দুই ফুটফুটে সন্তানকে গলা টিপে মেরে মেট্রোর সামনে ঝাঁপ দিল্লির ব্যবসায়ীর, স্তম্ভিত গোটা পরিবার

দুই ফুটফুটে সন্তানকে গলা টিপে মেরে মেট্রোর সামনে ঝাঁপ দিল্লির ব্যবসায়ীর, স্তম্ভিত গোটা পরিবার
  • Share this:

#নয়াদিল্লি: কেন এমন কাজ করলেন? প্রবল মানসিক অবসাদ থেকেই কি নিজের সন্তানদের খুন করার পরিকল্পনা করেছিলেন দিল্লির শালিমার বাগের ব্যবসায়ী মধুর মালানী ? সোমবার সন্ধ্যের ঘটনা ৷ প্রায় সাতটা নাগাদ দিল্লি পুলিশ জানতে পারে উত্তর-পশ্চিম দিল্লির শালিমারের একটি বাড়িতে এক কিশোরী ও তার ভাইকে খুন করা হয়েছে ৷ পুলিশ এসে দেখে যে ১৪ বছর বয়সী সমীক্ষা এবং তাঁর ৬ বছরের ভাই শ্রেয়ানসকে সম্ভবত শ্বাসরোধ করে খুন করা হয়েছে ৷ বিছানার উপর পরে রয়েছে দুই ফুটফুটে শিশুর দেহ ৷ ফোনটি করেছিলেন ওই দুই শিশুর মা ৷ কিন্তু শিশু দু’টির বাবাকে সে সময় বাড়িতে পাওয়া যায়নি ৷ মধুর মালানীর স্ত্রী পুলিশকে জানান, তিনি বাজারে গিয়েছিলেন ৷ ফিরে এসে দেখেন তাঁর ছেলেমেয়ের নিথর দেহ পড়ে রয়েছে বিছানায় ৷

এর কিছুক্ষণের মধ্যেই হায়দারপুর মেট্রো স্টেশনে চলন্ত ট্রেনের সামনে ঝাঁপ দিয়ে মধুর মালানীর আত্মহত্যা করার খবর আসে পুলিশের কাছে ৷ তবে মধুর মালানীর কাছ থেকে কোনও সুইসাইড নোট পাওয়া যায়নি ৷ কেন হঠাৎ ছেলে-মেয়েকে খুন করে আত্মহত্যা করলেন ওই ব্যবসায়ী, তা নিয়ে ধোঁয়াশায় গোটা পরিবার ৷ ঘটনার আকস্মিকতায় সম্ভিত মধুর মালানীর স্ত্রী ৷ তবে পরিবারের সঙ্গে কথা বলে পুলইশ জানতে পারে মাস ছয়েক আগে ওই ব্যবসায়ীর শিরিষ কাগজ তৈরির কারখানাটি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় কার্যপ কপর্দকশূন্য হয়ে পড়েছিলেন ওই ব্যক্তি ৷ ফলে তীব্র আবসাদে ভুগছিলেন তিনি ৷

First published: February 11, 2020, 9:34 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर