• Home
  • »
  • News
  • »
  • local-18
  • »
  • Aadhar card| Bengal news: লোক ঠকানোর ব্যবসা! আধার আপডেটের জন্য চাওয়া হচ্ছে ৫০০-১০০০ টাকা

Aadhar card| Bengal news: লোক ঠকানোর ব্যবসা! আধার আপডেটের জন্য চাওয়া হচ্ছে ৫০০-১০০০ টাকা

photo source local 18

photo source local 18

Aadhar card| Bengal news: আধার কার্ড আপডেট করতে সরকার নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে কয়েকগুন বেশি টাকা নেওয়া হচ্ছে।

  • Share this:

    #পশ্চিম বর্ধমান: লোক ঠকানোর ব্যবসা। সরকারকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে নিঃশব্দে চলছে লুটপাট। নিয়মের তোয়াক্কা না করে নিম্নবিত্ত মানুষদের থেকে আদায় করা হচ্ছে টাকা। সরকারি প্রকল্পের সুবিধা পেতে এই শোষণ নীরবে মেনে নিতে হচ্ছে এক শ্রেণির মানুষকে। আর এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী ৫০-১০০ টাকার কাজের মূল্য নিচ্ছেন ৫০০ থেকে ১০০০ টাকা।

    যদিও প্রশাসন অভিযান শুরু করেছে। তবে বিভিন্ন জায়গায় যেভাবে আধার কার্ড (Aadhar card)  তৈরি বা আপডেট করে দেওয়ার নামে, মানুষের থেকে সরকার নির্ধারিত মূল্যের চেয়ে কয়েকগুন বেশি টাকা নেওয়া হচ্ছে, তা চিন্তার ভাঁজ ফেলছে প্রশাসনের কপালে। যে পরিমাণ অসাধু ব্যবসায়ী এই কাজে নেমেছেন, তার পক্ষে এই অভিযান নগণ্য বলেই মনে করছেন অনেকে।

    দুয়ারের সরকার প্রকল্প ( Duare Sarkar camp) বা লক্ষ্মীর ভান্ডার প্রকল্পের (lakshmir bhandar) সুবিধা পেতে প্রয়োজনীয় আধার কার্ড। কিন্তু অনেক মানুষের আধার কার্ডে বিভিন্ন রকমের ভুলভ্রান্তি রয়েছে। ফলে সেই সব আধার কার্ড ঠিক করানো বা নতুন আধার কার্ড তৈরি করার জন্য চাহিদা বেড়েছে এক লাফে। সেই সুযোগেই লুটপাট শুরু করেছেন একশ্রেণীর ব্যবসায়ী। ফটোকপি সেন্টারগুলিতে আধার কার্ড আপডেট করানোর জন্য চাওয়া হচ্ছে ৫০০ থেকে ১০০০ টাকা। কখনও বা তারও বেশী টাকা দিতে হচ্ছে। তারপরেও ভোগান্তির শেষ নেই। বারবার দোকানগুলিতে যাওয়া-আসা করতে হচ্ছে উপভোক্তাদের। সরকারি প্রকল্পের সুবিধা পেতে অসাধু ব্যবসায়ীদের শোষণ মেনে নিতে হচ্ছে নিম্নবিত্ত শ্রেণীর মানুষকে।

    গোপন সূত্রে, ফটোকপি সেন্টারগুলিতে এই বাড়তি লেনদেনের খবর পাওয়ার পরে অভিযান শুরু হয়েছে। অন্ডাল, ফরিদপুরে ফটোকপি সেন্টারগুলিতে অভিযান চালিয়েছেন স্থানীয়রা বিডিওরা। বেশ কয়েকটি দোকান সিল করে দেওয়া হয়েছে। বাড়তি টাকা চাওয়ার অভিযোগ যেসব ব্যবসায়ীদের দিকে রয়েছে, তাদের মধ্যে কিছু ব্যবসায়ীকে সতর্ক করা হয়েছে। সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিকরা বলছেন, আধার কার্ড(Aadhar card) আপডেট করার জন্য সরকার নির্ধারিত মূল্য ৫০ থেকে ১০০ টাকার মধ্যে। কিন্তু কিছু মানুষ এইসব কাজ জানে বলে গরিব মানুষের থেকে ৫০০, ১০০০ টাকা করে নিচ্ছে। এই ধরনের অন্যায় বরদাস্ত করা হবে না। সরকার নির্ধারিত মূল্যে কাজ করতে হবে। কারও বিরুদ্ধে যদি আবার এই ধরনের অভিযোগ ওঠে, তাহলে তাদের দোকান সিল করে দেওয়া হবে। পাশাপাশি গ্রেপ্তার করা হবে ওইসব অসাধু ব্যবসায়ীদের। বিডিও অফিসে এই সংক্রান্ত সাহায্য মিলবে বলে জানিয়েছেন সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিকরা।

    তবে অনেকেই বলছেন, ফটোকপি সেন্টারগুলি সাধারণ মানুষের কাছ থেকে যে পরিমাণে বেশি টাকা আদায় করা হচ্ছে, তা যথেষ্ট ভয়াবহ। নিম্নবিত্ত শ্রেণীর মানুষ উপায় না পেয়ে শোষিত হচ্ছেন। প্রশাসন অভিযান চালালেও, তা যথেষ্ট নয়। এই ব্যাপারে কড়া সিদ্ধান্ত নিতে হবে সরকারকে। অন্যায় ভাবে মানুষের থেকে টাকা আদায় করলে, তাদের বিরুদ্ধে কড়া শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। একইসঙ্গে তারা বলছেন, প্রশাসনের পাশাপাশি সতর্ক হতে হবে মানুষকেও। আধার কার্ড আপডেট (Aadhar card)করানোর জন্য সরকার কত টাকা নির্ধারণ করে দিয়েছে, তা জানাতে হবে। তাহলেই এই লোক ঠকানোর ব্যবসায়ীরা গন্ডির মধ্যে থাকবেন।

    প্রশাসন সূত্রে খবর, যে সমস্ত অসাধু ব্যবসায়ীরা ফটোকপি সেন্টারের আড়ালে, আধার কার্ড আপডেট করে দেওয়ার নামে বেশি বেশি টাকা আদায় করছে, তাদের বিরুদ্ধে অভিযান চলবে। কারও বিরুদ্ধে অভিযোগ সত্যি হলে কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

    Nayan Ghosh 

    Published by:Piya Banerjee
    First published: