কংগ্রেস এমনিতেই হাফ হয়ে গিয়েছে, এই নির্বাচনে সাফ হয়ে যাবে: দিলীপ ঘোষ

কংগ্রেস এমনিতেই হাফ হয়ে গিয়েছে, এই নির্বাচনে সাফ হয়ে যাবে: দিলীপ ঘোষ
BJP State President Dilip Ghosh said nothing about congress in Murshidabad

প্রসঙ্গত, মুর্শিদাবাদে এখনও পর্যন্ত কংগ্রেসের মজবুত সংগঠন রয়েছে। বাম কংগ্রেসের জোট হওয়ায় মুর্শিদাবাদের ২২টি আসনের মধ্যে বেশিরভাগ আসনেই এই জোট এগিয়ে রয়েছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না। দিলীপ বলেন, "কংগ্রেস সাফ হয়ে গেছে। এই নির্বাচনের পর আর কোনও চিহ্নই থাকবে না।"

  • Share this:

#মুর্শিদাবাদ: অধীর দুর্গে এসে টুঁ শব্দটি করলেন না বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সোমবার নবগ্রামের ভোলাডাঙ্গা গ্রামের হাই স্কুলের মাঠে জনসভায় দিলীপ বক্তব্য রাখেন। ঘণ্টাখানেক বক্তব্য রাখলেও, প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত শাসক দল তৃণমুলকেই আক্রমণ করেন রাজ্য সভাপতি।

প্রসঙ্গত, মুর্শিদাবাদে এখনও পর্যন্ত কংগ্রেসের মজবুত সংগঠন রয়েছে। বাম কংগ্রেসের জোট হওয়ায় মুর্শিদাবাদের ২২টি আসনের মধ্যে বেশিরভাগ আসনেই এই জোট এগিয়ে রয়েছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না। দিলীপ বলেন, "কংগ্রেস সাফ হয়ে গেছে। এই নির্বাচনের পর আর কোনও চিহ্নই থাকবে না।" তবে অধীর চৌধুরী বলেন, "ভোট আসুক তাহলেই বুঝতে পারবে বিজেপি। একটু ধৈর্য ধরুন।"

স্বাস্থ্য সাথীর কার্ড পরিষেবা দিতে কেউ অস্বীকার করলে থানায় গিয়ে অভিযোগ করার কথা বলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ ব্যাপারে নবগ্রামের পলসন্ডাতে দিলীপ বলেন, "যবে থেকে স্বাস্থ্য সাথী কার্ড হয়েছে মানুষ কোনও পরিষেবাই পাচ্ছে না। ভেলোর তো দূরের কথা এখানেই কোনও পরিষেবা নেই স্বাস্থ্য সাথী কার্ডের।" এদিন তিনি আরও বলেন, "তৃণমূল থেকে যখন চলে আসছে তখন দিদিমণি ভুলভাল বকছেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছ থেকে আর কেউ টিকিট নেবে না। টাকা দিলেও  কেউ তৃণমূলের টিকিটে আর দাঁড়াবে না।"


অধীর চৌধুরীর দুর্গে এসে কংগ্রেসকে আক্রমণ না করা প্রসঙ্গে দিলীপের সংযোজন, "কংগ্রেস এমনিতেই হাফ হয়ে গিয়েছে, এই নির্বাচনে সাফ হয়ে যাবে৷" এ ব্যাপারে অধীর চৌধুরী বলেন, "নির্বাচন আসুক তার পরে বোঝা যাবে কার কতটা ক্ষমতা। দিলী এদিন সকালে মুর্শিদাবাদের লালবাগে এক চা চক্রে যোগ দেন। মুর্শিদাবাদ নামকরণের হোতা নবাব মুর্শিদ কুলি খাঁ'র সমসাময়িক লালবাগের প্রাচীন রাধামাধব জীউ এর মন্দির দর্শন করেন তিনি। সেখানে পুজোও দেন।

পুজো শেষে  কালিঘাটে পোড়া টাকা উদ্ধারের ঘটনার প্রেক্ষিতে জানান "পশ্চিম বাংলার মাটিতে এখনও অনেকে পুরোনো নোট পোতা আছে।" অন্যদিকে কলকাতা কর্পোরেশনের ভোট নিয়ে কোলকাতা হাইকোর্টের রায়ে রাজ্যের মুখ পুড়েছে বলে উল্লেখ করেন তিনি। উল্লেখ্য, এই প্রসঙ্গে লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা অধীরও নির্বাচন কমিশনে চিঠি পাঠিয়েছেন। অন্যদিকে বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীকে ঘুষখোর বলার প্রতিবাদ করে তিনি বলেন, "তৃণমূল কংগ্রেসে থাকার সময় কেন সে কথা দল বলেনি। কেন তাঁর বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেনি তৃণমূল কংগ্রেস সে প্রশ্নও তোলেন দিলীপ।

(প্রণব কুমার বন্দ্যোপাধ্যায়)

Published by:Subhapam Saha
First published: