Home /News /life-style /
Health Tips: যেমন খুশি যোগাসন করে লাভ নেই, আপনার শরীরের ধরন বুঝে অভ্যাস করুন!

Health Tips: যেমন খুশি যোগাসন করে লাভ নেই, আপনার শরীরের ধরন বুঝে অভ্যাস করুন!

Health Tips

Health Tips

কার ক্ষেত্রে কোনটার পাল্লা ভারী সেটা বুঝে নিয়ে সেই অনুযায়ী যোগাসন অভ্যাস করলে তবেই সেরা ফল মিলবে। (Health Tips)

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: মানসিক চাপ এবং উদ্বেগ কমাতে যোগাসন বা যোগ ব্যায়ামের কোনও বিকল্প নেই। কিন্তু সব যোগাসন সবার জন্য নয়। আয়ুর্বেদ মতে, শরীরের প্রকৃতি ঠিক কেমন সেটা নির্ধারণ করে বাত, পিত্ত এবং কফ। কার ক্ষেত্রে কোনটার পাল্লা ভারী সেটা বুঝে নিয়ে সেই অনুযায়ী যোগাসন অভ্যাস করলে তবেই সেরা ফল মিলবে।

দোষ এবং শরীরের ধরন বোঝা: প্রতিটি দোষ একটি নির্দিষ্ট শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়ার প্রতিনিধিত্ব করে। যেমন বাত দোষ শরীরের ইলেকট্রোলাইটের ভারসাম্য বজায় রাখে। পিত্ত দোষ ক্ষুধা, তৃষ্ণা এবং শরীরের তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে। কফ দোষ জয়েন্টের কার্যকারিতাকে উন্নত করে। আয়ুর্বেদ অনুযায়ী, প্রতিটি দোষের জন্য নির্দিষ্ট যোগাসন রয়েছে। শরীরের ধরন অনুযায়ী কোন যোগব্যায়াম কার জন্য উপযুক্ত সেটা খুঁজে বের করতে হবে।

আরও পড়ুন: আজ উচ্চ মাধ্যমিকের ফলপ্রকাশ, সবার আগে রেজাল্ট দেখুন News18Bangla.com-এ

বাত দোষ: বাত দোষের মানুষ হয় রোগা পাতলা। ত্বক হয় শুষ্ক। এঁদের বিপাক দ্রুত হয়। ওজন বাড়ে না বললেই চলে। এই ধরনের মানুষের জন্য ইয়িন এবং স্ট্রেচিং যোগ উপকারি। এগুলি ধীর গতির যোগাভ্যাস। তবে বাত দোষের মানুষদের জন্য প্রয়োজনীয় উষ্ণতা এবং আরামদায়ক অনুভূতি যোগায়। এঁদের জন্য বৃক্ষাসন, তদাসন এবং বীরভদ্রাসন অভ্যাসের পরামর্শ দেওয়া হয়।

পিত্ত দোষ: এই ধরনের শরীর আগুন উপাদান দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয়। পিত্ত দোষের মানুষ হয় মাঝারি গড়নের। তবে শক্তিশালী পেশির অধিকারী। নেতিবাচক দিক হল, অল্প বয়সেই এদের টাক পড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। চুলও অকালে পেকে যায়। এঁদের শরীর সবসময় গরম থাকে, তাই উষ্ণ যোগ এড়ানো উচিত। পরিবর্তে উস্ট্রাসন, ভুজঙ্গাসন, সেতুবন্ধ সর্বাঙ্গাসন, মৎস্যাসন, কপোতাসন এবং বৃক্ষাসনের মতো কিছু শীতল এবং আরামদায়ক যোগাসন অভ্যাসের পরামর্শ দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন: রেকর্ড দিনে এবারের উচ্চ মাধ্যমিকের ফলপ্রকাশ, অপেক্ষা আর কিছুক্ষণের

কফ দোষ: এই ধরনের মানুষ হয় বেঁটে রোগাপাতলা, নয় তো গাঁট্টাগোট্টা ইয়া লম্বা। জল এবং মাটির উপাদান দ্বারা শরীর নিয়ন্ত্রিত হয়। চট করে সর্দি, কাশি হয়ে যায়। ওজন খুব তাড়াতাড়ি বাড়ে। তবে এই ধরনের মানুষের স্ট্যামিনা দুর্দান্ত। তাঁরা যাতে শরীরকে হালকা অনুভব করেন সে জন্য উষ্ণ এবং শক্তি যোগের প্রয়োজন। উষ্ণ যোগ হল এমন যোগ ব্যায়াম যা গরম এবং আর্দ্র অবস্থায় সম্পাদিত হয় যার ফলে খুব ঘাম হয়। আর শক্তি যোগের পদ্ধতিকে বলে ‘পাওয়ার বিন্যাস স্টাইল’। হঠ যোগের প্রায় ২৬টি ভঙ্গী রয়েছে যা বিক্রম যোগ নামেও পরিচিত। এর মধ্যে ডিপ ব্রিদিং, অর্ধ চন্দ্রাসন এবং উৎকটাসন অন্যতম। শক্তি যোগাসনগুলির মধ্যে রিপূর্ণ নাভাসন, শলভাসন, চতুরঙ্গ দণ্ডাসন এবং আধো মুখ স্বনাসন অভ্যাসের পরামর্শ দেওয়া হয়।

Published by:Raima Chakraborty
First published:

Tags: Health Tips, Yoga

পরবর্তী খবর