• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • CENTRAL CABINET EXPANSION RECORD NUMBER OF REPRESENTATIVES FROM BACKWARD CLASS TO BE INCLUDED DMG

Central Cabinet Expansion: দেশের ইতিহাসে তরুণতম হতে চলেছে মোদি মন্ত্রিসভা, কাল সন্ধে ৬টায় রদবদল

মূলত যে রাজ্যগুলিতে ভোট রয়েছে, সেখানকার ক্ষুদ্রতম তপশিলি জাতি, উপজাতির প্রতিনিধিত্ব যাতে মন্ত্রিসভায় থাকে তার উপর জোর দেওয়া হচ্ছে (Central Cabinet Expansion)৷

মূলত যে রাজ্যগুলিতে ভোট রয়েছে, সেখানকার ক্ষুদ্রতম তপশিলি জাতি, উপজাতির প্রতিনিধিত্ব যাতে মন্ত্রিসভায় থাকে তার উপর জোর দেওয়া হচ্ছে (Central Cabinet Expansion)৷

  • Share this:

    #দিল্লি: লক্ষ্য আগামী বছরের উত্তর প্রদেশ সহ একাধিক রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচন৷ আর সেকথা মাথায় রেখেই মোদি মন্ত্রিসভার সম্প্রসারণ হতে চলেছে৷ কেন্দ্রীয় সরকারের শীর্ষ সূত্রে অন্তত এমনটাই খবর৷ সূত্রের খবর, এবার মোদি মন্ত্রিসভায় রেকর্ড সংখ্যক তপশিলি জাতি, উপজাতি এবং পিছিয়ে পড়া সম্প্রদায়ের থেকে প্রতিনিধিত্ব রাখা হবে৷ এর পাশাপাশি জোর দেওয়া হচ্ছে তরুণ মুখ এবং বিভিন্ন ক্ষেত্রের পেশাদারদের জায়গা করে দেওয়ার উপরেও৷ নতুন মন্ত্রিসভার চেহারা কেমন হবে, তা জানা যাবে বুধবার সন্ধে ৬টায়৷

    জানা গিয়েছে, পিছিয়ে পড়া সম্প্রদায়ের অন্তত ২৪ জন প্রতিনিধি এবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় জায়গা পেতে চলেছেন৷ মূলত যে রাজ্যগুলিতে ভোট রয়েছে, সেখানকার ক্ষুদ্রতম তপশিলি জাতি, উপজাতির প্রতিনিধিত্ব যাতে মন্ত্রিসভায় থাকে তার উপর জোর দেওয়া হচ্ছে৷

    এর পাশাপাশি মহিলা প্রতিনিধিত্বও বাড়ছে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায়৷ জানা যাচ্ছে, নতুন সদস্যদের অন্তর্ভুক্তির পর স্বাধীন ভারতে মোদি মন্ত্রিসভার গড় বয়সই সবথেকে কম হতে চলেছে৷ কেন্দ্র বা রাজ্য সরকারে কাজ করার অভিজ্ঞতা রয়েছে, এমন নেতাদের মন্ত্রিসভায় জায়গা দেওয়ার ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দেওয়া হচ্ছে৷

    আগামিকাল সকাল এগারোটায় বর্তমান মন্ত্রিসভার বৈঠক রয়েছে৷ ২০১৯-এ দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার পর মোদি মন্ত্রিসভার আর কোনও সম্প্রসারণ হয়নি৷ বর্তমানে বেশ কয়েকজন মন্ত্রীর হাতে একাধিক মন্ত্রকের দায়িত্ব রয়েছে৷ আবার এমন অনেক মন্ত্রক রয়েছে, যেখানে কোনও রাষ্ট্রমন্ত্রী নেই৷ অকালি দল এনডিএ ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়ার পর অন্য কোনও শরিক দলের প্রতিনিধিত্বও মন্ত্রিসভায় নেই৷

    সূ্ত্রের খবর, বুধবার যে সম্প্রসারণ হতে চলেছে, তাতে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীসভায় জায়গা পাবে বিজেপি-র জোট শরিক জেডিইউ৷ আবার জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া, অসমের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনওয়াল এবং বিহারের প্রাক্তন উপ মুখ্যমন্ত্রী সুশীল মোদিরও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী হওয়ার সম্ভাবনা প্রবল৷ আগামী বছর উত্তর প্রদেশ, পঞ্জাব, উত্তরাখণ্ড, গুজরাত, গোয়া, মণিপুর এবং হিমাচল প্রদেশে নির্বাচন রয়েছে৷ বলার অপেক্ষা রাখে না, এর মধ্যে বিজেপি-র পাখির চোখ উত্তর প্রদেশের নির্বাচন৷ যেখানে জাতপাতের রাজনীতির উপরে অনেকটাই নির্ভর করে ভোটের ফল৷ সেকথা মাথায় রেখেই পশ্চিম উত্তর প্রদেশের মতো বিভিন্ন অংশের নির্দিষ্ট কোনও সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিত্ব যদি কেন্দ্রীয় বা রাজ্য মন্ত্রিসভায় কম থাকে, তাহলে তাঁদেরকে আরও বেশি করে জায়গা করে দেওয়া হবে৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: