লাইফস্টাইল

corona virus btn
corona virus btn
Loading

খিদে আর যৌনতা একই শারীরিক প্রতিক্রিয়া, অবাক করছে সাম্প্রতিক সমীক্ষা!

খিদে আর যৌনতা একই শারীরিক প্রতিক্রিয়া, অবাক করছে সাম্প্রতিক সমীক্ষা!

কোভিড ১৯ ভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিহত করার জন্য বিশ্বের প্রায় সব দেশেই একটা দীর্ঘ সময় জুড়ে লকডাউন চলেছে।

  • Share this:

#ওয়াশিংটন: কোভিড ১৯ ভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিহত করার জন্য বিশ্বের প্রায় সব দেশেই একটা দীর্ঘ সময় জুড়ে লকডাউন চলেছে। এখনও যে জীবনযাত্রা পুরোপুরি স্বাভাবিক ছন্দে ফিরে এসেছে, সে কথা খুব একটা জোর দিয়ে বলা যায় না। এই লকডাউন আর আনলক পর্বের দুই ক্ষেত্র জুড়ে চলা নানা সমীক্ষা প্রমাণ করে দেখিয়ে দিয়েছে যে মানুষের মধ্যে ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে পরস্পরের সঙ্গে যোগাযোগ রাখার আকুতি বেড়ে গিয়েছে। কিন্তু সব কিছুরই যে একটা প্রস্তুতি পর্ব থাকে, কোনও কিছুই যে আচমকা ঘটে না, তা নতুন করে প্রমাণ করে দিল ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজির নতুন এক সমীক্ষা।

এই সমীক্ষা প্রকাশ্যে নিয়ে এসেছে আশ্চর্য এক তথ্য। দাবি করেছে যে একা থাকার সময়ে অন্যের সঙ্গ চাওয়ার যে আকুতি তৈরি হয়, তার সঙ্গে ভীষণ খিদে পাওয়ার অনুভূতির না কি কোনও তফাত নেই। এই দুই হল এক গোত্রের শারীরিক প্রতিক্রিয়া!

এ ক্ষেত্রে সমীক্ষকদলের বক্তব্য- আমাদের শরীরের সব কিছুই নিয়ন্ত্রণ করে হরমোন। হরমোনের নিঃসরণেই যে রকম খিদে পাওয়ার মতো ঘটনা ঘটে, ওই একই কারণে নিঃসঙ্গতা থেকে মস্তিষ্কে অন্যের সঙ্গ চাওয়ার আকুতি তৈরি হয়ে থাকে। সমীক্ষকরা খিদের সঙ্গে এই আকুতির আরও এক আশ্চর্য মিল তুলে ধরেছেন। জানিয়েছেন- প্রথম ধাপে যেমন খিদে খুব বেশি পায়, পরে ধীরে ধীরে তা সহ্য হয়ে যায়, একাকিত্বের ক্ষেত্রেও সেই ঘটনা ঘটে। মানে, কেউ খুব অল্প দিন হল একা থাকতে শুরু করলে তাঁর মধ্যে অন্যের সঙ্গ পাওয়ার আকুতি খুব বেশি রকমের কাজ করে। কিন্তু যাঁরা অনেক দিন হল একা থাকতে অভ্যস্ত হয়ে গিয়েছেন, তাঁরা নিজেদের সইয়ে নিয়েছেন পরিস্থিতির সঙ্গে- এখন আর অন্যের সঙ্গ চাওয়ার আকুতি তাঁদের মধ্যে তীব্র ভাবে জাগে না! জানা গিয়েছে যে এ হেন সমীক্ষা শুরু হয়েছিল সে-ই ২০১৮ সাল থেকে। চলতি বছরের ২৩ নভেম্বর এর সমীক্ষাপত্র পেশ করা হয়। সমীক্ষকদের দাবি, ২০১৮ সাল থেকেই মানুষের মধ্যে সামনাসামনি দেখা হওয়া কমেছে, বেড়েছে ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে যোগাযোগ রাখা। সেই ঘটনাই এই করোনাকালে প্রকট হয়ে উঠেছে!

Published by: Akash Misra
First published: November 25, 2020, 8:01 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर