Home /News /life-style /
যাঁকে বিয়ে করতে চলেছেন, সঙ্গমে তাঁর দক্ষতা কি যাচাই করার প্রয়োজন আছে? কী বলছেন বিশেষজ্ঞ

যাঁকে বিয়ে করতে চলেছেন, সঙ্গমে তাঁর দক্ষতা কি যাচাই করার প্রয়োজন আছে? কী বলছেন বিশেষজ্ঞ

স্বাস্থ্যকর হস্তমৈথুন রুটিন রাখা ভালো সম্পর্কের ক্ষেত্রে যৌনসুখ ভীষণ ভাবে দরকার হয়। আর তা অবশ্যই স্বাস্থ্যকর হওয়া প্রয়োজন। তাই এবিষয়ে নিজের শরীর নিয়েও ভাবার প্রয়োজন রয়েছে। সেক্ষেত্রে সোলো সেক্স করা যেতে পারে।

স্বাস্থ্যকর হস্তমৈথুন রুটিন রাখা ভালো সম্পর্কের ক্ষেত্রে যৌনসুখ ভীষণ ভাবে দরকার হয়। আর তা অবশ্যই স্বাস্থ্যকর হওয়া প্রয়োজন। তাই এবিষয়ে নিজের শরীর নিয়েও ভাবার প্রয়োজন রয়েছে। সেক্ষেত্রে সোলো সেক্স করা যেতে পারে।

কী ভাবে বিয়ের আগে হবু স্বামীর সঙ্গমে দক্ষতা পরখ করা দেখা যায়! ব্যাপারটা আদৌ কার্যকরী করা যায় কি না, সেটাও তাঁর জিজ্ঞাস্য

  • Share this:

#কলকাতা: সন্দেহ নেই, এই পর্বে যে বিষয়টি বিশ্লেষণ করেছেন বিশেষজ্ঞা পল্লবী বার্নওয়াল, তার শিরোনামের মধ্যেই লুকিয়ে আছে বিতর্কের উপাদান। কিন্তু শুধুমাত্র শারীরিক সমস্যার জন্য আমাদের সমাজে কত বিয়ে ভেঙে যায়, সেটা কি আমরা অস্বীকার করতে পারি? স্ত্রী/স্বামী যদি শারীরিক দিক থেকে সঙ্গমের সময়ে তৃপ্ত করতে না পারেন অপর পক্ষকে, অনেক সময়েই সম্পর্কে প্রবেশ করে তৃতীয় ব্যক্তি। যা বৈবাহিক জীবনকে সমস্যায় ফেলে। এই সব কারণ মাথায় রাখলে বিয়ের সঙ্গে হবু জীবনসঙ্গী/জীবনসঙ্গিনীর সেক্সুয়াল পারফরম্যান্সের বিষয়টি মাথায় রাখা দরকার।

পল্লবী জানিয়েছেন যে এই দ্বিধার জায়গা থেকে তাঁকে চিঠি দিয়েছেন এক পাঠিকা। তিনি জানতে চেয়েছেন যে কী ভাবে বিয়ের আগে হবু স্বামীর সঙ্গমে দক্ষতা পরখ করা দেখা যায়! ব্যাপারটা আদৌ কার্যকরী করা যায় কি না, সেটাও তাঁর জিজ্ঞাস্য!

এই ব্যাপারে সবার আগে পল্লবী একটা ব্যাপারে সতর্ক করছেন সবাইকেই- প্রচলিত সামাজিক ধারণা অনুযায়ী এই ভাবে পরখ করার প্রস্তাব যদি কেউ দেন, সে ক্ষেত্রে সবাই তাঁকে বিকৃতকামীর তকমা দেবেন। অতএব, অ্যারেঞ্জড ম্যারেজের ক্ষেত্রে এটা সম্ভব নয়। লাভ ম্যারেজের ক্ষেত্রে বিয়ের আগে সঙ্গী/সঙ্গিনীর সঙ্গে শারীরিক ভাবে মিলিত হওয়া যেতেই পারে। কিন্তু সেটাও স্বতস্ফূর্ত হওয়া প্রয়োজন। না হলে অভিজ্ঞতা মধুর হবে না।

কিন্তু এর একটা সমস্যাও আছে বলে জানিয়ে দিয়েছেন পল্লবী। হতে পারে, অপর পক্ষ এই প্রস্তাবকে ভালো চোখে দেখছেন না, সে ক্ষেত্রে তিনি অন্যের মানসিকতার সমালোচনা করবেনই! তখন আবার মানসিকতার ধরন না মেলার সমস্যাও সম্পর্কে দেখা দেবে। যদিও ব্যাপারটাকে পল্লবী ভালোই বলছেন; তাঁর সাফ দাবি- যাঁর সঙ্গে মনের মিল হচ্ছে না, তাঁর সঙ্গে শারীরিক সুখের মিল খুঁজতে যাওয়া বৃথা!

সে না হয় হল! কিন্তু এত কিছুর পরে যদি অপর পক্ষকে শারীরিক ভাবে যথেষ্ট আকর্ষণীয় বা দক্ষ বলে মনে না হয়? সেক্ষেত্রে কি তাঁকে প্রত্যাখ্যান করে দিতে হবে?

সেটা নির্ভর করবে ব্যক্তিবিশেষের সিদ্ধান্তের উপরে, তা সে যতই নিষ্ঠুর হোক না কেন! কিন্তু শারীরিক সম্পর্ক কী করে সুখকর করো তোলা যায়, সে নিয়ে এর আগে অজস্র পরামর্শ দিয়েছেন পল্লবীও, ভবিষ্যতেও পাঠক-পাঠিকার প্রয়োজন অনুসারে দেবেন। অতএব, যদি মনে কোনও সংশয় থাকে, চূড়ান্ত পদক্ষেপের আগে একবার পল্লবীর সঙ্গে তা নিয়ে আলোচনা করে নেওয়া যেতেই পারে- সেই পথটি কিন্তু সব সময়েই খোলা আছে!

Pallavi Barnwal

Published by:Ananya Chakraborty
First published:

Tags: Sexual Tips, Sexual Wellness

পরবর্তী খবর