লাইফস্টাইল

corona virus btn
corona virus btn
Loading

৭ হাজার টাকার মধ্যেই আসল হিরে বসানো ড্রেস, কিনতে হলে কী করবেন? জেনে নিন চট করে!

৭ হাজার টাকার মধ্যেই আসল হিরে বসানো ড্রেস, কিনতে হলে কী করবেন? জেনে নিন চট করে!
Image credits: AFP.

খবর কিন্তু মিথ্যে নয়। সিঙ্গাপুরের এক ফ্যাশন হাউজ, যারা দুনিয়ায় সর্বাপেক্ষা বিলাসবহুল আর দামি পোশাক বানানোর জন্য বিখ্যাত, তারাই এ বার এ হেন অফার নিয়ে এসেছে জনতার জন্য।

  • Share this:

আসল হিরে আর খাঁটি রুপোর কাজ করা এক ন্যুড মিনি ড্রেস। সঙ্গে রয়েছে কর্সেটও। আর থাকছে হিরে বসানো গ্লাভস, হাল ফ্যাশনের চশমা, পুরো সাজের সঙ্গে মানানসই একজোড়া জুতো। সব মিলিয়ে এই 'মিলিয়ন ডলার' লুকের জন্য মোটেই মিলিয়ন ডলার খসানোর প্রয়োজন নেই। বদলে বের করতে হবে মাত্র ৮৫ মার্কিন ডলার। ভারতীয় মুদ্রায় যে অঙ্কটা দাঁড়াচ্ছে ৬ হাজার ২৩৮ টাকা ৭৯ পয়সা। মানে ওই ৭ হাজার টাকার মধ্যেই এত কিছু এসে যাবে হাতের নাগালে।

খবর কিন্তু মিথ্যে নয়। সিঙ্গাপুরের এক ফ্যাশন হাউজ, যারা দুনিয়ায় সর্বাপেক্ষা বিলাসবহুল আর দামি পোশাক বানানোর জন্য বিখ্যাত, তারাই এ বার এ হেন অফার নিয়ে এসেছে জনতার জন্য। তবে যা কিছু হবে, সবই ভার্চুয়ালি। মানে এই পোশাক আপনার অনলাইন অবতারের গায়ে উঠবে।তা বলে ভাববেন না যে ব্যাপারটা Facebook অবতার তৈরি করার মতো। সে তো স্রেফ এক কার্টুন মাত্র। আমোদের উপাদান ছাড়া আর কিছুই নয়। এখানে কিন্তু আমোদের শিকড়টা চারিয়ে রয়েছে অনেক বেশি গভীরে। মনেরও গভীরে, সমাজেরও গভীরে।

সবার প্রথমে মনের কথাটাই না হয় সেরে নেওয়া যাক। আমাদের ক'জনের হিরেবসানো পোশাক পরার হিম্মত আছে বলুন তো? এই যে সেলিব্রিটিদের এত ছবি দেখেন, তাঁদেরও কখনও হিরেবসানো পোশাক পরতে দেখেছেন? বড় জোর সেই হিরে থাকে তাঁদের গায়ে!

তার উপরে রয়েছে আরেকটা কথাও। হিরের কথা আপাতত ভুলে যান, হাল ফ্যাশনের সঙ্গে তালমেলানো পশ্চিমি পোশাক পরার ইচ্ছে থাকলেও ক'জন ভারতীয় সেই সুযোগ পান?

এর পরে রয়েছে সামাজিক দিক- এই অতিমারীর দিনে ‘সোশ্যালাইজ’ করারই বা মওকা কই? সব মিলিয়ে রিপাবলিক নামের ফ্যাশন হাউজের এই পরিকল্পনা পুরোপুরি পাবলিকের জন্যই! আপনি সবার প্রথমে নিজের একটা হাই-রেজোলিউশন ছবি ওদের ওয়েবসাইটে আপলোড করে দিন। পরের ধাপে বেছে নিন পছন্দের পোশাক। যদি 'মিলিয়ন ডলার' নামের কম্বিনেশন পছন্দ না হয়, রয়েছে আরও অনেক অপশন। এর পর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে দাম মিটিয়ে ফেললেই সংস্থা কাজে নেমে পড়বে। ওই পোশাক আর সঙ্গের অ্যাকসেসরিজ দিয়ে সাজিয়ে দেবে আপনার ভার্চুয়াল সত্ত্বাকে।

তার পর সেটা নিজের সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে পোস্ট করে প্রশংসা কুড়োতে কে আপনাকে বারণ করছে? করলেই বা শুনবেন কেন?

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: October 19, 2020, 10:34 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर