Vaccine: খুব শীঘ্রই ভ্যাকসিনের ঘাটতি মেটাবে কংগ্রেস, ট্যুইট করে নরেন্দ্র মোদিকে চ্যালেঞ্জ কংগ্রেস নেতা ডিকে শিবকুমারের!

করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে মোদি সরকারকে কাঠগোড়ায় তুলে নিজের Twitter হ্যান্ডেলে একটি পোস্ট করলেন কর্নাটক প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতি ডিকে শি

করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে মোদি সরকারকে কাঠগোড়ায় তুলে নিজের Twitter হ্যান্ডেলে একটি পোস্ট করলেন কর্নাটক প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতি ডিকে শি

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: মারণ ভাইরাস করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে কাঁপছে গোটা দেশ। দৈনন্দিন বেলাগাম সংক্রমণে রাশ টানতে বারে বারে প্রকাশ্যে আসছে সরকারের ব্যর্থতা। এই সঙ্কটের মুখে কেন্দ্রের ভূমিকার বিরুদ্ধে একাধিকবার সরব হতে দেখা গিয়েছে কংগ্রেস-সহ অধিকাংশ বিরোধী রাজনৈতিক দলকে। কখনও ভ্যাকসিনের দাম তো কখনও টিকাকরণ কর্মসূচি, কোনও ক্ষেত্রেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে (Narendra Modi) কটাক্ষ করতে ছাড়েননি কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi)। এবার করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে মোদি সরকারকে কাঠগোড়ায় তুলে নিজের Twitter হ্যান্ডেলে একটি পোস্ট করলেন কর্নাটক প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতি ডিকে শিবকুমার (DK Shivakumar)।

Twitter-এ শিবকুমার লেখেন, “কংগ্রেস পার্টি সরাসরি বিশ্ব জুড়ে ভ্যাকসিন নির্মাতাদের কাছে গিয়ে তাদের থেকে ভ্যাকসিন সংগ্রহ করার অনুমতি চাইবে। আমরা দেখাব যে, মোদী এবং ইয়েদুরাপ্পার যৌথ প্রচেষ্টার চেয়ে আমরা অনেক ভালো ভাবে এবং দ্রুত এই টিকাকরণের অভিযানটিকে সফল করতে পারি।”

শিবকুমারের করা এই ট্যুইটের কয়েক মিনিট আগে কর্নাটকের প্রাক্তন CM তথা কংগ্রেস আইনসভা দলীয় নেতা সিদ্ধারামাইয়া (Siddaramaiah) এক গণমাধ্যমে জানান, রাজ্য কংগ্রেস ভ্যাকসিন সংগ্রহের জন্য ১০০ কোটি টাকা অনুদান দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তাঁর কথায়, "আমরা কংগ্রেস পার্টি থেকে ১০০ কোটি টাকা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। তবে একটি শর্তে, এই অর্থ কেবলমাত্র ভ্যাকসিন সংগ্রহ করার ক্ষেত্রেই ব্যবহার করতে হবে এবং অর্থ ব্যয় হচ্ছে সে সম্পর্কে স্বচ্ছতা থাকতে হবে।"

প্রসঙ্গত, বেশিরভাগ রাজ্যেই এখন রয়েছে করোনা ভ্যাকসিনের ঘাটতি। ৪৫ বছরের উর্ধ্বে অনেকেই ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ পেলেও দ্বিতীয় ডোজটি পেতে বেশ সমস্যায় পড়তে হচ্ছে। কারণ দেশ জুড়ে ভ্যাকসিনের জোগান যথেষ্ট নয়।

দিন কয়েক আগেই দেশের করোনা পরিস্থিতিতে কেন্দ্র সরকারের ব্যর্থতা প্রসঙ্গে আক্রমণ শানিয়েছিলেন রাহুল গান্ধি। এই বিষয়ে তিনি নিজের সোশ্যাল মিডিয়ায় লেখেন, "দেশে অক্সিজেন, ভ্যাকসিন, ওষুধের মতো নিখোঁজ প্রধানমন্ত্রীও। শুধু খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে সেন্ট্রাল ভিস্তা প্রকল্প, ওষুধের উপর GST, আর প্রধানমন্ত্রীর ছবি দেখা যাচ্ছে।"

কিন্তু এই রাজনৈতিক আক্রমণ ও পাল্টা আক্রমণ যতই চলুক না কেন, দেশে করোনার জেরে মৃত্যুমিছিলে আর লাগাম টানা যাচ্ছে না। এই পরিস্থিতিতে কংগ্রেসের তরফে নেওয়া এই টিকা অভিযান কতখানি সফল হয়, এখন সেটাই দেখার!

Published by:Swaralipi Dasgupta
First published: