• Home
  • »
  • News
  • »
  • local-18
  • »
  • করোনা আবহে এবারও বন্ধ ২৪৫ বছরের প্রাচীন মহিষাদলের রথ

করোনা আবহে এবারও বন্ধ ২৪৫ বছরের প্রাচীন মহিষাদলের রথ

করোনা আবহে এবারও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে রথ বন্ধ রাখার। ২৪৫ বছরের ইতিহাসে এই নিয়ে তৃতীয় বার গড়াবে না মহিষাদলের রথের চাকা।

করোনা আবহে এবারও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে রথ বন্ধ রাখার। ২৪৫ বছরের ইতিহাসে এই নিয়ে তৃতীয় বার গড়াবে না মহিষাদলের রথের চাকা।

করোনা আবহে এবারও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে রথ বন্ধ রাখার। ২৪৫ বছরের ইতিহাসে এই নিয়ে তৃতীয় বার গড়াবে না মহিষাদলের রথের চাকা।

  • Share this:

    #পূর্ব মেদিনীপুর: করোনা আবহে এবারও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে রথ বন্ধ রাখার। ২৪৫ বছরের ইতিহাসে এই নিয়ে তৃতীয় বার গড়াবে না মহিষাদলের রথের চাকা। ২০২০ সালে বিশ্বজুড়ে মারণ  ভাইরাস করোনা সংক্রমণ অতিমাত্রায় ছড়িয়ে পড়লে সবকিছুর সঙ্গে বন্ধ থাকে ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠান। বন্ধ থাকে রথ। ২০২০ এর পুনরাবৃত্তি ২০২১ সালে।  করোনা ভাইরাসের কারণে এবারও বন্ধ থাকবে ঐতিহ্য প্রাচীন মহিষাদলের রথ।

    রব শুরু হওয়ার পর থেকে এই নিয়ে তৃতীয়বার রথের দড়িতে টান পড়বে না। ১৯৩২ সালে প্রথমবার দড়িতে টান পড়েনি। এক স্বাধীনতা সংগ্রামী ওপর ইংরেজদের বর্বরোচিত অত্যাচারের প্রতিবাদে বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। গান্ধি-আরউইন চুক্তি ব্যর্থ হওয়ায় ১৯৩২ খ্রিষ্টাব্দে এই চুক্তি ভেঙ্গে দিয়ে আবার আইন অমান্য আন্দোলন শুরু হয়। এবার বাংলা, উত্তরপ্রদেশ, উত্তর-পশ্চিম সীমান্তে আন্দোলন তীব্র আকার ধারণ করে। বেশ করে বাংলার প্রতিটি জায়গায় এই আন্দোলন ব্যাপক আকার ধারণ করে। ঐ বছর রথের দিন  ব্রিটিশ বাহিনী বর্বরোচিত অত্যাচার চালায়  মহিষাদলের এক স্বাধীনতা সংগ্রামীর ওপর। তার প্রতিবাদে ভক্তরা রথের দড়িতে একবার টান দিয়েই রথ টানা বন্ধ রাখে।  ব্রিটিশ পুলিশের উদ্দেশ্যে বলা হয় জনসমক্ষে ক্ষমা চাইতে হবে না হয় রথের মাথায় সেসময় ভারতের জাতীয় পতাকা লাগাতে হবে। আর এই টানাপোড়েনের মাঝে বন্ধ থাকে রথ।

    মহিষাদলের রাজা আনন্দলাল উপপাধ্যায়ের স্ত্রী জানকী দেবী মহিষাদলের রথ যাত্রার সূচনা করেন। ২৪৫ বছরের ইতিহাসে ১৯৩২ সাল ছাড়া  ২০২০ পর্যন্ত সমস্ত আচার অনুষ্ঠান রীতিনীতি মেনে গড়াচ্ছিল রথের চাকা। মহিষাদলে জগন্নাথ, বলরাম ও সুভদ্রা পাশাপাশি রাজবাড়ীর কুলদেবতা গোপাল জিউ রথে চড়ে মাসির বাড়ির উদ্দেশ্যে যাত্রা করে। মহিষাদলের ঘঘরা গ্রামে জগন্নাথ দেবের মাসির বাড়ি। উল্টো রথের দিন আবার মাসির বাড়ি থেকে মন্দিরে ফিরে আসেন। গত বছরের মতো এ বছরও পালকিতে চড়ে মাসির বাড়ির উদ্দেশ্যে যাত্রা করবে।

    মহিষাদল এর রথ পরিচালন কমিটি সভাপতি তিলক চক্রবর্তী জানান, করোনার জন্য এবছরের বন্ধ থাকবে রথ। করোনা পরিস্থিতি বর্তমানে অনেকটাই স্বাভাবিক হলেও লক্ষ লক্ষ মানুষের সমাগমে রথযাত্রা একেবারেই উচিত নয়। প্রশাসনের অনুমতিতে অল্পসংখ্যক দোকান নিয়ে রথের মেলা করার চিন্তাভাবনা চলছে।

    Saikat Shee

    Published by:Piya Banerjee
    First published: