• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • অসম NRC: বাঙালিদের অধিকার নিয়ে আন্দোলনের নেতাই খসড়া তালিকার বাইরে

অসম NRC: বাঙালিদের অধিকার নিয়ে আন্দোলনের নেতাই খসড়া তালিকার বাইরে

Shekhar Dey

Shekhar Dey

অসমের নাগরিক অধিকার রক্ষা কমিটির সম্পাদক শেখর দে-র নামই ওঠেনি নাগরিকপঞ্জীতে। এর মধ্যে চক্রান্তের গন্ধ পাচ্ছেন তিনি।

  • Share this:

     #গুয়াহাটি: কালাপাহাড়ে বাঙালির মুখ তিনি। বার বার সরব হয়েছেন বাঙালিদের অধিকার রক্ষায়। এনআরসি দফতরেও প্রতিবেশীদের জন্য দরবার করেছেন। অসমের নাগরিক অধিকার রক্ষা কমিটির সম্পাদক শেখর দে-র নামই ওঠেনি নাগরিকপঞ্জীতে। এর মধ্যে চক্রান্তের গন্ধ পাচ্ছেন তিনি। শুধু শেখর দে-ই নন, কালাপাহাড়ের অনেকেরই নাম ওঠেনি নাগরিকপঞ্জীতে।

    জন্ম-কর্ম-পরিবার। গুয়াহাটির কালাপাহাড়েই ছয় দশক ধরে বাস। এ ভিটের টান যে নাড়ির টান। সেই জন্মভিটে থেকেই হঠাৎ উৎখাতের আশঙ্কা । এই আতঙ্কে কুঁকড়ে আছেন কালাপাহাড়ের অনেক বাসিন্দা। নাগরিকপঞ্জি থেকে নাম না ওঠায় হতবাক অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক শেখর দে।

    আরও পড়ুন 

    অসম NRC: বাদ পড়া ৪০ লাখ মানুষের কাছে ফের নাম তোলার ‘সুযোগ’!

    ১৯৫২ সালে জন্ম। চোখ ফুটেছে এখানেই। পড়াশোনা, চাকরি, বিয়ে ---- সব কিছুর সাক্ষী কালাপাহাড়। রয়েছে বৈধ সব কাগজপত্র। একসময় এখানকার বাঙালিদের নেতা হয়ে ওঠেন শেখর দে। বাঙালি যৌথ সমন্বয় মঞ্চ থেকেই দাবিদাওয়া নিয়ে সরব হয়েছেন বহুবার। নাগরিক অধিকার রক্ষা কমিটি, অসমের সাধারণ সম্পাদক হিসাবে এনআরসি দফতরেও যান অনেকবার। পরিবারের বাকিদের নাম উঠলেও, নাগরকিপঞ্জীতে নাম ওঠেনি শেখর দে-র। তবে কি বাঙালিদের হয়ে আওয়াজ তোলার মাশুল?

    আরও পড়ুন  ৪০ লাখ মানুষের ঠিকানা কি এবার ডিটেনশন সেন্টার? নতুন ভবন তৈরি করছে কেন্দ্র

    বৃদ্ধ বয়সে কি দেশছাড়া হবেন শেখর দে? আতঙ্ক-বিরক্ত গ্রাস করেছে পরিবারকে। একই অভিজ্ঞতা কালাপাহাড়ের রায় দম্পতির। পরিচয়পত্র রয়েছে। রয়েছে যাবতীয় বৈধ কাগজপত্র। তারপরও শুরু হল অনিশ্চয়তার জীবন। নাগরিকপঞ্জিতে নাম না থাকায় দিশেহারা রানা রায় ও তাঁর স্ত্রী। এ ভিটে তোমার নয়? প্রশ্ন করে কালাপাহাড়। নাগরিকত্ব পেতে এখন ভরসা স্রেফ প্রশাসনিক আশ্বাস।

    রিপোর্টার-তুহিন দাসচন্দ্র

    First published: