• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • নাম সিদ্ধার্থ ধর, পরিচয় সিরিয়ার ISIS জঙ্গি?

নাম সিদ্ধার্থ ধর, পরিচয় সিরিয়ার ISIS জঙ্গি?

খাঁটি ব্রিটিশ উচ্চারণ৷ তবুও আদতে বাংলার ছেলে ৷ নাম সিদ্ধার্থ ধর ৷ আপাতত তাঁর পরিচয় সিরিয়ার আইএস জঙ্গি ! অপরাধ ? পাঁচ ব্রিটিশ ‘চর’কে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্কে রেখে হত্যা ! ইতিমধ্যেই আইএস-এর এই ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে গোটা বিশ্বে ৷

খাঁটি ব্রিটিশ উচ্চারণ৷ তবুও আদতে বাংলার ছেলে ৷ নাম সিদ্ধার্থ ধর ৷ আপাতত তাঁর পরিচয় সিরিয়ার আইএস জঙ্গি ! অপরাধ ? পাঁচ ব্রিটিশ ‘চর’কে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্কে রেখে হত্যা ! ইতিমধ্যেই আইএস-এর এই ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে গোটা বিশ্বে ৷

খাঁটি ব্রিটিশ উচ্চারণ৷ তবুও আদতে বাংলার ছেলে ৷ নাম সিদ্ধার্থ ধর ৷ আপাতত তাঁর পরিচয় সিরিয়ার আইএস জঙ্গি ! অপরাধ ? পাঁচ ব্রিটিশ ‘চর’কে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্কে রেখে হত্যা ! ইতিমধ্যেই আইএস-এর এই ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে গোটা বিশ্বে ৷

  • News18
  • Last Updated :
  • Share this:

    #সিরিয়া: খাঁটি ব্রিটিশ উচ্চারণ৷ তবুও আদতে বাংলার ছেলে ৷ নাম সিদ্ধার্থ ধর ৷ আপাতত তাঁর পরিচয় সিরিয়ার ISIS জঙ্গি ! অপরাধ ? পাঁচ ব্রিটিশ ‘চর’কে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্কে রেখে হত্যা ! ইতিমধ্যেই ISIS-এর এই ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে গোটা বিশ্বে ৷ যেখানে নতজানু হয়ে বসে আছে পাঁচ ব্রিটিশ ‘চর’ ৷ আর তাঁদের হত্যালীলায় শয়তানের হাসি হাসছে জঙ্গির দল ৷ তাদের মধ্যেই একজন এই সিদ্ধার্থ ধর ৷

    ব্রিটিশ সংবাদ সূ্ত্র থেকে পাওয়া খবর অনুযায়ী, সিদ্ধার্থ ধরের পারিবারিক শিকড় পশ্চিমবঙ্গ-বিহার অঞ্চল ৷ তবে অনেকে মনে করছেন, এই যুবক হতে পারে কাশ্মীরী পণ্ডিতও ৷ তবে সূত্রের খবর অনুযায়ী, পারিবারিক শিক়় যাই হোক না কেন, জঙ্গিদলে যুক্ত হওয়ার পর মুসলিম ধর্মে দীক্ষিত হন সিদ্ধার্থ ৷ সিদ্ধার্থের বর্তমান নাম আবু রুমায়শা।

    হত্যালীলার ভিডিওটি ব্রিটিশ গোয়েন্দাদের হাতে আসার পর থেকে নড়েচড়ে বসে তাঁরা ৷ যোগাযোগ করা হয় সিদ্ধার্থের পরিবারের সঙ্গেও ৷ ভিডিওটি দেখে হতবাক হয়ে যায় সিদ্ধার্থের বোন কণিকা ধর ৷ তাঁর কথায়, ‘গলা শুনে দাদাই মনে হচ্ছে ৷ কিন্তু ছবিটা বিশ্বাস করতে পারছি না ৷ আমি দাদাকে সামনে পেলে মেরেই ফেলব !’

    খবর অনুযায়ী, দীর্ঘদিন ধরেই ব্রিটেন থাকতেন সিদ্ধার্থ ৷ বিয়েও করেন তিনি ৷ সিদ্ধার্থ চান, তার বউ ও দই ছেলেও যেন জঙ্গিদলে অংশ নেয় ৷ এরকমটিই জানিয়েছে ব্রিটেনের এক সংবাদ মাধ্যম ৷ জোর কদমে চলছে তদন্ত ৷

    First published: