corona virus btn
corona virus btn
Loading

দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ হাজার ছুঁইছুঁই, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১২৬ জনের

দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ হাজার ছুঁইছুঁই, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১২৬ জনের

করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে ৪৯,৩৯১

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: সময়ের সঙ্গে সঙ্গে লাফিয়ে বাড়ছে ভারতের করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। কোনও ভাবেই রাশ টানা যাচ্ছে না আক্রান্তের সংখ্যায়। রোগের প্রকোপের সঙ্গে বাড়ছে মৃত্যুর হারও৷ আর সেই সঙ্গে করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ভয় জাঁকিয়ে বসছে ভারতের বুকে। দেশে কোভিড-১৯ আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ হাজার ছুঁইছুঁই। স্বাস্থ্যমন্ত্রকের হিসেবে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ২৯৫৮। এর জেরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে ৪৯,৩৯১। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১২৬ জনের। এর জেরে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১,৬৯৪। এখনও পর্যন্ত করোনায় সুস্থ হয়েছেন ১৪,১৮২ জন।

দেশে এক দিন আগেও যা ৩.২ শতাংশ ছিল, রাতারাতি তা বেড়ে ৩.৪ শতাংশে পৌঁছে গিয়েছে। প্রভাবিত হয়েছে আক্রান্তের সংখ্যা দ্বিগুণ হওয়ার হারও। দেশের মধ্যে সব থেকে উদ্বেগজনক জায়গা হচ্ছে মহারাষ্ট্র, গুজরাত ও দিল্লি ৷ সরকারি হিসেবে মহারাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা ১৫ হাজার ৫২৫ আর মৃত্যু হয়েছে ৬১৭ জনের৷ মহারাষ্ট্রের পরেই রয়েছে গুজরাত। সেখানে মোট আক্রান্ত ৫২৪৫ জন। আর মৃত্যু হয়েছে ৩৬৮ জনের। মৃত্যুর সংখ্যা অনুযায়ি তৃতীয় স্থানে রয়েছে মধ্যপ্রদেশ, সেখানে মৃতের সংখ্যা ১৭৬। এর পরেই রয়েছে পশ্চিমবঙ্গ সেখানে মৃতের সংখ্যা ১৩৩। দিল্লিতে মৃত্যু হয়েছে ৭৭ জনের, উত্তরপ্রদেশে ৫৩ আর অন্ধ্রপ্রদেশে ৩৬ জনের। তামিলনাড়ুতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩১। তেলেঙ্গানাতে মৃত্যু হয়েছে ২৯জনের৷

আক্রান্তের সংখ্যায় তৃতীয় স্থানে রয়েছে দিল্লি, সেখানে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪৮৯৮। মধ্যপ্রদেশ, অন্ধ্রপ্রদেশ, তামিলনাড়ুকে নিয়েও চিন্তায় আছেন স্বাস্থ্য কর্তারা। তামিলনাড়ুতে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪,০৫৮। রাজাস্থানে ৩,১৫৮ জন আক্রান্ত, মধ্যপ্রদেশে ৩,০৪৯ জন, উত্তরপ্রদেশে ২,৮৮০, অন্ধ্রপ্রদেশে ১৭১৭ আর পঞ্জাবে ১,৪৫১ জন আক্রান্ত হয়েছেন।

বাংলার করোনা পরিস্থিতিও সন্তোষজনক নয়। ৬৮ জনের মৃ্ত্যু হয়েছে এ রাজ্যে। এখনও পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ১৩৪৪। সুস্থ হয়েছেন ২৬৮ জন।

Published by: Ananya Chakraborty
First published: May 6, 2020, 9:38 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर