• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • জিতেছিলেন ৫ কোটি কিন্তু ধরে রাখতে পারলেন না কিছুই-জানুন কেবিসি বিজেতা সুশীল কুমারের কাহিনী

জিতেছিলেন ৫ কোটি কিন্তু ধরে রাখতে পারলেন না কিছুই-জানুন কেবিসি বিজেতা সুশীল কুমারের কাহিনী

কোটিপতি হওয়ার পর তিনি যে ঠিক কী চাইছেন, তা নিজেও বুঝতে না পারায় অবশেষে তাঁর মানসিক শান্তিও ব্যাহত হয়। নিজের স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্কেরও অবনতি ঘটে তাঁর।

কোটিপতি হওয়ার পর তিনি যে ঠিক কী চাইছেন, তা নিজেও বুঝতে না পারায় অবশেষে তাঁর মানসিক শান্তিও ব্যাহত হয়। নিজের স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্কেরও অবনতি ঘটে তাঁর।

কোটিপতি হওয়ার পর তিনি যে ঠিক কী চাইছেন, তা নিজেও বুঝতে না পারায় অবশেষে তাঁর মানসিক শান্তিও ব্যাহত হয়। নিজের স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্কেরও অবনতি ঘটে তাঁর।

  • Share this:

#মুম্বই: অমিতাভ বচ্চন পরিচালিত জনপ্রিয় ক্যুইজ শো ‘কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’- পর পঞ্চম সিজনে বিহারের সুশীল কুমার ৫ কোটি টাকা জিতে গোটা দেশে শোরগোল ফেলে দিয়েছিলেন। বেশিরভাগ নিম্ন ও মধ্যবিত্ত মানুষের কাছেই ৫ কোটি টাকা উপার্জন করা জীবনের এক বিরাট স্বপ্ন! কিন্তু এই বড় অঙ্কের টাকা জিতেও সুশীল একসময় ভাল ছিলেন না। সম্প্রতি ফেসবুকে সুশীল জানিয়েছেন, কেবিসি-তে ৫ কোটি জেতার পর জীবনের অন্যতম খারাপ পরিস্থিতির সম্মুখীন হন তিনি।

কেবিসি-র দুরন্ত জয় সুশীলকে সাফল্য এনে দিলেও তিনি তা বেশিদিন ধরে রাখতে পারেননি। যেই টাকা জিতেছিলেন তা দিয়ে তিনি কয়েকদিন ব্যবসা করেন। কিন্তু ব্যবসায় তাঁর বিশাল ক্ষতি হয়। এরপর তিনি দিল্লি যান এবং তারপর মুম্বই। সুশীল আসলে বুঝে উঠতে পারছিলেন না তিনি কী করবেন। তিনি যে ঠিক কী চাইছেন, তা নিজেও বুঝতে না পারায় অবশেষে তাঁর মানসিক শান্তিও ব্যাহত হয়। নিজের স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্কেরও অবনতি ঘটে তাঁর।

ফেসবুক পোস্টে সুশীলকুমার লিখেছেন, ''২০১৫ থেকে ২০১৭ আমার জীবনের সবথেকে চ্যালেঞ্জিং সময় ছিল। কেবিসি জিতে স্থানীয় সেলিব্রিটি বনে যাওয়ায়, নিজের পড়াশোনাও শেষ করতে পারিনি। বিহারে প্ৰত্যেকমাসে আমায় তখন ১০ থেকে ১৫ টি অনুষ্ঠানে হাজির থাকতে হত।''

সুশীল আরও জানান, তিনি মিডিয়ার সামনে নিজেকে তুলে ধরার বিষয়ে সজাগ ছিলেন। তাই তিনি কাজ ছাড়া বসে থাকতে চেষ্টা করেননি। সুশীলের করা বেশ কিছু ব্যবসা বিফলে যাওয়ার পর, তিনি মানুষকে দান-ধ্যান করা আরম্ভ করেন। সুশীলের এই কাজ কিছু অসাধু লোকের নজরে আসে। বিহারে নিজের উন্নতি হবে না বুঝতে পেরে তিনি দিল্লির উদ্দেশ্যে পাড়ি দেন। দিল্লিতে গিয়ে তিনি তাঁর এক বন্ধুর সঙ্গে ক্যাব চালাতে আরম্ভ করেন। দিল্লিতে কয়েকজন শিল্পী এবং জেএনইউ, আইআইএমসি-র ছাত্রদের সঙ্গে পরিচয় হওয়ার পর তার ধারণা তৈরি হয়, নিজের জানা জীবনের বাইরেও আরও এক জগৎ আছে।

দিল্লিতে থাকার সময়ে তিনি সিগারেট ও মদে আসক্ত হয়ে পড়েন। স্ত্রীর সঙ্গে তাঁর সম্পর্কের অবনতি হতে শুরু করে। সম্পর্কের তিক্ততা এতটাই বাড়ে যে একসময় সুশীলের স্ত্রী তাঁর কাছে ডিভোর্সও চেয়ে বসেন। সুশীল এরপর দিল্লি ছেড়ে মুম্বই চলে যান বলিউডে তাঁর 'লাক ফেভার' করে কিনা তা দেখতে। সেখানে গিয়েও তিনি হতাশ হন। মুম্বই গিয়ে তিনি সারাদিন প্যাকেটের পর প্যাকেট সিগারেট খাওয়া শুরু করেন।

শেষ পর্যন্ত বহু ভুলের পর তিনি বুঝতে পারেন যে তিনি ঠিক পথে চলেননি। মুম্বই-এ পরিচালক হওয়ার ইচ্ছা নিয়ে আসা তাঁর উচিত হয়নি। বড় অঙ্কের টাকা জিতে, তিনি কতটা উদ্ধত স্বভাবের হয়ে গিয়েছিলেন তার জন্যও এখনও লজ্জিত তিনি। সুশীল পরে তাঁর বিহারের গ্রামে ফিরে আসেন যেখানে তিনি একসময় শিক্ষকতা এবং পরিবেশ বাঁচানোর কাজে অংশ নিয়েছিলেন। সুশীল বর্তমানে ভাল আছেন ৷ আবার নিজের পুরনো জীবনে ফিরে যেতে পেরে খুশি তিনি।

Published by:Siddhartha Sarkar
First published: