Home /News /local-18 /
East Medinipur News- সরকারি হাসপাতলে পঞ্চাশ শতাংশ ঔষধ বাতিল করায় প্রতিবাদ তমলুক ও নন্দীগ্রাম স্বাস্থ্য আধিকারিকের অফিসে

East Medinipur News- সরকারি হাসপাতলে পঞ্চাশ শতাংশ ঔষধ বাতিল করায় প্রতিবাদ তমলুক ও নন্দীগ্রাম স্বাস্থ্য আধিকারিকের অফিসে

Purba Medinipur DM office

Purba Medinipur DM office

রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের  নির্দেশিকায় স্টেট জেনারেল ও মহকুমা হাসপাতালে সরবরাহকৃত ঔষধ এর সংখ্যা ৬৪৪ থেকে ৩৬১ করা হয়েছে।

  • Share this:

    #পূর্ব মেদিনীপুর: অবস্থান ও ডেপুটেশন স্টেট জেনারেল ও মহকুমা হাসপাতালে।  সরবরাহ করা ৬৪৪ টি ঔষধের মধ্য থেকে ২৮৩ টি ঔষধ বাতিলের বিরুদ্ধে ও জেলার চিকিৎসা পরিকাঠামোর সামগ্রিক উন্নয়নের দাবিতে এই দিন, ২৫ জানুয়ারি, জেলার তমলুক ও নন্দীগ্রাম স্বাস্থ্য আধিকারিকের নিকট অবস্থান বিক্ষোভ ও ডেপুটেশন দেয় সারা বাংলা হাসপাতাল এবং জনস্বাস্থ্য রক্ষা সংগঠনের পূর্ব মেদিনীপুর জেলা শাখা (East Medinipur News)। সংগঠনের পক্ষ থেকে তমলুকের স্বাস্থ্য আধিকারিক ডাঃ বিভাস রায় ও পূর্ব মেদিনীপুর জেলা হাসপাতালের সুপারিনটেনডেন্ট ডাঃ ভাস্কর বৈষ্ণবকে পাঁচ দফা দাবি সম্বলিত স্মারকলিপি জমা দেওয়া হয়। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ডাঃ রামচন্দ্র সাঁতরা, জয়দেব ঘড়া প্রমুখ। অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচি পরিচালনা করেন ডাঃ সুজিত মাইতি। অবস্থান শেষে শতাধিক মানুষের এক বিক্ষোভ মিছিল হয় হাসপাতাল মোড়ে।

    সংগঠনের পক্ষ থেকে নন্দীগ্রাম স্বাস্থ্য জেলার নন্দীগ্রাম সহ স্বাস্থ্য আধিকারিক সুপ্রিয় মৈত্র স্মারকলিপি নেন (East Medinipur News)। নেতৃবৃন্দ অভিযোগ করেন, সরকারি প্রাথমিক স্বাস্থ্য কেন্দ্ৰ, ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্য কেন্দ্র গ্রামীণ হাসপাতালে ঔষধ ছাঁটাইয়ের পর রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের নির্দেশিকায়, স্টেট জেনারেল ও মহকুমা হাসপাতালে সরবরাহকৃত ঔষধ-এর সংখ্যা ৬৪৪ থেকে ৩৬১ করা হয়েছে, যা চূড়ান্ত অমানবিক। ওই বাদ দেওয়া ঔষধের তালিকায় জীবনদায়ী ক্যান্সার, ডায়বেটিস, হিমোফেলিয়া, নিউমোনিয়া, স্ত্রীরোগের ঔষধও রয়েছে। সংগঠনের জেলার সম্পাদক, প্রনব মাইতির অভিযোগ, যখন সারা দেশ জুড়ে করোনা সংক্রমণে জনসাধারণ দুর্বিষহ অবস্থার মধ্যে দিন কাটাচ্ছেন, ঠিক সেই সময় এই ঔষধ ছাঁটাই কোনোভাবেই মেনে নেওয়া যায় না (East Medinipur News)। আরও অভিযোগ, যখন প্রায় দু'বছর ধরে চলতে থাকা এই মহামারী পরিস্থিতিতে প্রয়োজন ছিল, বিনামূল্যে সমস্ত গরীব, মধ্যবিত্ত ও খেটে খাওয়া মানুষের চিকিৎসার সুবন্দোবস্ত করা, ঠিক সেই সময় স্বাস্থ্য দফতর, যতটুকু চিকিৎসা ক্ষেত্রে পূর্বে সুযোগ ছিল তাও সংকুচিত করছে, যা চূড়ান্ত অমানবিক।

    Saikat Shee

    Published by:Samarpita Banerjee
    First published:

    Tags: East Medinipur, Nandigram, Tamluk

    পরবর্তী খবর