• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • রিয়া 'বাঙালি ব্রাহ্মণ', অভিনেত্রীর সমর্থনে সরব অধীর! সঠিক বিচারের দাবি

রিয়া 'বাঙালি ব্রাহ্মণ', অভিনেত্রীর সমর্থনে সরব অধীর! সঠিক বিচারের দাবি

রিয়ার সমর্থনে মুখ খুললেন অধীর৷

রিয়ার সমর্থনে মুখ খুললেন অধীর৷

ট্যুইটারে তিনি আরও লিখেছেন, 'রিয়ার বাবা একজন অবসরপ্রাপ্ত সেনাকর্মী৷ নিজের দুই সন্তানের জন্য বিচার চাওয়ার অধিকার রয়েছে তাঁর৷'

  • Share this:

    #কলকাতা: অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তীর সমর্থনে এবার সরব হলেন কংগ্রেস নেতা অধীররঞ্জন চৌধুরী৷ রিয়াকে 'বাঙালি ব্রাহ্মণ' বলে অভিহিত করে মাদক মামলায় তাঁর গ্রেফতারিকে হাস্যকর এবং অযৌক্তিক বলে অভিযোগ করেছেন লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা৷ বুধবারই তাঁকে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে৷

    অধীরের অভিযোগ, বিহার নির্বাচনের দিকে তাকিয়েই সুশান্তের মৃ্ত্যু নিয়ে রাজনীতি করছে বিজেপি৷ রিয়ার গ্রেফতারি নিয়ে এ দিন পর পর ট্যুইট করেন অধীর চৌধুরী৷ সেখানে তিনি অভিযোগ করেছেন, রাজনীতির স্বার্থে বিজেপি সুশান্তকে 'বিহারী অভিনেতা' বানিয়ে ছেড়েছে৷ ট্যুইটারে তিনি আরও লিখেছেন, 'রিয়ার বাবা একজন অবসরপ্রাপ্ত সেনাকর্মী৷ নিজের দুই সন্তানের জন্য বিচার চাওয়ার অধিকার রয়েছে তাঁর৷'

    অধীর চৌধুরী লিখেছেন, 'প্রয়াত তারকা সুশান্ত সিং রাজপুত একজন ভারতীয় অভিনেতা ছিলেন৷ কিন্তু বিজেপি তাঁকে বিহারী অভিনেতায় পরিণত করেছে, যাতে নির্বাচনে ফায়দা তোলা যায়৷' বিহারে সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর বিচারের দাবি জানিয়ে পোস্টার, ব্যানার লাগিয়ে প্রচার শুরু করে দিয়েছে বিজেপি৷ যার তীব্র সমালোচনা করেছে কংগ্রেস৷ অন্যদিকে সুশান্ত মৃত্যু মামলার তদন্তভার সিবিআই-এর হাতে যাওয়ার কৃতিত্ব দাবি করছে নীতীশ কুমার সরকার৷

    সুশান্তকে নিয়ে বিহারে রাজনৈতিক তরজা শুরু হলেও পশ্চিমবঙ্গের প্রথম রাজনীতিক হিসেবে রিয়ার সমর্থনে সরব হলেন অধীর৷ শুধু তাই নয়, সচেতন ভাবে নিজের করা ট্যুইটে রিয়াকে 'বাঙালি ব্রাহ্মণ' বলে মন্তব্য করেছেন তিনি৷ পুরুলিয়ার বাঘমুন্ডিতে রিয়ার পৈতৃক বাড়িও রয়েছে৷

    রিয়ার সমর্থনে অধীর লিখেছেন, 'আত্মহত্যায় প্ররোচনা, খুন বা আর্থিক কোনও অপরাধ নয়, রিয়াকে মাদক আইনে গ্রেফতার করা হয়েছে, যা হাস্যকর৷ রাজনৈতিক প্রভুদের খুশি করতে কেন্দ্রীয় সংস্থাগুলি যা করার করেছে, সমুদ্র মন্থন করে শেষ পর্যন্ত অমৃতের বদলে মাদক খুঁজে পেয়েছে তারা! অথচ কে খুনি, তা খুঁজে বের করতে এখনও অন্ধকারে হাতড়ে বেড়াচ্ছে কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থাগুলি৷'

    গত মঙ্গলবার সুশান্ত মৃত্যুর তদন্তের সূত্রে শুরু হওয়া মাদক মামলায় গ্রেফতার করা হয়েছে রিয়া চক্রবর্তীকে৷ তার আগেই রিয়ার ভাই শৌভিককেও গ্রেফতার করা হয়৷ এই মামলায় মিডিয়া ট্রায়ালের মাধ্যমে রিয়াকেই অভিযুক্ত প্রমাণের চেষ্টা চলছে বলেও অভিযোগ করেছেন অধীর৷ বিচার ব্যবস্থার জন্য যা অশুভ ইঙ্গিত বলেই মনে করছেন লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা৷ একই সঙ্গে তিনি মনে করিয়ে দিয়েছেন, বিচার পাওয়াটা প্রত্যেকের মৌলিক অধিকারের মধ্যে পড়ে৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: