• Home
  • »
  • News
  • »
  • local-18
  • »
  • স্বাস্থ্যবিধি মেনে লোকাল ট্রেন চালুর দাবিতে জেলার বিভিন্ন স্টেশনে নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের ডেপুটেশন

স্বাস্থ্যবিধি মেনে লোকাল ট্রেন চালুর দাবিতে জেলার বিভিন্ন স্টেশনে নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের ডেপুটেশন

স্বাস্থ্যবিধি মেনে লোকাল ট্রেন চালুর দাবিতে জেলার বিভিন্ন স্টেশনে নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের ডেপুটেশন

স্বাস্থ্যবিধি মেনে লোকাল ট্রেন চালুর দাবিতে জেলার বিভিন্ন স্টেশনে নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের ডেপুটেশন

স্বাস্থ্যবিধি মেনে লোকাল ট্রেন চালুর দাবিতে জেলার বিভিন্ন স্টেশনে নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের ডেপুটেশন

  • Share this:

    #পূর্ব মেদিনীপুর:  লোকাল ট্রেন চালুর দাবিতে আজ নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের পক্ষ থেকে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার বিভিন্ন স্টেশনে স্টেশন ম্যানেজার এর মাধ্যমে দক্ষিণ-পূর্ব রেলের ডিভিশনাল ম্যানেজারকে ডেপুটেশন দেওয়া হল। দক্ষিণ পূর্ব রেল শাখার মেছাদা, পাঁশকুড়া, তমলুক, কোলাঘাট, ভোগপুর, ও কাঁথি কাঁথি সহ বিভিন্ন স্টেশনে ডেপুটেশন দেওয়া হয়।

    ইতিমধ্যেই লোকাল ট্রেন চালানোর দাবিতে পূর্ব রেল শাখার বিভিন্ন স্টেশনে বিক্ষোভ দেখিয়েছে সাধারণ মানুষেরা। করোনাভাইরাস দ্বিতীয় ঢেউ পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে ব্যাপক ছড়িয়ে পড়তে রাজ্য সরকার বিভিন্ন গন পরিবহন মাধ্যম সহ লোকাল ট্রেন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়। বর্তমানে রাজ্যে করোনা সংক্রমনের হার অনেক কমেছে। রাজ্য সরকার ১ জুলাই বৃহস্পতিবার থেকে রাজ্যে সরকারি ও বেসরকারি বাস চলাচলের নির্দেশ দিয়েছে। কিন্তু লোকাল ট্রেন চলাচলের কোন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। অথচ লোকাল ট্রেন অফিস যাত্রী থেকে শুরু করে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী ও নিত্য প্রয়োজনে বেরোনো সাধারণ মানুষের প্রধান যাতায়াতের মাধ্যম।

    ট্রেন চালানোর দাবিতে মঙ্গলবার নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের পূর্ব মেদিনীপুর জেলা শাখার সদস্যরা দক্ষিণ পূর্ব রেল শাখার মেছাদা, পাঁশকুড়া, কোলাঘাট, ও তমলুক সহ বিভিন্ন রেলস্টেশনে স্টেশন ম্যানেজার এর কাছের ডেপুটেশন জমা দেয়।

    ইতিপূর্বে মঞ্চের রাজ্য শাখার পক্ষ থেকে মুখ্যমন্ত্রীকে এ বিষয়ে স্মারকলিপি দেওয়া হয়েছে বলে জানান মঞ্চের প্রতিনিধিরা। মেছেদায় ডেপুটেশন এ নেতৃত্ব দেন জেলা আহ্বায়ক মধুসূদন বেরা। এছাড়াও সুমিত রাউত, সৈয়্দ মালেকুজ্জামান, জগদীশ শাসমল, অনুপ মাইতি সহ অন্যান্য নেতৃত্বে বিভিন্ন স্টেশনে ডেপুটেশন জমা দেওয়া হয়।

    নাগরিক প্রতিরোধ মঞ্চের পূর্ব মেদিনীপুর জেলা আহ্বায়ক মধুসূদন বেরা বলেন, \"ট্রেন চালানো যেখানে অত্যন্ত জরুরী ছিল সে জায়গায় সোমবারের মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা সকলকে হতাশ করেছে। আমরা ট্রেন চালানোর দাবিতে এলাকায় এলাকায় প্রতিবাদ কর্মসূচী নিয়েছি।  তিনি বলেন এ রাজ্যে লোকাল ট্রেন বন্ধ থাকার কারণে রেল ব্যবস্থার উপর নির্ভরশীল নিত্যযাত্রী, হকার সহ সাধারন মানুষের দুর্ভোগ চরমে পৌঁছেছে। গাদাগাদি করে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে, বিপুল অর্থ ব্যায় করে মানুষ যাতায়াত করতে বাধ্য হচ্ছেন। দ্রুত ব্যবস্থা না নিলে রাস্তায় নেমে প্রতিবাদ হবে।\"

    Published by:Ananya Chakraborty
    First published: