর ২০১৮ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি গ্রেফতার করা হয় আরিজকে৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: