Home /News /local-18 /
Hooghly News- পেয়েছিলেন জগন্নাথ দেবের স্বপ্নাদেশ, সেই থেকেই রাজা ইন্দ্রচন্দ্র শুরু করেন মাহেশের রথ যাত্রার চন্দন উৎসব 

Hooghly News- পেয়েছিলেন জগন্নাথ দেবের স্বপ্নাদেশ, সেই থেকেই রাজা ইন্দ্রচন্দ্র শুরু করেন মাহেশের রথ যাত্রার চন্দন উৎসব 

মাহেশের

মাহেশের চন্দন যাত্রা উৎসব

এদিন চন্দন উৎসবের মধ্য দিয়ে শুরু হয়ে গেল রথ যাত্রা৷ যদিও এখনও প্রায় দু মাস বাকি মূল উৎসবের

  • Share this:

    #হুগলি: মাহেশের জগন্নাথ মন্দিরের রথ যাত্রার শুভ আরম্ভ হয় অক্ষয় তৃতীয়ার দিন৷ এবারও তার অন্যথা হল না৷ আজ মঙ্গলবার, অক্ষয় তৃতীয়ার দিন সকাল থেকেই মানুষ ভিড় করেছেন মাহেশের জগন্নাথ মন্দিরে৷ এদিন চন্দন উৎসবের মধ্য দিয়ে শুরু হয়ে গেল রথ যাত্রা৷ যদিও এখনও প্রায় দু মাস বাকি মূল উৎসবের৷ অক্ষয় তৃতীয়ার দিন হুগলির মাহেশের জগন্নাথ মন্দিরের জগন্নাথ বলরাম এবং সুভদ্রার কপালে চন্দন পরানো হয়৷ তার জন্য আগের দিন রাত থেকেই চন্দন বাটতে শুরু করেন এলাকার মহিলারা। চন্দন বাটা হয়ে গেলে সেই চন্দনকে একটি বিশেষ কাপড়ের মধ্যে রাখা হয়। কাপড়ের ওই পট্টি অক্ষয় তৃতীয়ার দিন জগন্নাথ দেবের কপালে লাগানো হয়।

    চন্দন যাত্রা অনুষ্ঠান শেষে মাহেশ জগন্নাথ মন্দিরের সেবাইত পিয়াল অধিকারী বলেন, "আজ থেকে শুরু হল চন্দন যাত্রা উৎসব। আজকের পর থেকে টানা ২১ দিন ধরে চলবে এই চন্দন যাত্রা উৎসব। করোনার কারণে বিগত দুই বছর মাহেশের রথের চাকা গড়ায়নি। কিন্তু এই বছর অবশেষে চন্দন যাত্রার মধ্যে দিয়ে মাহেশের রথের শুভ সূচনা হল। আজ থেকে ঠিক ৪৭ দিন বাদে মহেশের রথের চাকা গড়াবে। আবারো ভক্তবৃন্দদের ঢল নামবে মহাপ্রভু জগন্নাথের রথের টান দেওয়ার জন্য।"

    কথিত আছে, অক্ষয় তৃতীয়ার দিন নাকি জগন্নাথ দেব রাজা ইন্দ্রচন্দ্রকে স্বপ্নাদেশ দিয়েছিলেন তার সারা গায়ে চন্দনের প্রলেপ দেওয়ার। সেই থেকেই প্রতি বছর এই দিনে পুরীর জগন্নাথ দেবের মন্দিরের মতো, হুগলির মাহেশের জগন্নাথ মন্দিরের জগন্নাথ বলরাম এবং সুভদ্রাকে কপালে চন্দনের পট্টি পড়ানো হয়।

    কথিত ইতিহাস অনুযায়ী, রাজা ইন্দ্রচন্দ্রকে জগন্নাথ দেব স্বপ্নাদেশ দিয়ে বলেন, গরম থেকে রেহাই পাওয়ার জন্য তাকে চন্দন মাখিয়ে দিতে। এর ঠিক ৪২ দিন বাদে রাজার কাছে আবার স্বপ্নাদেশ আসে এবং ঠাকুর বলেন, চন্দনের জন্য তার মাথা ধরে গেছে, তাই তাকে স্নান করাতে হবে। ঠাকুরের আদেশ অনুযায়ী রাজা ১০৮ টি কলসির জল দিয়ে জগন্নাথ দেবকে স্নান করান। সেই থেকেই চন্দন যাত্রার ৪৫ দিন বাদে জগন্নাথ দেবের স্নানযাত্রা উৎসব পালন হয়। এই স্নানের পরে ঠাকুরের নাকি খুব জ্বর আসে। তার জন্য স্নান যাত্রার পর ১২ দিন ঠাকুরকে গর্ভগৃহে নিভৃত বাসে রাখা হয়। ১২ দিনের মধ্যে জগন্নাথ দেব সুস্থ হয়ে ওঠেন, তারপর তাকে নিয়ে শুরু হয় রথযাত্রা।

    Rahi Haldar
    Published by:Samarpita Banerjee
    First published:

    Tags: Hooghly, Mahesh Rath Yatra

    পরবর্তী খবর