বঙ্গোপসাগরে চক্কর দিচ্ছে ‘কোবরা বল’, কী পরখ করতে এসেছিল মার্কিন গুপ্তচর বিমান ?

বঙ্গোপসাগরে চক্কর দিচ্ছে ‘কোবরা বল’, কী পরখ করতে এসেছিল মার্কিন গুপ্তচর বিমান ?
representative image
  • Share this:

#নয়াদিল্লি: পুরো নাম ‘কোবরা বল আরসি-১৩৫এস’। মার্কিন বায়ুসেনার গুপ্তচর বিমান। কিন্তু সে বঙ্গোপসাগরের উপর চক্কর দিচ্ছে কেন ? কী জরিপ চলছে আকাশে? কী পরখ করতে এসেছিল মার্কিন গুপ্তচর বিমান?

একটি সংস্থার দাবি, গত কাল ভারতের উপগ্রহ-বিধ্বংসী (এ-স্যাট) ক্ষেপণাস্ত্রের কার্যকারিতা পরখ করতেই এসেছিল ‘কোবরা বল আরসি-১৩৫এস’। ক্ষেপণাস্ত্রের নিশানা হিসেবে ব্যবহার করা বাতিল কৃত্রিম উপগ্রহের টুকরো কতটা এলাকা জুড়ে ছড়িয়েছে, অন্য কী কী প্রভাব পড়েছে, কোনও বৈদ্যুতিন তথ্যপ্রমাণ পাওয়া যায় কি না— সে সবই খতিয়ে দেখতে এসেছিল বিমানটি। ভারতের এই পরীক্ষা নিয়ে ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসন এখনও চুপ। মুখ খোলেনি মার্কিন বায়ুসেনাও । কারও কারও দাবি, কোবরা বলের পাঠানো তথ্য বিশ্লেষণ করছে মার্কিন প্রশাসন। সেই ফলাফল দেখেই মন্তব্য করবে তারা।

কোবরা বলের লম্বা নাকে বসানো রেডার আর নানা রকম উচ্চ ক্ষমতার সেন্সর। ক্ষেপণাস্ত্র উড়লেই নাকি ‘গন্ধ’ পায় ওই নাক। ক্ষেপণাস্ত্রের গতিপথ, গতিবেগ-সহ নানা তথ্য চলে আসে তার যন্ত্রে। সেই তথ্য সরাসরি চলে যায় মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা এবং প্রতিরক্ষা সচিবের কাছে। গতকাল বহুক্ষণ সেটি চক্কর কাটে বঙ্গোপসাগর এলাকায়। সঙ্গে আসা তেলবাহী ট্যাঙ্কার থেকে মাঝ-আকাশে তেলও ভরে এক বার। দিয়েগো গার্সিয়ার মার্কিন ঘাঁটিতে এই বিমান রাখার মূল উদ্দেশ্য অবশ্য উত্তর কোরিয়া এবং ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচির উপরে নজরদারি। তবে গতকাল তার ‘মিশন’ ছিল অন্য।

First published: March 29, 2019, 2:21 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर