পিছিয়ে গেল 'চন্দ্রযান ৩'-এর উৎক্ষেপণ, জানালেন ইসরো প্রধান কে শিবান

পিছিয়ে গেল 'চন্দ্রযান ৩'-এর উৎক্ষেপণ, জানালেন ইসরো প্রধান কে শিবান
Chandrayaan 3 Launch Delayed Further to 2022, Says ISRO Chief K Sivan

ভারতের 'মিশন টু মুন'অর্থাৎ চাঁদের উদ্দেশ্যে ভারতের তৃতীয় যাত্রা পিছিয়ে গেল৷ সম্ভবত ২০২২ সালে উৎক্ষেপণ হবে চন্দ্রযান-৩ (Chandrayaan 3)৷

  • Share this:

    #বেঙ্গালুরু: ভারতের 'মিশন টু মুন' অর্থাৎ চাঁদের উদ্দেশ্যে ভারতের তৃতীয় যাত্রা পিছিয়ে গেল৷ সম্ভবত ২০২২ সালে উৎক্ষেপণ হবে চন্দ্রযান-৩ (Chandrayaan 3)৷ এমনটাই মনে করছেন ইসরো (ISRO) প্রধান কে শিবান৷ করোনার জন্য লকডাউনের পরিস্থিতিতে ইন্ডিয়ান স্পেস রিসার্চ অর্গানাইজেশনের (Indian Space Research Organisation) একাধিক প্রকল্প ধাক্কা খেয়েছে৷ তার মধ্যে রয়েছে চন্দ্রযান-৩৷ চলতি বছর শেষের দিকে চন্দ্রযান-৩ উৎক্ষেপণের কথা ছিল৷ কিন্তু পূর্ব নির্ধারিত সময় অনুযায়ী তা করা সম্ভব হচ্ছে না৷ মহাকাশে মানুষ পাঠানোর কাজও কিছুটা পিছিয়েছে ইসরোর, সম্ভবত গগনযানেরও মহাকাশে যেতে বিলম্ব হবে৷

    সংবাদ সংস্থা পিটিআই-কে কে শিবান জানিয়েছেন যে, পূর্বসূরীদের মতো চন্দ্রযান-৩-এর কোন অরবিটার থাকবে না৷ সেই নিয়েই কাজ চলছে৷ বাকি রূপরেখা একই থাকছে৷ যে অরবিটার চন্দ্রযান ২-তে ব্যবহার করা হয়েছিল সেটাই ব্যবহার হবে নতুন চন্দ্রযানে৷ তৃতীয় চন্দ্র অভিযানে ল্যান্ডার যাবে। তার ভিতরে থাকবে রোভার। দ্বিতীয় চন্দ্রাভিযান ব্যর্থ হয়েছিল৷ ফলে এবার ইসরোর মূল লক্ষ্য ল্যান্ডার পাঠিয়ে চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে অবতরণ করা৷ ২০১৯ সালের ২২ জুলাই দ্বিতীয় চন্দ্রযান ভূপৃষ্ঠ ছেড়ে মহাকাশের যাত্রা করেছিল৷ অভিযানে ল্যান্ডার ও রোভারের নাম রাখা হয়েছিল বিক্রম ও প্রজ্ঞান৷ গত ৭ সেপ্টেম্বর অবতরণের সময় চাঁদে আছড়ে পড়ে ভেঙে গিয়েছিল বিক্রম। এর সঙ্গেই বিশ্বের প্রথম দেশ হিসাবে চাঁদের দক্ষিণ মেরুতে অবতরণ করার স্বপ্নও ভেঙে চুরচুর হয়ে যায় ভারতের৷

    ইসরো জানাচ্ছে যে, চলতি বছর ডিসেম্বরে গগনযানকে মহাকাশে পাঠাতে পারে তারা৷ যদিও এই মিশনের কোনও নাম থাকছে না৷ পাশাপাশি এর পরেই তৃতীয় লেগে আসল মডিউল পাঠানোর ভাবনাও আছে ইসরোর৷ তবে গগনযান নিয়ে কোনও তড়িঘড়ি পদক্ষেপ নেবে না ইসরো৷ শিবান জানাচ্ছেন যে, একাধিক প্রযুক্তি এর সঙ্গে জডিয়ে রয়েছে৷ সেই সবগুলি নিখুঁত হলেই তবে গগনযান যাবে মহাকাশে৷ ২০২২-এর মধ্যে ভারত তিনজনকে মহাকাশে পাঠাতে চায়৷ গত ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে রাশিয়ায় প্রশিক্ষণ শুরু হয়েছে নির্বাচিত চার জনের।


    Published by:Subhapam Saha
    First published: