Home /News /local-18 /
East Medinipur News- দীর্ঘ দু'দশক রেল যন্ত্রণা পাঁশকুড়ার বাসিন্দাদের

East Medinipur News- দীর্ঘ দু'দশক রেল যন্ত্রণা পাঁশকুড়ার বাসিন্দাদের

পাঁশকুড়া [object Object]

পাঁশকুড়া নতুন বাজার থেকে জাতীয় সড়কের মেছোগ্রাম মোড় পর্যন্ত যাওয়ার এই রাস্তার উপরেই এই লেভেল ক্রসিং। এই লেভেল ক্রসিং পেরিয়েই পাঁশকুড়া বনমালী কলেজের ছাত্র-ছাত্রীরা কলেজে আসে। কিন্তু উড়ালপুল না থাকায় সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় সকলকে

আরও পড়ুন...
  • Share this:

    #পাঁশকুড়া: রেল যন্ত্রণা পাঁশকুড়ার বাসিন্দাদের নিত্য প্রতিদিনের সঙ্গী। দীর্ঘ দুই দশক ধরেই এই যন্ত্রণা থেকে মুক্তি মেলেনি পাঁশকুড়ার বাসিন্দাদের। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পাঁশকুড়া দক্ষিণ পূর্ব রেল শাখার গুরুত্বপূর্ণ জংশন। দক্ষিণ পূর্ব রেল শাখার হাওড়া খড়গপুর লাইনে পাঁশকুড়া জংশন। প্রতিদিন এই লাইনের ওপর দিয়ে বহু এক্সপ্রেস ট্রেন, মেল ট্রেন, লোকাল ট্রেন ও মালগাড়ি যাতায়াত করে। রেললাইনের ওপর দিয়ে বহু এক্সপ্রেস ট্রেন, মেল ট্রেন, লোকাল ট্রেন, মালগাড়ি যাতায়াতের ফলে পাঁশকুড়া জংশন এর কাছে অবস্থিত রেল লেভেল ক্রসিং দীর্ঘক্ষণ বন্ধ থাকে। এর ফলে যাতায়াতের সময় আটকা পড়ে বহু মানুষ। সাধারণ মানুষের অভিযোগ, একবার রেলগেট পরলেই ১৫ মিনিট থেকে আধঘণ্টা পর্যন্ত বন্ধ থাকে লেভেল ক্রসিং। প্রতিদিন তাদের কাজের যাতায়াতের ক্ষেত্রে অসুবিধার সম্মুখীন হতে হয়। এছাড়াও আটকে পড়ে ওই রুটের বাস। এমনকি আটকে পড়ে রোগী সহ অ্যাম্বুলেন্স।

    স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, দীর্ঘক্ষণ রেলগেট বন্ধ থাকায় বাধ্য হয়েই মানুষ লেভেল ক্রসিং এর নীচ দিয়ে পারাপার করে। আর এর ফলেই ঘটে দুর্ঘটনা। সাধারণ মানুষ বহুবার লেভেল ক্রসিংয়ে উড়ালপুলের দাবি জানালেও রেল কর্তৃপক্ষ তা কানে তোলেনি। রেললাইনের ওপর এই এলাকায় উড়ালপুল নিয়ে পাঁশকুড়া পৌরসভার চেয়ারম্যান নন্দ মিশ্র জানিয়েছেন, 'পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মাননীয় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যখন ভারতের রেলমন্ত্রী ছিলেন তিনি এই এলাকায় উড়ালপুল তৈরী সচেষ্ট হয়েছিলেন। কিন্তু কেন্দ্রীয় বঞ্চনা নীতির কারণেই তা এখন বিশবাঁও জলে। এর ফল ভোগ করতে হচ্ছে সাধারণ মানুষকে।' পাঁশকুড়া নতুন বাজার থেকে জাতীয় সড়কের মেছোগ্রাম মোড় পর্যন্ত যাওয়ার এই রাস্তার উপরেই এই লেভেল ক্রসিং। এই লেভেল ক্রসিং পেরিয়েই পাঁশকুড়া বনমালী কলেজের ছাত্র-ছাত্রীরা কলেজে আসে। কিন্তু উড়ালপুল না থাকায় সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় কলেজ ছাত্র ছাত্রী, সাধারণ মানুষদের।

    Published by:Samarpita Banerjee
    First published:

    Tags: East Medinipur, Panskura

    পরবর্তী খবর