Home /News /national /

বিয়ের দিনে কন্যাদানের বদলে বাবার কাঁধে উঠল মেয়ের শব, করোনার ভয়ে রোগী ভর্তি নিল না হাসপাতাল

বিয়ের দিনে কন্যাদানের বদলে বাবার কাঁধে উঠল মেয়ের শব, করোনার ভয়ে রোগী ভর্তি নিল না হাসপাতাল

Photo- Representative

Photo- Representative

বাড়িতে আনন্দ -উল্লাসের সঙ্গে চলছিল বিয়ের অনুষ্ঠান

  • Share this:

    #কনৌজ: করোনা আবাহে অন্য অসুস্থতায় চিকিৎসা পাচ্ছেন না রোগীরা - এই অভিযোগ একাধিক সময়ে শোনা যাচ্ছে ৷ এবার এইরকমই চিকিৎসা না পেয়ে করুণতম পরিণতি হল এক রোগিনীর ৷ একটি মেয়ে বিয়ের ঠিক আগেই অসুস্থ হয়ে পড়ে ৷ তাঁকে নিয়ে তাঁর পরিবারের সদস্যরা কনৌজ থেকে কানপুর সমস্ত হাসপাতালে যান -কিন্তু ফল মেলেনি ৷ করোনা সংক্রমিত এই সন্দেহে কোনও হাসপাতালই রোগী ভর্তি করেনি ৷ এরফলে মেয়েটি চিকিৎসা না পেয়ে মারা যায় ৷ মেয়েটির মৃত্যু হয় তাঁর বিয়ের দিনেই ৷

    যে বাবা কন্যাদান মেয়েকে নতুন সংসারে পাঠানোর স্বপ্ন দেখেছিলেন তাঁকে সেদিন মেয়ের শবদেহকে কাঁধে করে শ্মশানে পাঠাতে হল ৷ এই ঘটনায় গোটা গ্রামে শোকের ছায়া নেমে এসেছে ৷ কনৌজের ঠঠিয়া থানা এলাকার ভগতপুরবা গ্রামের বাসিন্দা রাজকিশোর ১৯ বছরের মেয়ে বিনীতার বিয়ে ঠিক হয়েছিল ৷ কানপুরের দেহাত জেলার রসুলাবাদের সন্তোষের ছেলে সঞ্জয়ের সঙ্গে ছিল বিয়ে ৷ দুই পরিবারেই বিয়ে নিয়ে খুশির আবহ ছিল ৷ সকাল থেকে বিয়ের বিভিন্ন অনুষ্ঠান চলার মধ্যেই হঠাৎই বিনীতা অসুস্থ বোধ করে ৷

    পরিবাবের লোক অসু্স্থ বিনীতাকে নিয়ে দ্রুত একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যান ৷ কিন্তু করোনার ভয়ে সেখান থেকে তাঁদের ফিরিয়ে দেওয়া হয় ৷ এরপর একের পর এক হাসপাতাল -নার্সিংহোমে নিয়ে যাওয়া হয় ৷ কিন্তু সব জায়গা থেকে নিরাশা নিয়েই ফিরতে হয় ৷ সঞ্জয় বরযাত্রী নিয়ে এসে খালি হাতেই ফিরে যেতে বাধ্য হয় ৷

    পুলিশের আধিকারিক অমরেন্দ্র প্রসাদ জানিয়েছেন মৃতদেহ পোস্টমর্টেমের জন্য নেওয়া হয়েছে ৷ আসলে কী কারণ ১৯ বছরের ওই যুবতীর মৃত্যু হল তাই খতিয়ে দেখবে পুলিশ ৷

    Published by:Debalina Datta
    First published:

    Tags: Bride, Death, Marriage, Wedding

    পরবর্তী খবর