Football World Cup 2018

‘‘ শান্তি থাকলে উন্নয়ন হবে, দার্জিলিং টুকরো করতে মদত নয় ’’ কেন্দ্রকে তোপ মুখ্যমন্ত্রীর

Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Mar 14, 2018 08:28 AM IST
‘‘ শান্তি থাকলে উন্নয়ন হবে, দার্জিলিং টুকরো করতে মদত নয় ’’ কেন্দ্রকে তোপ মুখ্যমন্ত্রীর
Photo: PTI
Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Mar 14, 2018 08:28 AM IST

#দার্জিলিং: শান্তি দাও। উন্নয়নের দিশা দেবে সরকার। দার্জিলিঙে প্রথম শিল্প সম্মেলনের উদ্বোধনী মঞ্চ থেকে পাহাড়বাসীকে বার্তা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। পাহাড় হিংসার প্রসঙ্গ তুলে এদিন নাম না করে ফের কেন্দ্রকে বিঁধেছেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রীকে অবশ্য আশ্বস্ত করেছেন জিটিএ-র কার্যনিবাহী প্রধান বিনয় তামাং। তাঁর প্রতিশ্রুতি, পাহাড়কে আগামীদিনে বনধ মুক্ত অঞ্চল করবেন তারা।

সম্ভাবনা রয়েছে প্রচুর। সেই সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে পারলেই রাজ্যের শিল্প মানচিত্রে ঢুকে পড়বে দার্জিলিং। কিন্তু এই পথে প্রধান অন্তরায় হিংসা-অশান্তি। দার্জিলিঙে প্রথম শিল্প সম্মেলনের মঞ্চ থেকে গুরুত্ব দিয়ে সেটাই তুলে ধরলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাহাড়বাসীকে মুখ্যমন্ত্রীর স্পষ্ট বার্তা, শান্তি রক্ষা করতে পারলেই শিল্পায়নের পথ ধরে উন্নয়ন, বিনিয়োগ, কর্মসংস্থান সব সম্ভব। সেকাজে একশ শতাংশ সহযোগিতা করবে রাজ্য সরকার। কিন্তু শান্তি স্থাপনের গুরুদায়িত্ব নিতে হবে পাহাড়বাসীকেই।

নতুন করে পৃথক রাজ্যের দাবিতে বিমল গুরুঙদের আন্দোলনের জেরে হিংসা অশান্তি। সেই পরিস্থিতি কাটিয়ে ফের ছন্দে ফিরেছে পাহাড়। কিন্তু বারবার কেন অশান্তি ? মুখ্যমন্ত্রীর অভিযোগ, রাজনৈতিক স্বার্থেই দার্জিলিংকে টুকরো করার চেষ্টা হচ্ছে। এনিয়ে কেন্দ্রকে ফের একবার বিঁধেছেন তিনি।

শান্তি প্রতিষ্ঠা না হলে উন্নয়ন সম্ভব নয়। শিল্প, কর্মসংস্থান, প্রগতির একমাত্র চাবিকাঠিও শান্তি। সেটা পাহাড়বাসীও বুঝতে পারছেন। এদিন তাদের পক্ষ থেকেই মুখ্যমন্ত্রীকে জিটিএর কার্য়নির্বাহী প্রধানের প্রতিশ্রুতি, অচিরেই দার্জিলিঙ ও কালিম্পঙকে বনধ মুক্ত অঞ্চল হিসেবে গড়ে তুলবেন তারা।

আগেও বলেছেন, ফের একবার পাহাড়বাসীকে মুখ্যমন্ত্রী মনে করিয়ে দিয়েছেন, পাহাড়ে ভোট চাইতে আসবেন না তিনি। পাহাড়বাসী ভালো থাকুন। এটা চাইতেই বারবার ছুটে আসবেন।

First published: 08:22:58 AM Mar 14, 2018
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर