Home /News /local-18 /
Paschim Bardhaman: দুর্গাপুর স্টেশন বাসস্ট্যান্ড থেকে চেপে পড়ুন বাসে, সোজা দীঘা বা পুরী

Paschim Bardhaman: দুর্গাপুর স্টেশন বাসস্ট্যান্ড থেকে চেপে পড়ুন বাসে, সোজা দীঘা বা পুরী

পুরী যাওয়ার জন্য দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থার প্রিমিয়াম বাস।

পুরী যাওয়ার জন্য দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থার প্রিমিয়াম বাস।

দিপুদার, দীঘা এবং পুরী যাওয়ার সুযোগ পাবেন এবার দুর্গাপুর স্টেশন সংলগ্ন বাস স্ট্যান্ড থেকে। দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা তরফ থেকে দেওয়া হচ্ছে এই সুযোগ। দীঘা যাওয়ার জন্য আপনি দুর্গাপুর স্টেশন সংলগ্ন বাসস্ট্যান্ডে পেয়ে যাবেন এসি এবং ননএসি দু'রকমের বাস।

আরও পড়ুন...
  • Share this:

    দুর্গাপুর: ছোটখাটো ছুটি হোক, বা বড়োসড়ো ভ্যাকেশন। বাঙালির প্রথম পছন্দ দিপুদা। দিপুদা - দীঘা এবং পুরী যাওয়ার সুযোগ পাবেন এবার দুর্গাপুর স্টেশন সংলগ্ন বাস স্ট্যান্ড থেকে। দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা তরফ থেকে দেওয়া হচ্ছে এই সুযোগ। দীঘা যাওয়ার জন্য আপনি দুর্গাপুর স্টেশন সংলগ্ন বাসস্ট্যান্ডে পেয়ে যাবেন এসি এবং নন এসি দু'রকমের বাস। আবার পুরী যাওয়ার জন্য পেয়ে যাবেন বাতানুকূল বাস। তাই যদি আপনি দুর্গাপুর সংলগ্ন এলাকার বাসিন্দা হন, আর এই গরমের সময় একটু সমুদ্রের ধারে বসে সময় কাটাতে চান, তাহলে ঘুরে আসতে পারেন দীঘা অথবা পুরী থেকে। বাড়ির সামনে দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ড থেকে বাস ধরে চলে যেতে পারেন দীঘা অথবা পুরি।

    উল্লেখ্য, দক্ষিণবঙ্গের শিল্পাঞ্চল এলাকার ভ্রমন প্রিয় মানুষের জন্য দীঘা এবং পুরি যাত্রা আরও সহজ করে দিতে বছর দুয়েক আগে দীঘা এবং পুরীর বাস সার্ভিস চালু করেছিল দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা। যদিও অতিমারি করোনার জেরে বেশ কিছুদিন বন্ধ ছিল এই বাস চলাচল। তবে সংক্রমণ আয়ত্তে আসায় আবার ভ্রমন প্রিয় মানুষদের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে যাত্রারথের দরজা। অনলাইন বা অফলাইনে টিকিটে কেটে এবার খুব সহজে পৌছে যেতে পারেন, বাঙালির কাছে সমুদ্র দেখার সেরা দুই থিকানা দীঘা অথবা পুরি। দীঘা যাওয়ার জন্য আপনি বাস পেয়ে যাবেন দুর্গাপুর সিটি সেন্টার অথবা দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ড থেকে। দীঘা যাওয়ার জন্য দুর্গাপুর থেকে মোট চারটি বাস রয়েছে। তার মধ্যে তিনটি নন এসি বাস এবং একটি এসি বাস।

    দীঘা যাওয়ার জন্য দুর্গাপুর থেকে প্রথম বাসটি ছাড়ে ভোর ৫ টা ১০ মিনিটে। সিটি সেন্টার বাস স্ট্যান্ড থেকে বাসটি ছেড়ে ভোর সাড়ে পাঁচটা নাগাদ পৌঁছে দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ড। তারপর বাঁকুড়া সাড়ে সাত ঘণ্টার মধ্যে পৌঁছে যায় দীঘায়। এই বাসটি দীঘা পৌঁছয় বেলা ১২ টা ৪০ মিনিটে। পরবর্তী বাস ছাড়ে সকাল ছ'টা ১৫ মিনিট নাগাদ। বাসটি সিটি সেন্টার থেকে ছেড়ে এসে দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ডে পৌঁছয় সকাল ছ'টা ৪৫ মিনিটে। তারপর বাঁকুড়া হয়ে বাসটি দীঘা পৌঁছে যায় দুপুর একটা ৪৫ মিনিট নাগাদ। দীঘা যাওয়ার জন্য তৃতীয় বাসটি দুর্গাপুর সিটি সেন্টার বাস স্ট্যান্ড থেকে ছাড়ে সকাল ছ'টা ৫০ মিনিটে। তারপর দুর্গাপুর স্টেশন বাসস্ট্যান্ডে এসে পৌঁছয় সকাল ৭.১৫ মিনিট নাগাদ। এই বাসটি আপনাকে দীঘা পৌঁছে দেবে দুপুর দুটো চল্লিশ মিনিটের মধ্যে।

    প্রসঙ্গত এই তিনটি বাসই নন এসি বাস। যেগুলি চলে দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা আওতায়। পাশাপাশি দুর্গাপুর থেকেই আপনি পেয়ে যাবেন দীঘা যাওয়ার জন্য এসি বাস। দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা অধীনে চলা এই বাতানুকূল বাসটি দুর্গাপুর সিটি সেন্টার বাস স্ট্যান্ড থেকে ছাড়ে বারোটা দশ মিনিটে। সাড়ে বারোটা দুর্গাপুর স্টেশন বাসস্ট্যান্ডে আসে এই বাসটি। তারপর সেখান থেকে সোজা দীঘা পৌঁছে যায় রাত আটটার মধ্যে। এসি বাসে গেলে আপনাকে জনপ্রতি ভাড়া দিতে হবে ৪৯০ টাকা। অন্যদিকে নন এসি বাসে জনপ্রতি ভাড়া পড়বে ২৩৮ টাকা। অনলাইন এবং অফলাইন, দুইভাবেই টিকিট কাটা যাবে। এসবিএসটিসির ওয়েবসাইট থেকে অনলাইন বুকিং করতে পারবেন। অথবা কাউন্টারে গিয়ে টিকিট কাটতে পারবেন। তাছাড়াও কয়েকটি বাস বুকিং সংস্থার অ্যাপ থেকে বুকিং করা যাবে। তাছাড়াও সম্প্রতি আসানসোল থেকে দিঘার একটি নাইট সার্ভিস বাস চালু হয়েছে। এই বাসটি আসানসোল থেকে ছাড়বে রাত সাড়ে আটটা নাগাদ। তারপর রানীগঞ্জ হয়ে সিটিসেন্টার বাস স্ট্যান্ডে পৌঁছবে রাত সাড়ে নটায়। দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ডে টাইম দশটা নাগাদ।

    এই বাসটি বাঁকুড়া বাইপাস, কান্দি হয়ে ভোর সাড়ে পাঁচটা নাগাদ পৌঁছে যাবে দীঘায়। এই বাসে যাত্রা করলে আপনি ওন্দাতে নৈশভোজের জন্য কিছু ক্ষণের ব্রেক পাবেন। এই বাসটিও চলবে দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা আওতায়। নন এসি এই বাসে দুর্গাপুর থেকে দীঘা জনপ্রতি ভাড়া পড়বে ২৩৮ টাকা। আসানসোল থেকে দীঘা পর্যন্ত ভাড়া পড়বে ২৬৭ টাকা। দীঘা থেকে দুর্গাপুর ফেরার জন্য আপনি দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা বাস পেয়ে যাবেন। মোটামুটি একই সময়ে দীঘা থেকে দুর্গাপুর পৌঁছে যেতে পারবেন দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা বাসে। দীঘা থেকে দুর্গাপুরের জন্য প্রথম বাসটি ছাড়ে ভোর পাঁচটা ৫০ মিনিটে।

    পরবর্তী বাস ছাড়ে ৮.৩৫ মিনিট নাগাদ। সাড়ে দশটা নাগাদ আরও একটি নন এসি বাস ছাড়ে দীঘা থেকে দুর্গাপুরের জন্য। পাশাপাশি দীঘা থেকে দুর্গাপুর আসার জন্য এসি বাস ছাড়ে দুপুর সাড়ে বারোটা নাগাদ। যা আপনাকে দুর্গাপুর পৌঁছে দেবে রাত নটার মধ্যে। আর দীঘা থেকে আসানসোল যাওয়ার নাইট সার্ভিস বাসটি ছাড়ে রাত সাড়ে নটায়। যা পরদিন সকাল ছ'টার মধ্যে আপনাকে আসানসোল পৌঁছে দেবে। দুর্গাপুর থেকে ভুবনেশ্বর যাওয়ার একটি বাস আপনি পেয়ে যাবেন দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ড থেকে। বাতানুকূল এই বাসটি চালানো হয় দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থা তরফ থেকে। দুর্গাপুর স্টেশন বাস স্ট্যান্ড থেকে পুরী যাওয়ার এই বাসটি ছাড়ে সন্ধ্যে ছটা নাগাদ। পরবর্তী স্টপেজ বাঁকুড়া। সন্ধ্যে সাতটা পাঁচ মিনিটে এই বাসটি বাঁকুড়াতে পৌঁছে যায়। এসি এই বাসে পুরী যাওয়ার জন্য আপনার জনপ্রতি ভাড়া লাগবে ৯২৪ টাকা। পুরি থেকে দুর্গাপুর ফেরার জন্য আপনি এই বাসটি পেয়ে যাবেন বিকেল পাঁচটা নাগাদ।

    First published:

    Tags: Digha, Durgapur, Paschim bardhaman

    পরবর্তী খবর