Home /News /local-18 /
মহিষাদলের ঐতিহাসিক লালবিল্ডিং সংস্কারের কাজ শুরু হল

মহিষাদলের ঐতিহাসিক লালবিল্ডিং সংস্কারের কাজ শুরু হল

ঐতিহাসিক লালবিল্ডিং 

ঐতিহাসিক লালবিল্ডিং 

এই স্কুলে পড়াশোনা করেছিলেন তাম্রলিপ্ত জাতীয় সরকারের সর্বাধিনায়ক স্বাধীনতা সংগ্রামী সতীশ চন্দ্র সামন্ত, স্বাধীনতা সংগ্রামী গোপীনন্দন গোস্বামী।

  • Share this:

    মহিষাদল: স্বাধীনতা সংগ্রামী, কবি সাহিত্যিকদের স্মৃতি বিজড়িত পুরানো মহিষাদল রাজ হাইস্কুলের 'লালবিল্ডিং' সংস্কারের কাজ শুরু হল স্থানীয় বিধায়ক ও প্রশাসনের উদ্যোগে। স্বাধীনতা সংগ্রামীদের পড়াশোনা করা বিদ্যালয়ের পুরোনো ভবন ভগ্নপ্রায় অবস্থায় পড়েছিল এতদিন। জরাজীর্ণ এই ভবনের ইট পাঁজরে গাঁথা রয়েছে ইতিহাস পুরনো নানা স্মৃতি। ভবনের চার দেওয়াল থেকে গাছগাছড়া বেরিয়েছে সেখানেই এক সময় মনীষীদের পায়ের ধুলো পড়েছে।

    পূর্ব মেদিনীপুর জেলার মহিষাদলের রাজ হাইস্কুলের পুরোনো বিল্ডিং যা লাল বিল্ডিং নামে পরিচিত। ১৮৭৪ সালে তৈরি হয়েছিল স্মৃতি বিজড়িত এই ভবন। এখানেই পড়াশোনা করেছিলেন তাম্রলিপ্ত জাতীয় সরকারের সর্বাধিনায়ক স্বাধীনতা সংগ্রামী সতীশ চন্দ্র সামন্ত, স্বাধীনতা সংগ্রামী গোপীনন্দন গোস্বামী। এখানেই পড়াশোনা করেছিলেন হিন্দির বিখ্যাত কবি সূর্যকান্ত ত্রিপাঠী যিনি কবি নিরালা নামে গোটা দেশে পরিচিত। রায় বাহাদুর জলধর সেন এইখানেই শিক্ষকতা করতেন।

    সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এই ভবন হারিয়েছে তার উজ্জ্বল। তার আনাচে-কানাচেতে জমেছে আগাছা। বেশ কয়েকবার উদ্যোগ হয়েছিলো ভবনটিকে হেরিটেজ ঘোষণা করে সংরক্ষণ করা। কিন্তু তা বাস্তবায়িত হয়নি। যার জেরে ঐতিহাসিক ভবনের ভগ্নদশায় পরিনত হয়। সম্প্রতি এক বৈঠকে ঠিক হয় সংস্কার করার। কাজ অনেকটাই এগিয়ে যায়। বৃহস্পতিবার থেকে সেই স্কুল সংস্কারের কাজ শুরু হয়েছে পুরোদমে। শুক্রবার দুপুরে স্কুল সংস্কারের কাজ ঘুরে দেখেন উপস্থিত ছিলেন মহিষাদল বিধানসভার বিধায়ক তিলক কুমার চক্রবর্তী, মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি শিউলী দাস, মহিষাদল রাজ হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক উত্তম কুমার তুং, মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির শিক্ষা কর্মাধ্যক্ষ মানস পন্ডা সহ অন্যান্যরা।

    এদিন বিধায়ক তিলক চক্রবর্তী বলেন, "এই স্কুলের সঙ্গে বহু গুনী মানুষের ছোঁয়া রয়েছে। দীর্ঘদিন প্রশাসনে থেকেও স্কুলটি সংস্কার করতে পারিনি। বিধায়ক হওয়ার পর প্রথম কাজ হিসাবে বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ কাজ হাতে নিয়েছি। তারমধ্যে এটি অন্যতম। কাজ শুরু করতে পেরে খুব ভালো লাগছে। সংস্কার করে যাতে সাধারন মানুষ ও পড়ুয়াদের কাছে তুলে ধরতে পারি সেটাই হবে আমাদের কাছে বড় প্রাপ্তি।" পাশাপাশি মহিষাদল রাজ হাই স্কুলের বর্তমান প্রধান শিক্ষক উত্তম কুমার তুং জানান, ''২০০৭ সাল থেকে চেস্টা করছিলাম স্কুলটিকে সংস্কার করার জন্য কিন্তু নানা কারনে তা হয়ে ওঠেনি। মহিষাদলের বিধায়ক তিলক চক্রবর্তী, মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির সহযোগিতায় ঐতিহাসিক লাল স্কুল বিল্ডিং সংস্কারের কাজ শুরু হয়েছে।"

    Published by:Ananya Chakraborty
    First published:

    Tags: Mahishadal, Purba medinipur

    পরবর্তী খবর