নাবালক শ্যালককে খুন করে, দেহ গাড়িতে ভরে যাত্রী নিয়ে ঘুরল অ্যাপ ক্যাব চালক

নাবালক শ্যালককে খুন করে, দেহ গাড়িতে ভরে যাত্রী নিয়ে ঘুরল অ্যাপ ক্যাব চালক
representative image

নৃশংস ঘটনা

  • Share this:

#রাজস্থান: নাবালক শ্যালককে খুন করে, গাড়ির ডিকিতে মৃতদেহ ভরে, সেই গাড়িতে দিব্যি যাত্রী বসিয়ে ঘুরছিল অ্যাপ ক্যাব চালক। রাজস্থানের ভয়াবহ এই ঘটনাটি এরেকবার প্রমাণ করল, মানুষ কতটা পাশবিক হতে পারে...

অভিযুক্ত অ্যাপ ক্যাব চালকের নাম মহেন্দ্র ওরফে সোনু। শ্বশুরের কাছে একলক্ষ টাকা ধার চেয়ে না পেয়ে খেপে যায় সোনু! এরপরই শ্বশুড়মশাইয়ের ওপর আক্রোশ থেকে স্ত্রীয়ের ১৩ বছরের ভাইকে খুন করে। পুলিশের তরফে জানা যায়, সোনুর ১৩ বছর বয়সী শ্যালক ক্লাস এইটের পড়ুয়া নীতিন খাট্টিক এক বন্ধুর বাড়িতে পড়াশোনা করতে গিয়েছিল। সেখান থেকে তাকে ডেকে নিয়ে যায় অভিযুক্ত।

অনেকক্ষণ বাড়ি না ফেরায় নীতিনের খোঁজ করতে থাকে বাড়ির লোক। জানতে পারে জামাইবাবু সোনু তাকে ডেকে নিয়ে গিয়েছে। অন্যদিকে সেই সময়েই নীতিনের বাড়িতে মুক্তিপণ চেয়ে একটা ফোন আসে। গলা শুনে সোনুর উপর সন্দেহ হয় শ্বশুরবাড়ির লোকদের। পুলিশকেও সে কথা খুলে বলে। তদন্ত শুরু করে ওই নাবালক ও অভিযুক্তের মোবাইল ট্র্যাক করে সোনুকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তাকে জেরা করে নীতিনের মৃতদেহ উদ্ধার  হয়। অভিযুক্ত মহেন্দ্র ওরফে সোনু তার শ্যালকের মৃতদেহ একটি নির্জন জায়গাতে পুঁতে দিয়েছিল। রবিবার সোনুকে আদালতে পেশ করা হলে ১৮ মার্চ পর্যন্ত পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক।

First published: March 16, 2020, 3:09 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर