Home /News /kolkata /

West Bengal Covid 19: দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার ক্ষেত্রে কেন পিছিয়ে? মুখ্যসচিবের প্রশ্নের মুখে জেলাশাসকরা

West Bengal Covid 19: দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার ক্ষেত্রে কেন পিছিয়ে? মুখ্যসচিবের প্রশ্নের মুখে জেলাশাসকরা

প্রতীকী ছবি৷

প্রতীকী ছবি৷

গত কয়েকদিনে গোটা রাজ্যে হু হু করে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ৷ কলকাতার পাশাপাশি জেলাগুলিতেও উদ্বেগজনক ভাবে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা (Covid 19 in West Bengal)৷

  • Share this:

#কলকাতা: বুস্টার ডোজ দেওয়া শুরু হয়ে গিয়েছে৷ পেরিয়ে গিয়েছে নির্দিষ্ট সময়সীমাও৷ তার পরেও রাজ্যের বহু জেলাতেই এখনও করোনার টিকার দু'টি ডোজ পাননি প্রায় পঞ্চাশ শতাংশ মানুষ (West Bengal Covid 19)৷

কেন টিকাকরণে প্রত্যাশিত লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছনো যাচ্ছে না, তা নিয়ে এ দিন খোদ রাজ্যের মুখ্যসচিবের কড়া প্রশ্নের মুখে পড়তে হল বেশ কয়েকটি জেলার জেলাশাসককে৷ কোভিড পরিস্থিতি পর্যালোচনা এবং নিয়ন্ত্রণে এ দিন সব জেলার জেলাশাসকদের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক করেন মুখ্যসচিব এইচ কে দ্বিবেদী৷ জেলাশাসকরা ছাড়াও বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন সব জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিকরা৷ সেই বৈঠকেই টিকাকরণের ধীর গতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন মুখ্যসচিব৷

আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্তের সংস্পর্শে এলেও পরীক্ষা বাধ্যতামূলক নয়, জানালো আইসিএমআর

গত সাত দিনে বিভিন্ন জেলার কোন কোন অংশে করোনা সংক্রমণ সবথেকে বেশি বেড়েছে, এ দিন রীতিমতো তার তালিকা তৈরি করে জেলাশাসকদের দেখানো হয়৷ যে অঞ্চলগুলিতে গত এক সপ্তাহে করোনা সংক্রমণ বেশি বেড়েছে, সেখানে আরও কড়া বিধিনিষেধ জারি করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে৷

আরও পড়ুন: চায়ের দোকানে আর আড্ডা নয়, টানা সাত দিন বন্ধের নির্দেশ বর্ধমানে

পাশাপাশি, মাস্ক পরা নিয়ে কোনওরকম শিথিলতা না দেখানোর কথাও বলা হয়েছে বৈঠকে৷ পাশাপাশি করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসায় টেলি মেডিসিনের উপরে জোর দেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে এ দিনের বৈঠকে৷

গত কয়েকদিনে গোটা রাজ্যে হু হু করে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ৷ কলকাতার পাশাপাশি জেলাগুলিতেও উদ্বেগজনক ভাবে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা৷ দুই চব্বিশ পরগণার পাশাপাশি হাওড়া, হুগলি, পশ্চিম বর্ধমানের মতো জেলাগুলিকে নিয়ে প্রশাসনের চিন্তা বাড়ছে৷ উত্তরবঙ্গেও পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে৷ এই পরিস্থিতিতে টিকাকরণের গতি আরও বাড়ানো এবং বিধিনিষেধের কড়াকড়ি দিয়ে সংক্রমণের শৃঙ্খল ভাঙতে চাইছে রাজ্য প্রশাসন৷

Published by:Debamoy Ghosh
First published:

Tags: Coronavirus, Covid ১৯

পরবর্তী খবর