• Home
  • »
  • News
  • »
  • national
  • »
  • Kunal Ghosh: তিন থানা থেকে এল বার্তা, আরও চাপ বাড়ল কুণাল ঘোষের উপর!

Kunal Ghosh: তিন থানা থেকে এল বার্তা, আরও চাপ বাড়ল কুণাল ঘোষের উপর!

চাপ বাড়ল কুণাল ঘোষের উপর

চাপ বাড়ল কুণাল ঘোষের উপর

Kunal Ghosh: এ বিষয়ে কুণাল ঘোষ অবশ্য বলেন, ''ত্রিপুরা পুলিশ আমার নামে মামলা করেছে। আমি পালিয়ে যাওয়ার লোক নই৷ আমি যাব।''

  • Share this:

#আগরতলা: ৩০ অক্টোবরের পরে ফের তলব তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষকে (Kunal Ghosh)। ত্রিপুরার তিন থানা তলব করেছে তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদককে৷ এ বিষয়ে কুণাল ঘোষ অবশ্য বলেন,  ''ত্রিপুরা পুলিশ আমার নামে মামলা করেছে। আমি পালিয়ে যাওয়ার লোক নই৷ আমি যাব।''

রবিবার সকালেই জানা যায়, ত্রিপুরায় আরও তিন মামলা হয়েছে কুণাল ঘোষের বিরুদ্ধে। রামরাজ্যে কেন সীতার পাতালপ্রবেশ? রাজনীতিতে জয় শ্রীরাম স্লোগানের বিরোধিতা- এই ইস্যুকে সামনে রেখেই আগরতলা পশ্চিম থানার পর এবার নতুন বাজার, অমরপুর, ওম্পি থানার নোটিশ পেলেন কুণাল ঘোষ। সেই নোটিশ ইতিমধ্যেই পেয়েছেন কুণাল ঘোষ। তাঁকে অবিলম্বে ত্রিপুরায় তলব করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: তাহলে কি দল ছাড়ছেন? দিলীপ ঘোষকে পাল্টা প্রত্যাঘাত তথাগত রায়ের! লিখলেন, 'যতক্ষণ না...'

কুণাল ঘোষ জানিয়েছেন, তিনিও শীঘ্রই যাবেন ত্রিপুরায়৷ এই বিষয়ে ত্রিপুরা পুলিশের আধিকারিকদের সঙ্গে তাঁর কথা হয়েছে। ''গত রবিবার অভিষেকের সভা আর আসন্ন পুরভোটের আগেই বিজেপি আমাকে গ্রেপ্তার করাতে পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছিল।'' ঘনিষ্ঠ মহলে এমনটাই বলেছিলেন কুণাল। যদিও গত ৩০ অক্টোবর তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করে ছেড়ে দেয় পুলিশ৷

আরও পড়ুন: ব্যর্থতাতেও বিচ্ছেদ নয়? পুরভোটেও কংগ্রেসের সঙ্গে 'বন্ধুত্বের' আভাস বিমান বসুর

কিন্তু কেন এই তলব? কুণাল ঘোষ জানিয়েছেন, "আমি সভায় বলেছিলাম জনবিরোধী নীতি নেওয়া, জনগণকে পর্যুদস্ত করা বিজেপি নজর ঘোরাতে 'জয় শ্রীরাম' স্লোগান দিয়ে হিন্দুত্বের রাজনীতি করছে। আমিও হিন্দু। আমি ঈশ্বরবিশ্বাসী। আমিও রামচন্দ্রকে নমস্কার করি। কিন্তু মা, বোনেদের বলব জয় শ্রীরাম বলে কেউ বিজেপির ভোট চাইতে এলে তাদের জিজ্ঞেস করবেন রামচন্দ্র রাজা হলেও মা সীতাকে অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় কেন জঙ্গলে যেতে হয়েছিল? কেন পাতালপ্রবেশ করতে হয়েছিল? বিজেপি হিন্দুত্বের দোকান খুলে ভোট চায়। আমরা ধর্মের নামে রাজনীতির বিরুদ্ধে। আমরা সম্প্রীতি, সংহতি চাই। ধর্ম থাকুক নিজের কাছে। রোটি কাপড়া আউর মাকানের অধিকারের লড়াই থাকুক রাজনীতির ময়দানে।পুলিশ বলছে, এটা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির বিরুদ্ধে মন্তব্য। তাই এই মামলা। আসলে ত্রিপুরায় বিজেপি ভীত। ওরা অভিষেকের সফর নিয়ে আতঙ্কে ছিল। অভিষেক ফের আসবে৷ তাই ওরা তৃণমূলকে ভয় পাচ্ছে। আমাদের প্রচারে ওরা কোণঠাসা।কন্ঠরোধ করতে চাইছে। ওদের উগ্র হিন্দুত্বের রাজনীতির বিরুদ্ধে মানুষ সচেতন হচ্ছেন। পেট্রোল, ডিজেল, রান্নার গ্যাসের লাগাতার দাম বৃদ্ধি থেকে নজর ঘোরাতে ধর্মীয় রাজনীতির খেলার মুখোশ খুলে দিচ্ছি। তাই দমনপীড়নজনিত কারণে এই মামলা।"

আরও পড়ুন: জয়-হীন হতেই BJP-র অন্দরের 'রহস্য ফাঁস' রাহুল সিনহার! নিশানায় কে, শুরু প্রবল জল্পনা

তৃণমূল শিবিরের অবশ্য বক্তব্য, তাদের ভয় পেয়ে বারবার হেনস্থা করা হচ্ছে৷ একাধিক মিথ্যা ভুয়ো মামলায় তাদের জড়ানো হচ্ছে৷ পুরভোটে যাতে তারা প্রচার করতে না পারে, তাই এই ভাবে প্রশাসনকে কাজে লাগিয়ে হেনস্থা করা হচ্ছে৷ কুণাল ঘোষ অবশ্য বলছেন, "আমি ত্রিপুরাকে ভালোবাসি৷ আমি তাই লোক পাঠাব না। আগাম জামিনও চাইব না। আমি ঠিক সময়ে ওখানে যাব। আইনি লড়াই আমাদের চলবে।"

Published by:Suman Biswas
First published: