• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১০ লক্ষ ৩৮ হাজার ৭১৬ জন, একদিনে সংক্রমিত ৩৪ হাজারের বেশি

দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১০ লক্ষ ৩৮ হাজার ৭১৬ জন, একদিনে সংক্রমিত ৩৪ হাজারের বেশি

শীত আসছে। বিপদও আসছে। যে সব দেশে করোনা জ্বালাতন করেনি, তাদেরও নিশ্চিন্তে থাকার উপায় নেই। দুনিয়াখ্যাত ভাইরোলজিস্ট ক্লজ স্টরের সতর্কতা, শীতে আরও শক্তিশালী হয়ে ফিরতে চলেছে কোভিড-১৯। এরই মধ্যে চিনে ফের করোনার দাপট।

শীত আসছে। বিপদও আসছে। যে সব দেশে করোনা জ্বালাতন করেনি, তাদেরও নিশ্চিন্তে থাকার উপায় নেই। দুনিয়াখ্যাত ভাইরোলজিস্ট ক্লজ স্টরের সতর্কতা, শীতে আরও শক্তিশালী হয়ে ফিরতে চলেছে কোভিড-১৯। এরই মধ্যে চিনে ফের করোনার দাপট।

এখনও পর্যন্ত করোনায় সুস্থ হয়েছেন ৬ লক্ষ ৫৩ হাজার ৭৫০।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। আনলকের দ্বিতীয় পর্বে একটু একটু করে স্বাভাবিক ছন্দে ফেরা শুরু করেছে দেশের বিভিন্ন রাজ্য৷ কিন্তু তার মধ্যেই প্রতি দিন আক্রান্তের নিরিখে রেকর্ড গড়ছে দেশ। পাশাপাশি বেড়েছে মৃত্যুর সংখ্যাও। আর সেই সঙ্গে করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ভয় জাঁকিয়ে বসছে ভারতের বুকে।

    স্বাস্থ্যমন্ত্রকের হিসেবে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৩৪,৮৮৪ জন। এই বৃদ্ধির জেরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১০ লক্ষ ৩৮ হাজার ৭১৬ জন। বিশ্ব সংক্রমণের নিরিখে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে আরও ৬২৯ জনের। মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২৬,২৭৩। এখনও পর্যন্ত করোনায় সুস্থ হয়েছেন ৬ লক্ষ ৫৩ হাজার ৭৫০। এশিয়ার মধ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে শীর্ষস্থানে রয়েছে ভারত।

    দেশের মধ্যে সব থেকে উদ্বেগজনক স্থানে মহারাষ্ট্র, গুজরাত, তামিলনাডু ও দিল্লি ৷ সরকারি হিসেবে মহারাষ্ট্রে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ লক্ষ ৯২ হাজার ৫৮৯ আর মৃত্যু হয়েছে ১১,৪৫২ জনের৷ গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮,৩০৮ জন। আক্রান্তের সংখ্যায় দ্বিতীয় স্থানে তামিলনাড়ু। সেখানে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ লক্ষ ৬০ হাজার ৯০৭ আর মৃত্যু হয়েছে ২,৩১৫ জনের। এর পরেই রয়েছে দিল্লি, এ রাজ্যে আক্রান্ত ১ লক্ষ ২০ হাজার ১০৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ৩,৫৭১ জনের। কর্ণাটকে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫৫,১১৫ আর মৃত্যু হয়েছে ১,১৪৭ জনের।

    গুজরাতে আক্রান্তের সংখ্যা ৪৬,৪৩০ আর মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ১০৬ জনের। উত্তরপ্রদেশে করোনায় আক্রান্ত ৪৫,১৬৩ জন । মৃত্যু হয়েছে ১০৮৪ জনের। তেলেঙ্গানায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪২,১৬৩ জন আর মৃত্যু হয়েছে ৪০৩ জনের। অন্ধ্র প্রদেশে সংক্রমিত হয়েছেন ৪০,৬৪৬ জন। সেখানে মৃত্যু হয়েছে ৫৩৪ জনের। পশ্চিমবঙ্গে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩৮ হাজার ১১, আর মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১,০৪৯। রাজস্থানে সংক্রমিত হয়েছেন ২৭,৭৮৯ জন। মৃত্যু হয়েছে ৫৪৬ জনের।

    Published by:Ananya Chakraborty
    First published: