Home /News /local-18 /
West Medinipur News: দক্ষিণে বাংলার মুখ উজ্জ্বল! কেরালা ম্যারাথনে সেরার শিরোপা পেল মেদিনীপুরের তরুণ সমীর কোলে

West Medinipur News: দক্ষিণে বাংলার মুখ উজ্জ্বল! কেরালা ম্যারাথনে সেরার শিরোপা পেল মেদিনীপুরের তরুণ সমীর কোলে

সমীর

সমীর কোলে

বাড়িতে তাঁর মেডেলের পাহাড়। ১৯৯৯ সালে দিল্লিতে এক বহুজাতিক সংস্থায় চাকরি পান। ১৬ বছর চাকরি করেন। কিন্তু দৌড়ানোর নেশাই তাঁকে চাকরি ছেড়ে বাংলায় ফিরিয়ে আনে

  • Share this:

    #পশ্চিম মেদিনীপুর:  কেরালা ম্যারাথনে প্রথম হলেন মেদিনীপুরের তরুণ সংঘের সমীর কোলে। ১০ কিমি পথ অতিক্রম করতে তিনি সময় নিয়েছেন ৪০ মিনিট। ২৯০ জন প্রতিযোগীকে পিছনে ফেলে প্রথম স্থান অধিকার করেছেন সমীর। গত ১ মে কেরালা অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের উদ্যোগে কেরালায় ম্যারাথন দৌড় আয়োজিত হয়। করোনার কারণে গত দু বছর তা স্থগিত ছিল। বাঙালি এই তরুণ প্রথম হওয়ায় আবেগে ভাসেন সেখানকার বাঙালিরা। তাঁকে সেখানেই প্রশিক্ষক হিসেবে থেকে যাওয়ার ও ভালো কাজ দেওয়ার প্রস্তাবও দেওয়া হয়। কিন্তু সমীর বাবু জানিয়ে দেন, তিনি নিজের জন্মভূমি বাংলাতেই ফিরতে চান। তবে আবার আসবেন বলে তিনি কথা দেন কেরালাবাসীদের।

    কৃষক পরিবারের এই তরুণ পাঁচখুরি থেকে দৌড়ে মেদিনীপুর শহরে আসতেন। সেটা ছিল ১৯৯০ সাল। সেই সময় চোখে পড়ে যান মেদিনীপুরের বিশিষ্ট ক্রীড়া প্রশিক্ষক তপন ভকতের। তিনি তাঁকে তরুণ সংঘ ক্লাবের পক্ষ থেকে বিভিন্ন দৌড় প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণের জন্য প্রশিক্ষণ দেন। এরপর একের পর এক জেলা এবং রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তের দৌড় প্রতিযোগিতায় সফল হতে থাকেন সমীর কোলে।এক বেসরকারি ব্যাংকের উদ্যোগে কলকাতায় হওয়া ২১ কিলোমিটার ম্যারাথনে প্রথম হন সমীর। এরপর নাগপুর, নাসিক, পুনে, ঔরঙ্গাবাদ, কোলাপুরে অনুষ্ঠিত পরপর ৫ টি 'মহা ম্যারাথনের' সবকটিতেই প্রথম হন তিনি।

    বাড়িতে তাঁর মেডেলের পাহাড়। ১৯৯৯ সালে দিল্লিতে এক বহুজাতিক সংস্থায় চাকরি পান। ১৬ বছর চাকরি করেন। কিন্তু দৌড়ানোর নেশাই তাঁকে চাকরি ছেড়ে বাংলায় ফিরিয়ে আনে। বাংলায় ফিরে প্রশিক্ষণ বাড়াতে সমীর বাবুকে চাকরি ছেড়ে আসতে হয়।

    মেদিনীপুরের খয়েরুল্লাচক এলাকায় বাড়ি করেন সমীর কোলে। সেখানেই রয়েছে তাঁর আলু পেঁয়াজের ব্যবসা। রোজ সকালে ১ ঘণ্টা ও বিকেলে ১ ঘণ্টা দৌড়ান। সাঁতারও কাটেন। সমীর কোলে জানান, "শরীর ভালো রাখতে প্রত্যেককে কিছুটা শারীরিক কসরৎ করতেই হবে। শরীর ভালো থাকলে মন ভালো থাকবে।" বুধবার সন্ধ্যায় মেদিনীপুর শহরের তরুণ সংঘ ক্লাবের পক্ষ থেকে উদয়রঞ্জন পাল, কাউন্সিলর সীমা ভকত, ইন্দ্রজিৎ পানিগ্রাহী তাঁকে সংবর্ধনা জানান।

    Partha Mukherjee
    First published:

    Tags: Marathon, West Medinipur

    পরবর্তী খবর