Covid-19: 'করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করতে মাস্ক পরার কোনও প্রয়োজন নেই!'

Covid-19: 'করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করতে মাস্ক পরার কোনও প্রয়োজন নেই!'

'করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করতে মাস্ক পরার কোনও প্রয়োজন নেই!'

শনিবার তিনি বলেছেন কোভিড ১৯-এর বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য মাস্ক পরার কোনও প্রয়োজন নেই। ভরা করোনার বাজারে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর মুখে এমন মন্তব্যে স্বাভাবিক ভাবেই বিতর্ক শুরু হয়েছে।

  • Share this:

    #গুয়াহাটি: দেশে ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে করোনাভাইরাস। (Coronavirus) প্রতিদিনই প্রায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। এই পরিস্থিতিতে দূরত্ববিধি ও মাস্ক পরার কথা বলছেন চিকিৎসক ও বিশেষজ্ঞরা। কিন্তু অসমের স্বাস্থ্য ও শিক্ষামন্ত্রী বিজেপির হিমন্ত বিশ্ব শর্মা (Himanta Biswa Sarma) বলছেন উল্টো কথা। শনিবার তিনি বলেছেন কোভিড ১৯-এর বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য মাস্ক পরার কোনও প্রয়োজন নেই। ভরা করোনার (Corona) বাজারে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর মুখে এমন মন্তব্যে স্বাভাবিক ভাবেই বিতর্ক শুরু হয়েছে।

    এক সাক্ষাৎকারে হিমন্ত বিশ্ব শর্মা বিস্ময় প্রকাশ করে বলেছেন, 'অসমে যখন করোনাই নেই, তা হলে কেন শুধু শুধু মাস্ক পরছেন রাজ্যবাসী! এতে বরং আরও আতঙ্ক ছড়াচ্ছে।' সারা দেশে যখন করোনার সংক্রমণ বৃদ্ধি নিয়ে কেন্দ্র এবং স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা উদ্বিগ্ন, তখন এক রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী কী ভাবে এই পরামর্শ দিচ্ছেন, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছেন অনেকেই। কেন্দ্রীয় সরকার যখন বার বার মাস্ক পরা, হাত ধোওয়া এবং দূরত্ববিধির কথা বলছে, তখন অসমের ক্ষেত্রে তা আলাদা হবে কেন? হিমন্ত বিশ্ব শর্মা এ প্রসঙ্গে বলেছেন, 'কেন্দ্র নির্দেশ দিতেই পারে। নির্দেশিকাও জারি করতে পারে। কিন্তু অসমে তো কোভিড-ই নেই! যখন কোভিড আবার ফিরবে, রাজ্যবাসীকে ফের মাস্ক পরতে বলব। কোভিড যদি রাজ্যে না-ই থাকে, আমার কী করার আছে!'

    হিমন্ত বিশ্ব শর্মা। হিমন্ত বিশ্ব শর্মা।

    নিজের বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে হিমন্ত জানিয়েছেন, রাজ্যের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে অসম সরকার সেই কাজ করার লক্ষ্যে এগোচ্ছে। তাঁর কথায়, 'লোকে যদি মাস্ক পরে, তা হলে বিউটি পার্লারগুলো চলবে কী করে? বিউটি পার্লারগুলোকেও তো বাঁচিয়ে রাখতে হবে। সে কারণেই রাজ্যবাসীকে সাময়িক ছাড় দিয়েছি। যে দিন মনে করব ফের কোভিড ঢুকেছে রাজ্যে, সে দিন রাজ্যবাসীকে বলব মাস্ক পরতে। তখন নির্দেশ অমান্য করলে ৫০০ টাকা জরিমানা করা হবে।'

    রাজ্যে কোভিড না থাকায় বিহু উৎসব পালনেও কোনও নিষেধাজ্ঞা রাখছে না তাঁদের সরকার। এ কথাও জানিয়েছেন অসমের স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, 'রাজ্য মহাসমারোহে বিহু উৎসব পালিত হবে। আমার বিশ্বাস এই উৎসব পালনে কোভিড নিয়ে কোনও আতঙ্ক কাজ করবে না রাজ্যবাসীর মনে।'

    Published by:Raima Chakraborty
    First published: