সমস্ত রেকর্ড ভেঙে চুরমার! গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা আক্রান্ত ৫৫ হাজারের বেশি, মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩৫,৭৪৭

এই বৃদ্ধির জেরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১৬ লক্ষ ৩৮ হাজার ৮৭০ জন

এই বৃদ্ধির জেরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১৬ লক্ষ ৩৮ হাজার ৮৭০ জন

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। আনলকের দ্বিতীয় পর্বে একটু একটু করে স্বাভাবিক ছন্দে ফেরা শুরু করেছে দেশের বিভিন্ন রাজ্য৷ কিন্তু তার মধ্যেই প্রতি দিন আক্রান্তের নিরিখে রেকর্ড গড়ছে ভারত। পাশাপাশি বেড়েছে মৃত্যুর সংখ্যাও।

    স্বাস্থ্যমন্ত্রকের হিসেবে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৫৫,০৭৯ জন। এটি এখনও পর্যন্ত একদিনে রেকর্ড বৃদ্ধি। রোজই এই ভাইরাস নিজের রেকর্ড নিজে ভাঙছে। এই বৃদ্ধির জেরে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১৬ লক্ষ ৩৮ হাজার ৮৭০ জন। অর্থাৎ গত দু’দিনে এক লক্ষেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন দেশে। বিশ্ব সংক্রমণের নিরিখে তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে আরও ৭৭৯ জনের। আপাতত দেশে অ্যাক্টিভ করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫ লক্ষ ৪৫ হাজার ৩১৮ জন। মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩৫,৭৪৭। ফলে করোনায় মৃতের সংখ্যার নিরিখে ইটালিকে টপকে বিশ্বে পঞ্চম স্থানে উঠে এল ভারত।এখনও পর্যন্ত করোনায় সুস্থ হয়েছেন ১০ লক্ষ ৫৭ হাজার ৮০৫ জন। এশিয়ার মধ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যার বিচারে শীর্ষস্থানে রয়েছে ভারত। রেকর্ড গড়ে গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনার নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৬ লক্ষের বেশি। আইসিএমআরের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী সংখ্যাটা ৬ লক্ষ ৪২ হাজার ৫৮৮। ফলে দেশে এখনও পর্যন্ত করোনার মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১ কোটি ৮৮ লক্ষ ৩২ হাজার ৯৭০।

    দেশের মধ্যে সব থেকে উদ্বেগজনক অবস্থা মহারাষ্ট্র, গুজরাত, তামিলনাডু ও দিল্লি ৷ সরকারি হিসেবে মহারাষ্ট্রে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪ লক্ষ ১১ হাজার ৭৯৮ আর মৃত্যু হয়েছে ১৪,৭২৯ জনের৷ গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ১১,১৪৭ জন। আক্রান্তের সংখ্যায় দ্বিতীয় স্থানে তামিলনাড়ু। সেখানে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ লক্ষ ৩৯ হাজার ৯৭৮ আর মৃত্যু হয়েছে ৩,৮৩৮ জনের। এর পরেই রয়েছে দিল্লি, এ রাজ্যে আক্রান্ত ১ লক্ষ ৩৪ হাজার ৪০৩ জন। মৃত্যু হয়েছে ৩,৯৩৬ জনের। অন্ধ্র প্রদেশে সংক্রমিত হয়েছেন ১ লক্ষ ৩০ হাজার ৫৫৭ জন। সেখানে মৃত্যু হয়েছে ১,২৮১ জনের।

    কর্ণাটকে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ লক ১৮ হাজার ৬৩২ আর মৃত্যু হয়েছে ২,২৩০ জনের। উত্তরপ্রদেশে করোনায় আক্রান্ত ৮১,০৩৯ জন । মৃত্যু হয়েছে ১,৫৮৯ জনের। পশ্চিমবঙ্গে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৬৭ হাজার ৬৯২, আর মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১,৫৩৬। গুজরাতে আক্রান্তের সংখ্যা ৬০,২৮৫ আর মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৪১৮ জনের। তেলেঙ্গানায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৬০,৭১৭ জন আর মৃত্যু হয়েছে ৫০৫ জনের।

    Published by:Ananya Chakraborty
    First published: