ভোট আপনার গণতান্ত্রিক অধিকার: ভোটদান করুন

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:May 17, 2019 11:27 PM IST
ভোট আপনার গণতান্ত্রিক অধিকার: ভোটদান করুন
File photo
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:May 17, 2019 11:27 PM IST

1947 সালের পর থেকে ভারতবর্ষ একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে এবং বিশ্বের সর্ববৃহত গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। ভারতীয় সংবিধানে প্রতিটি ভারতবাসীকে তার ভোটদান, নির্বাচন করা ও নেতৃত্বকে বেছে নেওয়ার অধিকার দেওয়া হয়েছে।

গণতান্ত্রিক অধিকার হওয়া সত্বেও, অধিকাংশ নাগরিক, বিশেষ করে যারা শহরাঞ্চলে থাকে, তাদের একটা বড় অংশ এই অধিকার প্রয়োগ না করাকেই বেছে নেয়। বাস্তবিক পক্ষে, তারা এই ভোটদানের দিনটাকে একটা ছুটির দিন হিসাবে পালন করে এবং সেদিনে তারা বিশ্রাম নেওয়া ও বন্ধুবান্ধব ও পরিবার পরিজনদের সাথে আনন্দ হুল্লোড় করে কাটাতে পছন্দ করে।

বর্তমানে, ভারতবর্ষে 17তম সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মিডিয়ার পক্ষ থেকে মানুষের মধ্যে তাদের নিজেদের একেকটি ভোটের গুরুত্ব বিষয়ে এবং কেন অবশ্যই তাদের তা প্রয়োগ করা উচিত সেবিষয়ে সচেতনতা তৈরী করার চেষ্টা চলছে।

লোকসভা নির্বাচন 2019-এর ষষ্ঠ দফার ভোটদান সমাপ্ত হয়ে গেছে। সপ্তম এবং চূড়ান্ত পর্যায়ের ভোটদান আগামী 19শে মে তারিখে সম্পন্ন হবে। 19শে মে তারিখের ভোটযুদ্ধে অনেকেরই নজর থাকবে বারাণসীর দিকে। News18 India-র পক্ষ থেকে নির্ভীক সাংবাদিক নেহা পন্থ, বারাণসীতে সেখানকার ভোট দিতে যাওয়া জনগণের মনোভাব উপলব্ধি করার জন্য সেখানে ছিলেন।

দামোদর বেনারসী, মঞ্জুলা চতুর্বেদী, সানা সাবাহ ও বিবেক বারালওয়াল যাঁরা ছিলেন অর্জনকারী এবং বিশিষ্ট ব্যক্তি তাঁরা ছিলেন তার সম্মানীয় ও নামজাদা অতিথিবৃন্দ।

Loading...

তাদের তীক্ষ্ণ অন্তর্ভেদী দৃষ্টি ও প্রেরণামূলক আলোচনার দ্বারা তাঁরা গণতন্ত্রে ভোটদানের গুরুত্ব কতখানি তা প্রতিষ্ঠা করলেন। জনগণের মনে তাঁরা এই ভাবনাকে পরিস্কারভাবে জাগাতে পেরেছেন যে, তাদের ভোট হলো:

একটি অনুঘটক

আপনার একটা ভোটই পরিবর্তন আনার ক্ষমতা রাখে। যদিও আপনার মনে হতে পারে যে আপনার একটা ভোটের কত আর ক্ষমতা, কিন্তু বাস্তব হলো যে হাজার হাজার মামুষ কিন্তু এই একই ভাবনা পোষন করে। তাহলে যদি সেই হাজার হাজার মানুষ একসাথে ভোটদান থেকে বিরত থাকেন তাহলে অকাম্য, অদক্ষ এবং স্বার্থপর প্রার্থীরা নির্বাচন জয়লাভ করতে শুরু করবে এবং এই অদক্ষ নেতৃত্বের কর্মফল আমাদেরকেই ভুগতে হবে।

একটি বুলেটের থেকেও শক্তিশালী

আপনার একটিমাত্র ভোটেরও সেই ক্ষমতা থাকে যাতে আপনি অদক্ষ একটা সরকারকে হটিয়ে নেতৃত্বে একটা পরিবর্তন আনতে পারেন। কোনো শাসক দলই চিরস্থায়ী হতে পারবে না যখন তারা উপলব্ধি করতে পারবে যে ভোটাররা যদি তাদের ক্ষমতা প্রয়োগ করে তাহলে যেকোন সময়ে তারা তাদেরকে ক্ষমতা হারানোর দরজা দেখিয়ে দিতে পারে।

আপনার কণ্ঠস্বর

আপনার ভোট হলো আপনার অভিব্যক্তির প্রকাশ ও আপনারই কণ্ঠস্বর। ভোটদান প্রক্রিয়ার মাধ্যমে আপনার প্রতিনিধি বেছে নেওয়ার মাধ্যমে সরকার গঠনের ক্ষেত্রে আপনার যে বক্তব্য আছে তাকে অনুমোদন দেয়। আপনি অন্যের কাছ থেকে আপনার কণ্ঠস্বর শোনার সুবিধাকে হাতছাড়া করবেন না।

এই গণতান্ত্রিক অধিকারকে সম্মান করুন

ভারতীয় গণতন্ত্রের একজন নাগরিক হিসাবে ভোটদার করা আপনার অধিকার। দায়িত্ব সহকারে এটি ব্যবহার করার মাধ্যমে আপনি এটির প্রতি সম্মান প্রদর্শন করুন। আপনার ভোট দিন এবং আপনার নিজের জন্য, আপনার সন্তানদের জন্য তথা সমগ্র জাতির জন্য একটা উজ্জ্বল ভবিষ্যত নিয়ে আসুন। এই বৃহত গণতান্ত্রিক প্রজাতান্ত্রিক, ভারতবর্ষের একজন নাগরিক হিসাবে গর্ব অনুভব করুন।

উপসংহার

যেভাবে বিন্দু বিন্দু জল থেকে মহাসাগর তৈরী হয় ঠিক তেমন ভাবেই একটি একটি করে সকলের ভোটদানের মাধ্যমে একটি সুস্থিত সরকার গড়ে উঠবে এবং ভারতবর্ষও ঠিক একইভাবে মহাশক্তিশালী রাষ্ট্র হিসাবে গড়ে ওঠার পথে দ্রুততার সঙ্গে যেতে পারবে। মনে রাখবেন যে, আপনার একটি ভোটও অত্যন্ত শক্তিশালী এবং বাস্তবিক পক্ষে ধারালো তরোয়ালের থেকেও শক্তিশালী।

আগামী 19শে মে 2019 তারিখে বারাণসীতে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। ভোটদান প্রক্রিয়ার মধ্যে এটি চূড়ান্ত পর্যায় এবং 17তম লোকসভা নির্বাচনের চূড়ান্ত রায়ের প্রভাব জাগানোর ক্ষমতা আছে। RP-Sanjiv Goenka Group সহ Network 18 গ্রুপের পক্ষ থেকে ধারাবাহিকভাবে জাতির প্রতি দায়িত্ব পালন করা চলছে – ভোটদান করুন এবং আপনার দায়িত্ব পূরণ করুন।

বাটন দাবাও, দেশ বানাও হলো Network18-র পক্ষ থেকে নেওয়া একটি উদ্যোগ, যা আরপি-সঞ্জীব গোয়েঙ্কা গ্রুপের পক্ষ থেকে উপস্থাপন করা হয়েছে যাতে দেশের এই সাধারণ নির্বাচনে প্রত্যেক ভারতীয়কে তার নিজের ভোটদান করার জন্য আবেদন জানানো হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়াতে #ButtonDabaoDeshBanao হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করা বিভিন্ন মতামতগুলি পড়তে পারেন।

First published: 08:54:14 PM May 17, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर