Home /News /life-style /
Beauty Tips: রোদে পোড়া, ট্যান, ত্বকের যত্নে এই খাবারের ব্যবহারে ফিরবে জৌলুস

Beauty Tips: রোদে পোড়া, ট্যান, ত্বকের যত্নে এই খাবারের ব্যবহারে ফিরবে জৌলুস

Skin Care and Beauty Tips

Skin Care and Beauty Tips

কম দামে এবং সহজেই পাওয়া যায় এমন একটি উপাদেয় খাবার রয়েছে, যা গরমের মরশুমে প্রতিদিনের ডায়েটে যোগ করলেই কেল্লা ফতে। একটা খাবারেই সারবে ত্বকের ৩ সমস্যা, জানুন ব্যবহারের পদ্ধতি!

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: গ্রীষ্মকাল যেন শরীরকে নিংড়ে নেয়। গরম আবহাওয়া ত্বক থেকে শুষে নেয় যাবতীয় আর্দ্রতা। স্বাভাবিক উজ্জ্বলতা হারায় চোখমুখ। সারাক্ষণ রোদে থাকার ফলে পোড়া দাগ, চামড়ায় ট্যান পড়াও এই সময় খুব স্বাভাবিক ঘটনা। এমনকী ফোসকাও পড়ে যায়। গরমের দিনগুলোতে এই সমস্যা চলতেই থাকে। অনেক মাথা খুঁড়েও সমাধান মেলে না।

তবে আর চিন্তার কিছু নেই। সমাধান এখন হাতের মুঠোয়। কম দামে এবং সহজেই পাওয়া যায় এমন একটি উপাদেয় খাবার রয়েছে, যা গরমের মরশুমে প্রতিদিনের ডায়েটে যোগ করলেই কেল্লা ফতে। ত্বকের এই সমস্ত সমস্যা থেকে মুক্তি মিলবে নিমেষে। সেই খাবারটা কী?

আরও পড়ুন - Home Decor: বাড়িকে নিজে হাতে রাঙিয়ে তুলুন স্বপ্নের রঙে, কঠিন কিছু নয়, মেনে চলুন সহজ কয়েকটা নিয়ম

গ্রীষ্মে ত্বকের সমস্যা বাড়ে কেন: সূর্যের ক্ষতিকারক অতিবেগুনি রশ্মি এবং জ্বালিয়ে পুড়িয়ে দেওয়া দাবদাহ চামড়াকে ট্যান করে বা ত্বকের সংবেদনশীল স্তরগুলিকে পুড়িয়ে দেয়। এই সমস্যা থেকে বাঁচতে সানস্ক্রিন ব্যবহারের পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা। কিন্তু কতদিনের জন্য এটা বড় প্রশ্ন। এখানে একটা পুরনো দেশি টোটকার কথা বলা হল। ত্বক বিশেষজ্ঞরা বলেন, এটা রোদে পোড়া, সান ট্যান বা ফোসকার কারণে হওয়া ক্ষতি নিরাময় এবং পুনরুদ্ধারে ম্যাজিকের মতো কাজ করে।

এই খাবার দিয়ে কীভাবে ত্বকের সমস্যা নিরাময় সম্ভব: এই খাবারটা হল দই বা ঠান্ডা দই। লাল ফোসকা এবং রোদে পোড়ার কারণে ত্বকে প্রায়ই চুলকানি, ব্যথা এবং নানা রকমের অস্বস্তি হয়। ওষুধ দিয়ে এসবের চিকিৎসা করা যেতেই পারে। কিন্তু এগুলো নানা রাসায়নিকে ভরা। ফলে এক রোগ সারাতে গিয়ে অন্য রোগ ডেকে আনতে পারে। ত্বক বিশেষজ্ঞদের মতে, গরমের দিনগুলোতে প্রতিদিন পাতে দই কিংবা ত্বকে দইয়ের প্রয়োগ সূর্যের অত্যধিক এক্সপোজারের কারণে সৃষ্ট সাধারণ সমস্যাগুলো নিরাময়ে সাহায্য করে।

দইয়ে প্রোবায়োটিক উপাদান রয়েছে। যা রোদে পোড়া, ফোসকার কারণে ব্যথা, চুলকানি এবং অস্বস্তি থেকে মুক্তি দেয়। দইতে থাকা ল্যাকটিক অ্যাসিড প্রাকৃতিক এক্সফোলিয়েন্ট হিসেবে কাজ করে। এর ফলে মৃত কোষের স্তর তো দূর করেই সঙ্গে সংক্রমণ থেকেও বাঁচায়। অনেক সময় ঠান্ডা খাবার খেয়ে জিভে ঘা হয়। দই প্রাকৃতিকভাবে এর নিরাময় করে। পাশাপাশি শরীরের হারানো পুষ্টি পূরণ করে।

পোড়া বা ত্বকের ট্যান নিরাময়ের সবচেয়ে ভালো উপায় হল, দই ও অ্যালোভেরা জেল মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে সেটা আক্রান্ত স্থানে লাগানো। শুকানোর জন্য ২০ মিনিট রাখতে হবে। তার পর ধুয়ে ফেলতে হবে ঠান্ডা জলে। প্রতিদিন এই পেস্ট লাগাতে পারলে হাতে-নাতে ফল মিলবে।

Published by:Debalina Datta
First published:

Tags: Beauty tips, Skin Care

পরবর্তী খবর