corona virus btn
corona virus btn
Loading

#LockdownEffect: বাড়িতেই মৃত সন্তান প্রসব,যন্ত্রণাকাতর অবস্থায় রাস্তায় ৫ ঘণ্টা, হাসপাতালে মৃত মহিলা

#LockdownEffect: বাড়িতেই মৃত সন্তান প্রসব,যন্ত্রণাকাতর অবস্থায় রাস্তায় ৫ ঘণ্টা, হাসপাতালে মৃত মহিলা
Photo- Representive

মাদার্স ডে কী শুধুই কথার কথা, নয়তো মা ও সন্তানের স্বাস্থ্য পরিষেবার এই হাল

  • Share this:

#অনন্তনাগ: করোনা ভাইরাস এক মারণ রোগ তা আজ প্রমাণিত ৷ কিন্তু এই মারণ রোগের সঙ্গে লড়াই করতে গিয়ে আজ মানুষকে যে অবস্থার মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে তা অনেক সময়েই সহ্যের সাধারণ সীমা অতিক্রম করে যাচ্ছে ৷ ৷ একের পর মৃত্যুর করুণ খবরে মনটা কটু বিষাদে আজ ভারাক্রান্ত ৷ করোনার সঙ্গে লড়াইতে ঝুঝতে যে লকডাউন করা হয়েছে তাতেও প্রাণ যাচ্ছে মানুষের ৷ আগেও এরকম বেশ কয়েকটি ঘটনা সামনে এসে মনকে নাড়া দিয়েছে এখনও আবার এমন এক মর্মান্তিক ঘটনার খবর সামনে এল যে মানুষ দিশাহীণ হয়ে পড়ছে ৷

সম্প্রতি অনন্তনাগ জেলার পীর পাঞ্চাল এলেকার ২৬ বছরের মাশরত জানের মৃত সন্তান প্রসব করেন নিজের বাড়িতেই ৷ লকডাউনের জন্য পরিবহন ব্যবস্থা স্বাভাবিক অবস্থায় নেই ৷ আর তাই প্রসব বেদনা হঠাৎ শুরু হয়ে যাওয়ায় তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া সম্ভব হয়নি ৷ বাড়িতেই মৃত সন্তান প্রসব করেন তিনি ৷ এরপর অনেক কষ্টে মা-কে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানে তাঁর মৃত্যু হয় ৷ দক্ষিণ কাশ্মীরের পাহাড়ি এলাকায় লকডাউন সংক্রান্ত হেল্প লাইনে ফোন করার পর গাড়ি আসতে সময় নেয় ৫ ঘণ্টা ৷ আর তার মধ্যে ঘটে যায় এত ঘটনা ৷

সন্তানসম্ভবা মহিলার কষ্ট মাত্রাতিরিক্ত বাড়ছে দেখে এলাকাবাসী একাধিক হেল্পলাইন নম্বরে ফোন করতে থাকেন ,কিন্তু সাহায্য পেতে অবস্থা আয়ত্তের বাইরে চলে যায় ৷ প্রসব যন্ত্রণা পাওয়া মশরতকে বাড়িতেই ডেলিভারি করানোর ব্যবস্থা করতে থাকেন এলাকাবাসী ও বাড়ির লোকেরা ৷ কিন্তু পরিস্থিতি হাতের বাইরে চলে যায় যখন তরুণী মৃত কন্যা সন্তান প্রসব করেন ৷

এলাকাবাসী এরপর বাড়িতে বানানো স্ট্রেচারে করে হাসপাতালের উদ্দেশ্যে হাঁটতে হাঁটতে বেরিয়ে পড়েন ৷ প্রায় ৩ কিলোমিটার পাহাড়ি পথে পাড়ি দেন ৷ বড় রাস্তায় আসার পরেও পাঁচ ঘণ্টা গাড়ির জন্য অপেক্ষা করতে হয় ৷ অনন্তনাগের মেটারনিটি চাইল্ড কেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসকদের সামনেই তাঁর মৃত্যু হয় ৷

এদিকে তরুণীর মৃত্যুর পর তাঁর আত্মীয় জানিয়েছেন মহিলার মৃত্যু হয়েছে বুকের ব্যাথায় ৷ কারণ ৭ মে তাঁকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয় যেখানে না করা হয় ইউএসজি এবং আরও বিভিন্ন চিকিৎসা কিছুই করা হয়নি ৷ আর এই কারণেই গর্ভেই মৃত্যু হয় গর্ভস্থ সন্তানের ৷

Published by: Bangla Editor
First published: May 10, 2020, 4:18 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर