Viralvideo:কুকি-র লোভে ফ্রিজ বেয়ে উঠল ৩ বছরের মেয়ে ! ভিডিও অবাক করে দেবে !

কুকির লোভে সে চড়েই ফেলল ৫ ফুট ১০ ইঞ্চির রেফ্রিজারেটরে। মায়ের লুকোনো কুকি তাক থেকে নিয়ে নিল ওই একরত্তি!

কুকির লোভে সে চড়েই ফেলল ৫ ফুট ১০ ইঞ্চির রেফ্রিজারেটরে। মায়ের লুকোনো কুকি তাক থেকে নিয়ে নিল ওই একরত্তি!

  • Share this:

সুস্বাদু খাবারের আশায় মানুষ কত দূর যেতে পারে, তা সবারই জানা। কিন্তু সুস্বাদু কুকি-র লোভে তিন বছরের একরত্তি কী করতে পারে, তা দেখে হেসে গড়িয়ে পড়ল সোশ্যাল মিডিয়া। স্পাইডারম্যানের মতো পাঁচ ফুট বেয়ে উঠে সে মায়ের লুকোনো খাবার হাসিল করেই ছাড়ল। যা দেখে এই কথাই মনে হয় যে বাপরে কী ডানপিটে মেয়ে! যার সাহস নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। কেউ পক্ষে কথা বলেছেন, কেউ আবার আতঙ্কে সিঁটিয়ে গিয়েছেন।

সিসেম স্ট্রিট (Sesame Street) গেমের কথা মনে আছে? তার অন্যতম চরিত্র কুকি মনস্টারের কথা নিশ্চয় কেউ ভোলেননি? সোশ্যাল মিডিয়ায় সম্প্রতি ভাইরাল হওয়া ভিডিও-তে তেমনই এক কুকি (Cookie) দৈত্যের পরিচয় পাওয়া গেল। তবে তা ততটাও ভয়ঙ্কর নয়। দুষ্টু-মিষ্টি তিন বছরের এলা (Ella) কী কাণ্ডটাই করে দেখাল! কুকির লোভে সে চড়েই ফেলল ৫ ফুট ১০ ইঞ্চির রেফ্রিজারেটরে। মায়ের লুকোনো কুকি তাক থেকে কব্জা করল ওই একরত্তি!

ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন এলার মা। যেখানে তিন বছরের শিশুকে অনায়াসে এবং অবলীলায় তরতর করে ফ্রিজ বেয়ে ওপরে উঠতে দেখা যাচ্ছে। তার পর তাক খুলে কুকির প্যাকেট হাতে নিয়ে নির্মল আনন্দে মেতেছে এলা। ভিডিওটি তার মা-ই সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন। জানিয়েছেন যে মেয়ের থেকে লুকিয়ে তিনিই কুকির প্যাকটে ওই তাকে লুকিয়ে রেখেছিলেন। কিন্তু কোনও ভাবে তার খোঁজ পেয়ে যায় তিন বছরের এলা। তার পরের ঘটনা তো সবার জানা!

কন্যা এলার এই কাণ্ডে খুশি চেপে রাখতে পারেননি তাঁর মা। সে কথা তিনিও লিখেছেনও। হাসি চেপে রাখতে পারেননি নেটিজেনরাও। একরত্তির সাহসী কাণ্ড দেখে হেসে গড়িয়ে পড়েছেন কেউ কেউ। কেউ আবার আঁতকে উঠেছে। যে কোনও সময়ে একটা বড়সড় দুর্ঘটনা ঘটতে পারত বলে মনে করেছেন অনেকে। তাঁদের শান্ত করেছেন আবার নেটিজেনরাই। বলেছেন যে কোনও দুর্ঘটনা ঘটা কোনও ভাবেই সম্ভব নয়। কারণ ফ্রিজের ওজন শিশুর থেকে অনেক বেশি। এলার ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় সাত লক্ষ ভিউ পেয়েছে। সেই সঙ্গে প্রশংসিত হয়েছে ওই শিশু এবং তার বাবা-মায়ের সাহস!

Published by:Piya Banerjee
First published: