Home /News /local-18 /
Jalpaiguri: রাস্তার ধারে পড়ে ভারসাম্যহীন মহিলা, এগিয়ে এলেন পুলিশকর্মী

Jalpaiguri: রাস্তার ধারে পড়ে ভারসাম্যহীন মহিলা, এগিয়ে এলেন পুলিশকর্মী

মহিলাকে

মহিলাকে চিকিৎসা করিয়ে ফেরানো হচ্ছে।

বাপন দাস সঙ্গে জুতিকা, সুলতা, অমিত ও মিন্টুকে নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছোন। সেখানে সোসাইটির সদস্যা জুতিকা ও সুলতা ওই মহিলাকে নতুন বস্ত্র পড়িয়ে স্থানীয় চোপড়া ব্লক হাসপাতালে ভর্তি করেন। 

  • Share this:

    ভাস্কর চক্রবর্তী, জলপাইগুড়ি: কখনও জলপাইগুড়ি কখনও কলকাতা, কখনও শিলিগুড়ি তো আবার নিজের জেলা উত্তর দিনাজপুর; চষে বেড়ান তিনি। বিভিন্ন সময়ে এক ফোনেই পৌঁছে যান আর্তের পাশে। বুধবার ছিল আন্তর্জাতিক নারী দিবস। ঘটা করে পালন করা হল দিনটিকে। এদিকে চোপড়ার কালাগছ জাতীয় সড়কের ধারে বেশ ক'দিন ধরে রাস্তার পাশে পরেছিল বস্ত্রহীন ভারসাম্যহীন এক মহিলা। সেই রাস্তা দিয়ে অনেকেরই আনাগোনা, কিন্তু নজরে এল না কারোরই। এরপর স্থানীয়রা খবর দেয় ইসলামপুরের সিস্টার্স ব্রাদার্স সোসাইটিকে। খবর পাওয়া মাত্র সোসাইটির সভাপতি বাপন দাস সঙ্গে জুতিকা, সুলতা, অমিত ও মিন্টুকে নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছোন। সেখানে সোসাইটির সদস্যা জুতিকা ও সুলতা ওই মহিলাকে নতুন বস্ত্র পড়িয়ে স্থানীয় চোপড়া ব্লক হাসপাতালে ভর্তি করেন। ব্লক প্রাথমিক হাসপাতালে ডাক্তার সঙ্গে সঙ্গে ভর্তি করে তাঁর চিকিৎসার ব‍্যবস্থা করে। সোসাইটির সভাপতি বাপন দাসের কথায়, 'আমাদের চারপাশে প্রতিনিয়ত কত মা, বোন, দিদি, কন্যা কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। খোঁজ ক'জনে নিয়ে থাকি বলতে পারবেন? বিশ্ব নারী দিবসের দিন ভেবেছিলাম আলাদা কিছু কর্মসূচি, কিন্তু ঈশ্বরের ইচ্ছে অন্য। তাই ওঁনাকে সাহায্য করতে পেরে ভালো লাগছে। আগামী কদিনের মধ্যে আমরা তাকে ইসলামপুর আশ্রয়ে রেখে দেওয়ার ব‍্যবস্থা করব। স্থানীয় সাংবাদিক, ডাক্তার ও সকল স্তরের মানুষদের অসংখ্য ধন্যবাদ এইকাজে আমাদের সাহায্য করেছেন। সত্যি সার্থক আমাদের আজকের নারী দিবস।'

    First published:

    Tags: Jalpaiguri

    পরবর্তী খবর