ছেলেরা বেশি সতর্ক, বাড়ছে কন্ডোমের ব্যবহার! সমীক্ষার রিপোর্ট দেখুন...

condom

উদাহরণ হিসেবে উঠে এসেছে মুম্বই শহরের থেকে প্রাপ্ত তথ্য৷

  • Share this:

    #মুম্বই: ফ্যামিলি প্ল্যানিং-এর ক্ষেত্রে ধীরে ধীরে ছেলেরা দায়িত্ব নিতে তৈরি হচ্ছে৷ ফলে মেয়েদের গর্ভনিরোধ পিল বা কন্ট্রাসেপটিভ (Contraceptive) ব্যবহার কিছুটা কমেছে৷ বলছে সমীক্ষা৷ ন্যাশনল ফ্যামিলি হেল্থ সার্ভে (National Family Health Survey-NFHS-5)-এ যে তথ্য উঠে এসেছে তাতে দেখা গিয়েছে যে, দেশের বাড়তে থাকা জনসংখ্যায় কিছুটা হ্রাস পাওয়া সম্ভব হয়েছে গর্ভনিরোধ ব্যবস্থার ফলে৷ এবং এখানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিচ্ছে কন্ডোম! অর্থাৎ স্বামী-স্ত্রীর ফ্যামিলি প্ল্যানিং-এ এখন স্বামীরাই এগিয়ে থাকছেন৷ ফলে ব্যবহার বাড়ছে কন্ডোমের৷ গত ৫ বছরেই এই পরিবর্তন লক্ষ্য করা গিয়েছে৷ এর আগে মূলত গর্ভনিরোধ ওষুধ (Contraceptive pill) খেতেন মেয়েরা৷ অধিকাংশ ক্ষেত্রেই এটাই ছিল সাধারণ চিত্র৷ যা কিছু হলেও বদলেছে৷ ওষুধ খাওয়া বা ওরাল পিলের বদলে কন্ডোমের ওপর ভরসা বাড়ছে৷

    ২২টি রাজ্য ও কেন্দ্র স্বাশিত অঞ্চলে এই পরিবর্তন নজরে আসছে৷ শহর এবং গ্রামীণ এলাকায় এই ধরণের বদল দেখা যাচ্ছে বলে জানান পপুলেশন কাউন্সিল অব ইন্ডিয়ার ডাঃ রাজীব আচার্য৷ গত ৫ বছর ধরে ফ্যামিলি প্ল্যানিং-এর ব্যাপারে পুরুষরা সজাগ হলেও মহিলাদের গর্ভনিরোধ ব্যবস্থা নিতে দেখা গিয়েছিল৷ এটাই ছিল স্বাভাবিক ব্যবস্থা৷ যদিও ধীরে ধীরে সেই অবস্থায় পরিবর্তন এসেছে৷ ছেলেরা এতদিন এই বিষয় উৎসুক থাকলেও এখন তাঁরা এই পদক্ষেপ নিতে শুরু করেছেন৷ বলছেন ফ্যামিলি প্ল্যানিং অ্যাসোসিয়েশন অব ইন্ডিয়ার ডাঃ মণীষ ভিশে৷

    উদাহরণ হিসেবে উঠে এসেছে মুম্বই শহরের থেকে প্রাপ্ত তথ্য৷ মুম্বই শহরে প্রতি ১০ জনের মধ্যে ৭ জন দম্পতি ফ্যামিলি প্ল্যানিং-এ যুক্ত৷ ২০১৫-১৬-এ যা ৫৯.৬০ শতাংশ ছিল, তা বেড়ে ২০১৯-২০-তে ৭৪.৩ শতাংশে গিয়ে দাঁড়িয়েছে৷ এই সময়ের মধ্যেই কন্ডোম ব্যবহার বৃদ্ধি পয়ে হয়েছে ১১.৭ শতাংশ থেকে ১৮.১ শতাংশ৷ অন্যদিকে মহিলাদের গর্ভনিরোধ ওষুধের হার কমে হয়েছে ৪৭ শতাংশ থেকে ৩৬.১ শতাংশ৷ অনেক ক্ষেত্রে গর্ভনিরোধ পিল থেকে মহিলাদের ওজন বাড়তে থাকে৷ তাই অধিকাংশ ক্ষেত্রে এই ওষুধের ব্যবহার বন্ধ করছেন মহিলারা৷ জানাচ্ছেন ডাঃ কিরণ কোলহো৷

    অন্যদিকে মুম্বই শহরতলিতেও কন্ডোমের ব্যবহার বৃদ্ধি পেয়েছে৷ ৮.৯ শতাংশ থেকে তা বেড়ে হয়েছে ১৮ শতাংশ৷ যা প্রতি ১০জন পুরুষের মধ্যে ২ জন হিসেবে জানা গিয়েছে৷ ফলে মহিলাদের ক্ষেত্রে ৪৩ শতাংশ থেকে কমে সেটা দাঁড়িয়েছে ৩৭.৫ শতাংশে৷ রোজগেরে দম্পতি সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হন৷ ফলে প্রতিদিন গর্ভনিরোধ পিল না খেয়ে কন্ডোম ব্যবহার অনেক উপকারী বলে মনে করেন তারা৷ মত ডাঃ কিরণ কোলহোর৷

    এই বদল আরও একটি বিষয়টি তুলে ধরছে৷ যা হল, ১৮ বছরের নিচে মহিলাদের বিয়ে কম হচ্ছে এবং যে সব মহিলার বিয়ে হচ্ছে তারা ১০ বছরের বেশি স্কুলে যাওয়ার সুযোগ পাচ্ছে৷ ফলে এই ধরণের সিদ্ধান্ত তারা নিতে সক্ষম হচ্ছেন৷ জানিয়েছেন ডাঃ ভিশে৷

    Published by:Pooja Basu
    First published: