মাকড়সা কন্যা ! তরতর করে উঠে যাচ্ছে পিছল থাম বেয়ে ! ভাইরাল ভিডিওতে তোলাপাড়

একরত্তি মেয়ে তরতর করে উঠে যাচ্ছে পিছল থাম বেয়ে, ভাইরাল ভিডিওয় তোলপাড় নেটদুনিয়া!

ক্ষুদে শিশুর অনুপ্রেরণকদায়ক ভিডিও দেখে রীতিমতো বিস্মিত নেটদুনিয়া।

  • Share this:

এ যেন স্কটল্যান্ডের রাজা রবার্ট ব্রুস এবং মাকড়সার গল্প। যুদ্ধে ছ’‌বার হেরে যাওয়ার পর হাল ছেড়ে দেওয়ার মুখে রাজা রবার্ট একটি মাকড়সাকে ছ’‌বার জাল তৈরিতে ব্যর্থ হয়েও সপ্তমবারে সফল হতে দেখেন। যা থেকে উদ্বুদ্ধ হয়ে রাজা রবার্ট সপ্তমবারে প্রতিদ্বন্দ্বীকে পরাস্ত করতে সক্ষম হন। সে রকমই বার বার দেওয়ালের পিলারে ওঠার চেষ্টা করেও পারছিল না বছর সাতের এক ক্ষুদে শিশু। কিন্তু হাল ছাড়েনি। অবশেষে পিলারের শেষ প্রান্তে ওঠে এবং সাবলীলভাবে মাটিতে নেমেও আসে। ক্ষুদে শিশুর অনুপ্রেরণকদায়ক ভিডিও দেখে রীতিমতো বিস্মিত নেটদুনিয়া।

আরাত হোসেইনি (Arat Hosseini) নামে ওই শিশু লিভারপুল (Liveepool) অ্যাকাডেমির ফুটবলার। ভাইরাল ওই ভিডিওতে দেখা যায়, শুরুতেই শিশুটি দেওয়ালের পিলারে উঠতে পারেনি। যদিও, সে বার বার চেষ্টা করে গেছে এবং অবশেষে একেবারে পিলারের মাথায় বেয়ে উঠতে পেরেছে। তবে শুধু তাই নয়, পিলার থেকে মাটিতে নিরাপদে নেমেও আসে। Twitter-এ ভিডিওটি শেয়ার করেছেন IAS অফিসার এম ভি রাও (M V Rao)। যিনি ক্ষুদে আরতকে ক্যাপসানে তাঁর 'গুরু' বলে ডেকেছেন।

আসলে ভিডিওটি ২০১৮ সালে আরতের নিজস্ব Instagram পেজে শেয়ার করা হয়েছিল। এর পর গত ২৭ মে মাইক্রোব্লগিং সাইটে আবার ভিডিওটি দেওয়া হয়। সঙ্গে সঙ্গেই ভাইরাল হয়ে পড়ে। কিছু সময়ের মধ্যে ভিডিওতে ১০,০০০ ভিউ আর ১৫০০০ লাইক পরে যায়। শিশুটির প্রশংসায় ভরে যায় নেটদুনিয়া। এক একজন নেটিজেন এক এক রকমভাবে গুণগান করেন। যেমন একজন শিশুটিকে বলেন, "রোনাল্ডো তৈরি হচ্ছে"। কেউ ভিডিওটিকে বলেন, "কী চমৎকার, কী অনুপ্রেরণামূলক।" আবার কেউ কেউ শিশুটিকে 'চ্যাম্পিয়ান', 'সুপার বেবি' বলেও সম্বোধন করেন। এমনকি এক Twitter ব্যবহারকারী শিশুটিকে 'দত্তক' নেওয়ার ইচ্ছাও প্রকাশ করেন।

তবে এই প্রথমবার ক্ষুদে সকলকে অবাক করে দেয়নি। এর আগেও, তার এক্সারসাইজ করার কিংবা স্টান্ট করার ভাইরাল ভিডিও দেখে বিস্মিত হয়েছিল নেটদুনিয়া। সম্প্রতি তার ফুটবল খেলার ভিডিওর অংশ দর্শককে আকর্ষণ করে। আরতের Instagram-এ তাকে অনুশীলনের সময় বুদ্ধিমত্তার সঙ্গে ফুটবল পাস করতে দেখা যায়। ভিডিওটি মাত্র ২১ ঘন্টায় ২.৪ লাইকে পৌঁছেছে। শিশুটির প্রতিফা দেখে, নেটিজেনরা কমেন্ট করা থেকে নিজেদের আটকে রাখতে পারেননি। ভিডিওর পোস্টটিতে কমেন্ট বিভাগ ফায়ার এবং রেড হার্ট ইমোজিতে ভরে যায়। একজন Instagram ব্যবহারকারী প্রতিভাবান ওই শিশুকে "ভবিষ্যতের চ্যাম্প" বলেন, যেখানে অন্যজন তাকে "ব্যতিক্রমী" বলেন।

প্রসঙ্গত, আরতের Instagram যিনি পরিচালনা করেন, তিনি এই ধরনের বিভিন্ন ক্লিপ শেয়ার করেছেন যেখানে ক্ষুদে শিশুটিকে এরকম বিস্ময়কর কাজ করতে দেখা যায়। সংশ্লিষ্ট পেজে ৫.৭ মিলিয়ন ফলোয়ার রয়েছেন।

Published by:Piya Banerjee
First published: