রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা-নৈরাজ্যে উদ্বিগ্ন রাজ্যপাল, মুখ্যসচিব-ডিজিকে রাজভবনে তলব

রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা-নৈরাজ্যে উদ্বিগ্ন রাজ্যপাল, মুখ্যসচিব-ডিজিকে রাজভবনে তলব

আজ বৃহস্পতিবারই রাজভবনে যাবেন রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় এবং ডিজি। রাজভবনে সন্ধে ৬টায় বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন তাঁরা।

আজ বৃহস্পতিবারই রাজভবনে যাবেন রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় এবং ডিজি। রাজভবনে সন্ধে ৬টায় বৈঠকে উপস্থিত থাকবেন তাঁরা।

  • Share this:

    #কলকাতা: ফের রাজ্যকে আক্রমণ রাজ্যপালের। রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনমন এবং নৈরাজ্য সৃষ্টিতে তিনি যথার্থই উদ্বিগ্ন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে তাই তড়িঘড়ি রাজ্যের মুখ্যসচিব-ডিজিকে রাজভবনকে তলব করেছেন। চিঠি দিয়ে ১২ ডিসেম্বরের মধ্যে তাঁদের দেহা করার কথা জানিয়েছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়।

    জানা গিয়েছে, আজ বৃহস্পতিবারই রাজভবনে যাবেন রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় এবং ডিজি বীরেন্দ্র। রাজভবনে সন্ধে ৬টা'য় বৈঠক। সেখানেই  উপস্থিত থাকবেন তাঁরা। রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি-সহ একাধিক বিষয়ে আলোচনার সম্ভাবনা।

    এ দিন ডায়মণ্ডহারবারে জেপি নাড্ডার সভা ঘিরে তুলকালাম পরিস্থিতি তৈরি হয়। পূর্বনির্ধারিত সভায় যাওয়ার পথে  জেপি নাড্ডা এবং কৈলাস বিজয়বর্গীয়র গাড়িতে ইটবৃষ্টি করা হয়। বিক্ষোভকারীরা ভাঙচুর চালাল মুকুল রায়ের গাড়িতেও। হাতে চোট পান কৈলাস বিজয়বর্গীয়। তবে কারা এমন ঘটনা ঘটিয়েছে বা নেপথ্যে কারা ছিল তা তদন্তের আগেই শাসকদলের হার্মাদরা বিজেপি নেতা জেপি নাড্ডাকে আক্রমণ করেছেন বলে তোপ দেগেছেন রাজ্যপাল। তাঁর দাবি, পুলিশের রাজনীতিকরণ হয়ে গিয়েছে। তাই বারবার  ডিজিপি এবং মুখ্যসচিবকে সতর্ক করার পরেও ডায়মন্ডহারবারে পৌঁছনোর পরে এমন হামলা হয়েছে বিজেপি নেতার ওপর।

    প্রসঙ্গত, পরিস্থিতি বেনজির দেখেই অমিত শাহর মন্ত্রককে বিস্তারিত জানান রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ, অমিত শাহর সঙ্গে কথা হয় নাড্ডারও। সূত্রের খবর, চিঠি পেয়েই নড়েচড়ে বসেছে কেন্দ্র।  কেন্দ্রের তরফে গোটা ঘটনার রিপোর্ট তলব করা হয়েছে রাজ্যের থেকে। এ দিকে রাজ্যের পরিস্থিতি নিয়ে উষ্মা প্রকাশ করেছেন রাজ্যপাল। বিকেলে বৈঠকে বসবেন রাজ্যের মুখ্যসচিব এবং ডিরেক্টর জেনারেল অব পুলিশকে নিয়ে।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published: