corona virus btn
corona virus btn
Loading

লকডাউনের মাঝে শহরের আবাসনে সৌভাগ্যের প্রতীক, এলাকা জুড়ে শোরগোল

লকডাউনের মাঝে শহরের আবাসনে সৌভাগ্যের প্রতীক, এলাকা জুড়ে শোরগোল

লকডাউনের মাঝে শহরের আবাসনে সৌভাগ্যের প্রতীক, এলাকা জুড়ে শোরগোল

  • Share this:

#কলকাতা: কী ভাবে এল? কোথা থেকে এল? সেই নিয়ে নানা জনের নানা মত। কিন্তু শহরের কংক্রিটের জঙ্গলে ভরদুপুরে সাদা পেঁচার আবির্ভাব ঘিরে হুলুস্থুলু যাদবপুর লাগোয়া বিজয়গড়ের আজাদগড়ে।

স্থানীয় হিমাচল সংঘ ক্লাবের পাশে হেমাঙ্গিনী অ্যাপার্টমেন্ট। রবিবার সকালে সেই হেমাঙ্গিনী অ্যাপার্টমেন্টের চারতলার সিড়িতে দেখা মেলে একটি একটি প্রমাণ সাইজের লক্ষ্মীপেঁচার। ধবধবে সাদা রংয়ের পেঁচাটির আবির্ভাবের খবর ছড়িয়ে পড়তে দেরি হয়নি। লক্ষ্মীপেঁচাটিকে দেখতে আশেপাশের এলাকা থেকেও মানুষ ভিড় জমায় আজাদগড়ের হেমাঙ্গিনী অ্যাপার্টমেন্টে। জমা হওয়া মানুষজনের মধ্যে অত্যুৎসাহী কয়েকজন পেঁচারটির খাওয়ার জন্য চাল, জল এগিয়ে দেন।

দিনের আলোয় কাছ থেকে লক্ষ্মীপেঁচা দেখার লোভ সামলাতে পারেননি স্থানীয় মানুষজন। লকডাউনের কারণে এমনিতেই মানুষ ঘরবন্দি। তারওপর আবার রবিবার ছুটির দিন। মুখে মুখে লক্ষ্মী পেঁচার আবির্ভাবের খবর ছড়াতে তাই দেরি হয়নি। পাখিটিকে ক্যামেরাবন্দি করে রাখতে হুড়োহুড়ি শুরু হয়ে যায়। স্থানীয় ক্লাবের ছেলেরা উদ্যোগ নিয়ে ভিড় সরিয়ে দেয়।

পৃথিবীতে প্রায় ২০০ প্রজাতির পেঁচা রয়েছে। বিজয়গড়ের আজাদগড়ে আবির্ভূত পেঁচাটি ইস্টার্ন বার্ন প্রজাতির বলে প্রত্যক্ষদর্শীদের ধারণা। লকডাউনের মাঝে দেশের অর্থনৈতিক মন্দার আশঙ্কা। আর তার মধ‍্যে রবিবার দিনে দুপুরে লক্ষ্মীপেঁচার আবির্ভাব ঘিরে গুঞ্জন শুরু হয় জনমানসে। হিন্দু মতে, মা লক্ষ্মীর বাহন হিসেবে পেঁচাকে সৌভাগ্যের প্রতীক বলেই ধরা হয়। তাই দিনেদুপুরে অনাহূত অতিথিকে আপ‍্যায়ন করতে কার্পণ্য করেননি বিজয়গড় আজাদগড়ের মানুষজন।

Published by: Akash Misra
First published: April 19, 2020, 4:43 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर