Home /News /murshidabad /
Murshidabad: মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে দালাল কে কী করল জনতা! দেখুন

Murshidabad: মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে দালাল কে কী করল জনতা! দেখুন

রক্তের দালালকে বেদম মার জনতা

রক্তের দালালকে বেদম মার জনতা

মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ফের দালাল চক্র সক্রিয়। বৃহস্পতিবার দুপুরে রক্তের দালাল কে বেঁধে রেখে মারধর করল উত্তেজিত জনতা।

  • Share this:

    #বহরমপুরঃ মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ফের দালাল চক্র সক্রিয়। বৃহস্পতিবার দুপুরে রক্তের দালাল কে বেঁধে রেখে মারধর করল উত্তেজিত জনতা। জানা গিয়েছে, সুজয় পান্ডে নামে এক অসাধু ব্যাক্তি বহরমপুর মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে (Murshidabad Medical college hospital) ব্লাড ব্যাঙ্কের কাছে দালাল কে হাতে নাতে ধরা হয়। তারপরেই তাকে বেঁধে রেখে মারধর করে জনতা। আড়াই হাজার টাকার বিনিময়ে মুর্মুর্ষ রোগীদেরকে টাকার বিনিময়ে রক্ত দেওয়া হয় বলে অভিযোগ ওঠে সুজয় পান্ডের বিরুদ্ধে। বহরমপুরে মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা করাতে আসা রোগীর পরিবারের সদস্য ফরিদা বিবি জানান, রাণীনগরের (Raninagar) বাসিন্দা সায়েরা বেওয়া কিডনি সমস্যা নিয়ে বহরমপুর মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি আছেন।

    চিকিৎসকেরা জানান তার রক্তের প্রয়োজন। তার মা-এর জন্য এমারজেন্সী রক্তের প্রয়োজন পড়ে। তখন রক্তের খোঁজ শুরু করে ফরিদা বিবি। ব্লাড ব্যাঙ্কের বাইরে দালাল সুজয় সাথে পরিচয় হয় পরিবারের। আড়াই হাজার টাকার বিনিময়ে রক্তের ব্যবস্থা করা হবে বলে জানানো হয়। অভিযোগ, আগে টাকা নিয়ে তারপরে রক্তের ব্যবস্থা করা হচ্ছিল। কিন্তু টাকা নিয়েও রক্ত দেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ ওঠে।

    আরও পড়ুনঃ পাঁচ বছর ধরে নিখোঁজ মুর্শিদাবাদের পরিযায়ী শ্রমিক

    বৃহস্পতিবার দুপুরে বিষয়টি জানা জানি হতেই হাতে নাতে পাকরাও করা হয় সুজয় কে। উত্তেজিত জনতা গণ ধোলাই দেয় মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল চত্বরে। পরে ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় বহরমপুর থানার পুলিশ। পুলিশ গিয়ে আটক করে অভিযুক্ত কে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ প্রশাসন।

    আরও পড়ুনঃ মোবাইলে আসক্তি, অভিভাবকের বকাবকিতে এ কি করল যুবতী!

    এর আগে একাধিক বার বহরমপুরে মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে রক্তের দালাল চক্র কে হাতে নাতে ধরা হয়। চলে গনধোলাই। কিন্তু তারপরেও কমেনি দালাল রাজ। সেই দালাল রাজ আদৌ ভাঙ্গা যাবে কিনা তা প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে চিকিৎসা করাতে আসা রোগী ও রোগীর আত্মীয়দের মধ্যে।

    KOUSHIK ADHIKARY
    Published by:Soumabrata Ghosh
    First published:

    Tags: Berhampore, Murshidabad

    পরবর্তী খবর