• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • মদ খেয়ে বাড়িতে স্বামীকে উত্তম মধ্যম মারেন স্ত্রী!‌ নিরাপত্তা চাইলেন স্বামী

মদ খেয়ে বাড়িতে স্বামীকে উত্তম মধ্যম মারেন স্ত্রী!‌ নিরাপত্তা চাইলেন স্বামী

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

ওই ব্যক্তির অভিযোগ, গত জুন মাসে তাঁর ও তাঁর পরিবারের নামে মিথ্যা অভিযোগ থানায় দায়ের করেন স্ত্রী।

  • Share this:

    #‌আহমেদাবাদ:‌ ২৯ বছরের আহমেদাবাদের বাসিন্দার অভিযোগ শুনে প্রথমটায় বিশ্বাস করতে পারেনি পুলিশ। কারণ, সাধারণত অভিযোগ জমা পড়ে মদ্যপ স্বামীর বিরুদ্ধে। কিন্তু এবারে থানায় এসেছেন খোদ স্বামী, তাঁর অভিযোগ মদ্যপ স্ত্রী–এর বিরুদ্ধে। রোজ মত্ত অবস্থায় স্ত্রী তাঁকে মারেন আর মানসিক ভাবে অত্যাচার করেন। সেই কারণে পুলিশের কাছে নিরাপত্তা চাইলেন আহমেদাবাদের ২৯ বছরের যুবক। যা শুনে পুলিশও একেবারে থ হয়ে গিয়েছে।

    অভিযোগকারী যুবক জানিয়েছেন, একটা দীর্ঘ প্রেমের সম্পর্কের পর তাঁদের বিবাহ হয় ২০১৮ সালের মার্চ মাসে। কিন্তু তাঁর স্ত্রীয়ের যে মদের নেশা আছে, তা তিনি বুঝতে পারেন বিয়ের পরে। নিয়মিত মদ ছাড়া বৌয়ের চলে না। আর মদ পেটে পড়লেই একেবারে রণংদেহী মূর্তি ধারণ করেন স্ত্রী। তাঁকে শারীরিক ও মানসিক ভাবে অত্যাচার তো করেনই, তাঁর মা বাবাও ছাড় পান না। কখনও কখনও বৌ মদ খেয়ে তাঁর অফিসেও এসে হাজির হন। সেখানে গোলমাল পাকানোর চেষ্টা করেন। এমন অভিযোগও করেন তিনি। তাঁর অভিযোগ, এভাবে শারীরিক অত্যাচারের পাশাপাশি, মানসিক ভাবেও তাঁকে অত্যাচার করতে শুরু করেন স্ত্রী। বলেন, মা বাবার বাড়ি ছেড়ে আলাদা বাড়ি নিতে। সেখানে আলাদা সংসার শুরু করতে। সংসার আলাদা করে দিতে চান তিনি। এর মধ্যে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হন ওই অভিযোগকারীর মা বাবা। সেই সময়ে হঠাৎই সব নিয়ে দ্বিতীয় তলায় চলে যান স্ত্রী। অসুস্থ শ্বশুর, শাশুড়িকে দেখভালের সামান্য দায়িত্বটুকুও নাকি তিনি নেননি। তার বদলে বাড়ির মালিকানা মা বাবা বেঁচে থাকতে থাকতে তার নামে করে দিতে চাপ দিতে থাকেন তিনি। আত্মহত্যার হুমকিও দেন।

    ওই ব্যক্তির অভিযোগ, গত জুন মাসে তাঁর ও তাঁর পরিবারের নামে থানায় মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেন স্ত্রী। এখনও স্ত্রী দ্বিতীয় তলাতেই থাকেন। একদিন ইচ্ছা করে মদের বোতল দিয়ে নিজেকে আঘাত করে মহিলা হেল্পলাইনে ফোন করেন তিনি।

    Published by:Uddalak Bhattacharya
    First published: