৫৫ সেকেন্ডে সম্পূর্ণ শিব তাণ্ডব স্তোত্র! ৯-এর বিস্ময়বালক গড়ল ইন্ডিয়া রেকর্ড

৫৫ সেকেন্ডে সম্পূর্ণ শিব তাণ্ডব স্তোত্র! ৯-এর বিস্ময়বালক গড়ল ইন্ডিয়া রেকর্ড

৫৫ সেকেন্ডে গড়গড়িয়ে বলতে পারে সম্পূর্ণ শিব তাণ্ডব স্তোত্র, রাজধানীর ৯ বছরের বিস্ময়-বালক গড়ল ইন্ডিয়া রেকর্ড!

যে কোনও জটিল জিনিস চট করে মনে রাখতে পারে সে আর সে কারণেই তার নাম উঠেছে দেশের বিস্ময়-বালকের তালিকায়।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: লঙ্কার রাজা রাবণের পক্ষেও কাজটি নিতান্ত সহজ ছিল না! তিনিও আর যাই হোক, অন্তত ৫৫ সেকেন্ড আর ২৯ মিলিসেকেন্ডে শিব তান্ডব স্তোত্র শেষ করে উঠতে পারেননি! অথচ রাজধানীর মাত্র ৯ বছর বয়সের ভিভান গুপ্তা গড়গড়িয়ে ১৫টি সংস্কৃত শ্লোক সমন্বিত শিব তান্ডব স্তোত্রের পুরোটাই মুখস্থ বলতে পারে। আর সেই জন্যেই সম্প্রতি তার নাম উঠেছে ইন্ডিয়া বুক অফ রেকর্ডসে।

সংস্কৃত আধুনিক সময়ের মানুষের কাছে বেশ কঠিন এক ভাষা বলেই পরিগণিত হয়ে থাকে। রীতিমতো শিক্ষিত হয়েও অনেকে নিখুঁত ভাবে এই ভাষা উচ্চারণ করতে ব্যর্থ হন। যাঁরা নিয়মিত পূজাপাঠ করেন পেশাগত ভাবে, তাঁরাও অনেক সময়ে স্তোত্র উচ্চারণে জায়গায় জায়গায় হোঁচট খান। কিন্তু ভিভানের ব্যাপার আলাদা। যে কোনও জটিল জিনিস চট করে মনে রাখতে পারে সে আর সে কারণেই তার নাম উঠেছে দেশের বিস্ময়-বালকের তালিকায়।

বলা হয়, লঙ্কার রাজা দশানন একদা কৈলাস পর্বত উপড়ে ফেলতে চেয়েছিলেন। সেই চেষ্টা করলে শিব পায়ের আঙুলের চাপে কৈলাসকে আবার স্বস্থানে বসিয়ে দেন আর তার তলায় চাপা পড়ে যান দশানন। সেই ব্যথায় তিনি শিবকে প্রসন্ন করার জন্য এক স্তোত্র রচনা করে অনর্গল আর্ত রবে তা উচ্চারণ করতে থাকেন। সেই স্তোত্রই শিব তান্ডব নামে প্রসিদ্ধ হয় এবং ভয়ানক রব করেছিলেন বলে দশাননের পরিচিতি হয় রাবণ নামে।

উত্তর-পশ্চিম দিল্লির প্রীতমপুরার বাল ভারতী পাবলিক স্কুলের ছাত্র ভিভান এই স্তোত্র তার ঠাকুমাকে পড়তে শুনত। ছন্দ তাকে আকর্ষণ করে এবং এটা তার মাথায় গেঁথে যায়। ঠাকুর্দা অনিল গুপ্ত জানিয়েছেন যে এই বিস্ময়কর প্রতিভা দেখেই তাঁরা ইন্ডিয়া বুক অফ রেকর্ডসের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। অবশ্য বলে রাখা ভালো, ভিভান কিন্তু এই প্রথম ইন্ডিয়া রেকর্ড গড়েনি- এটা তার দ্বিতীয় রেকর্ড। এর আগে মাত্র ৮ বছরের মধ্যে ৭ মহাদেশ ঘুরে ফেলার খাতিরে বিশ্বের কনিষ্ঠতম মহাদেশ-ভ্রমণকারী হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছিল সে। এই ঘটনায় কৃতিত্ব ছিল তার পরিবারের। তবে এবার নিজ গুণেই রেকর্ড গড়ল ভিভান!

Published by:Raima Chakraborty
First published: