• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • দক্ষতা অনুযায়ী পরিযায়ী শ্রমিকরা পাবেন কাজ, বিশেষ App আনার ভাবনা মোদি সরকারের

দক্ষতা অনুযায়ী পরিযায়ী শ্রমিকরা পাবেন কাজ, বিশেষ App আনার ভাবনা মোদি সরকারের

কেন্দ্রীয় শ্রম দফতর ও স্বরাষ্ট্র দফতর রাজ্যের সঙ্গ নিয়মিত যোগাযোগ রাখবে৷ তাদের থেকে তথ্য নেওয়া হবে৷ করা হবে সমীক্ষাও৷ সেই তথ্যই তুলে ধরা হবে নতুন তৈরি সিস্টেমে৷ যা কাজ পেতে সাহায্য করবে শ্রমিকদের৷ এমনই জানা যাচ্ছে৷

কেন্দ্রীয় শ্রম দফতর ও স্বরাষ্ট্র দফতর রাজ্যের সঙ্গ নিয়মিত যোগাযোগ রাখবে৷ তাদের থেকে তথ্য নেওয়া হবে৷ করা হবে সমীক্ষাও৷ সেই তথ্যই তুলে ধরা হবে নতুন তৈরি সিস্টেমে৷ যা কাজ পেতে সাহায্য করবে শ্রমিকদের৷ এমনই জানা যাচ্ছে৷

কেন্দ্রীয় শ্রম দফতর ও স্বরাষ্ট্র দফতর রাজ্যের সঙ্গ নিয়মিত যোগাযোগ রাখবে৷ তাদের থেকে তথ্য নেওয়া হবে৷ করা হবে সমীক্ষাও৷ সেই তথ্যই তুলে ধরা হবে নতুন তৈরি সিস্টেমে৷ যা কাজ পেতে সাহায্য করবে শ্রমিকদের৷ এমনই জানা যাচ্ছে৷

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে উঠে আসছে নানা সমস্যার কথা৷ লকডাউন পর্বে কখনও তাদরে পায়ে হেঁটে ফেরার কাহিনি বা লকডাউনের শেষের দিকে তাদের বাড়ির ফেরার আতঙ্ক৷ সব মিলিয়ে খুবই দুরবস্থার মধ্যে রয়েছেন তারা৷ তাদের এই করুণ দশার পিছনে কেন্ত্রীয় সরকারের দিকেই আঙুল তুলেছেন বিরোধীরা৷ এরপরই ক্ষতে মলম লাগাতে মাঠে নেমেছে কেন্দ্রীয় সরকার৷ পরিযায়ীদের জন্য বিশেষ প্রকল্পের ভাবনা চিন্তা শুরু হয়েছে কেন্দ্রীয় স্তরে৷

    শোনা গিয়েছে এদের জন্য বিশেষ অ্যাপ আনতে পারেন প্রধানমন্ত্রী৷ এই অ্যাপটি শ্রমদফতরের সঙ্গে যুক্ত থাকবে৷ এতেই তাদের শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং কাজের দক্ষতার কথাও উল্লেখ করা থাকবে৷ এর ফলে নিজ নিজ যোগ্যতায় কাজ পেতে পাবেন শ্রমিকরা৷ এমনই ভাবনাচিন্তা চলছে৷

    কিন্তু মোটের ওপর এরা সকলেই অসংঠিত ক্ষেত্রে কাজ করেন৷ তাহলে কীভাবে এদের সকলকে এক জায়গায় আনা যাবে? এখানেই থাকবে রাজ্যের ভূমিকা৷ কেন্দ্রীয় শ্রম দফতর ও স্বরাষ্ট্র দফতর রাজ্যের সঙ্গ নিয়মিত যোগাযোগ রাখবে৷ তাদের থেকে তথ্য নেওয়া হবে৷ করা হবে সমীক্ষাও৷ সেই তথ্যই তুলে ধরা হবে নতুন তৈরি সিস্টেমে৷ যা কাজ পেতে সাহায্য করবে শ্রমিকদের৷ ঠিক যেভাবে জন ধন যোজনার কাজ হয়, সেভাবে হবে এই নতুন অ্যাপের কাজ৷ শুধু কাজ পাওয়া নয়, যদি কোনও শ্রমিক নিজে স্বাধীনভাবে কাজ করতে চান, তাহলে তিনি সেটা করার ও সুযোগ পাবেন৷ জানাচ্ছেন এক সরকারি আধিকারিক৷

    লকডাউেন কখনও হেঁটে কখনও ভিড়ে ঠাসা যান প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে নিজের গ্রামে ফিরেছেন পরিযায়ীরা৷ তাঁদের সেই মরিয়া লড়াই চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে দেশে পরিযায়ীদের অসহনীয় সমস্যার কথা৷ লকডাউন পর্বে কেন তাদের এতটা অবহেলা করেছে কেন্দ্র, বারবার বিরোধীরা সেই প্রশ্নই তুলেছে৷ পরিযায়ী শ্রমিকদের সঙ্গে কথা বলেন রাহুল গান্ধি৷ তাদের কষ্টের কথা মন দিয়ে শোনের কংগ্রেস নেতা৷ গরিব নয়, বড়লোকদের সরকার চালাচ্ছে কেন্দ্রের বিজেপির সরকার, এমনই অভিযোগ করেছিলেন রাহুল৷ তাই আপাতত পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে ভাবনা চিন্তা শুরু করেছে সরকার৷ তাদের বাড়ি ফেরানো শুধু নয়, কাজের ব্যাপারেও উদ্যোগী হচ্ছে কেন্দ্র৷ সেই থেকে এই অ্যাপের ভাবনা৷

    আনলকের প্রথম পর্বে ধীরে ধীরে খুলেছে বহু কল কারখানা৷ কিন্তু শ্রমিকের অভাবে কাজ এগোচ্ছে না সেভাবে৷ এসব জায়গায় ফের কাজ করতে পারেন এই পরিযায়ীরা৷ কেন্দ্রের তৈরি এই অ্যাপের মাধ্যমে জুটে যেতে পারে এই কাজ, এমনই মনে করছে সরকার৷

    Published by:Pooja Basu
    First published: