• Home
  • »
  • News
  • »
  • kolkata
  • »
  • VETERAN LEFT LEADER APPEALS TO MAKE MAMATA BANERJEE VICTORIOUS FROM BHABANIPUR DMG

Left leader appeals for Mamata Banerjee in Bhabanipur: 'মমতাকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জেতান', চেতলার কর্মিসভায় আবেদন ৮৪ বছরের বাম নেতার

চেতলার কর্মিসভায়মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বাদল ভট্টাচার্য৷

মঞ্চে উঠে বাদলবাবু জানান, তিনি কিছু বলতে চান৷ মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সঙ্গে তাঁর প্রস্তাবে সম্মতি জানান (Left leader appeals for Mamata Banerjee in Bhabanipur)৷

  • Share this:

#কলকাতা: বয়স ৮৪ বছর৷ কথা বলতে গেলে স্বর কেঁপে যায়৷ তা সত্ত্বেও বুধবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের চেতলার কর্মিসভায় হাজির হয়ে গিয়েছিলেন চেতলার বাসিন্দা অবসরপ্রাপ্ত স্কুল শিক্ষক বাদল ভট্টাচার্য৷ কিন্তু প্রবীণ এই মানুষটির আলাদা পরিচয়ও আছে৷ দীর্ঘদিন ধরে বাম রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তিনি৷ আর বুধবার চেতলায় তৃণমূলের কর্মিসভার মঞ্চে উঠে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী করার আবেদন জানালেন বাম রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত বাদলবাবু৷

চেতলার অহীন্দ্র মঞ্চের কর্মিসভা থেকেই এ দিন ভবানীপুরের উপনির্বাচনের প্রচার শুরু করলেন মুখ্যমন্ত্রী৷ কর্মিসভায় তিনি বক্তব্য শুরু করার মুহূর্তে মঞ্চের কাছে গিয়ে তাঁর দৃষ্টি আকর্ষণ করেন বাদলবাবু৷ অবসরপ্রাপ্ত এই শিক্ষক একসময় রাজ্যের পরিবহণমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমেরও শিক্ষক ছিলেন৷ ফলে বাদলবাবুকে দেখে এগিয়ে যান মঞ্চে থাকা ফিরহাদ হাকিমও৷ মুখ্যমন্ত্রীও তাঁকে মঞ্চে আসতে বলেন৷

মঞ্চে উঠে বাদলবাবু জানান, তিনি কিছু বলতে চান৷ মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সঙ্গে তাঁর প্রস্তাবে সম্মতি জানান৷ এই বয়সেও কর্মিসভায় আসার জন্য বাদলবাবুকে ধন্যবাদও জানান তিনি৷ কিন্তু সবথেকে বড় চমক অপেক্ষা করেছিল এর পর৷ মাইকের সামনে দাঁড়িয়ে কাঁপা কাঁপা গলায় বাম রাজনীতির সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে যুক্ত বাদলবাবু বলেন, 'আমার ৮৪ বছর বয়স হয়েছে৷ সবার কাছে একটাই আবেদন, মমতা তো সারা পশ্চিমবঙ্গে জিতে বসে আছেন৷ তাঁকে আবার নতুন করে কেন লড়াই করতে হবে? সমস্ত রাজনৈতিক দল, সমস্ত সংগ্রামী মানুষের কাছে আমার আবেদন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ভবানীপুর থেকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ভবানীপুর থেকে জয়যুক্ত করুন৷ কেউ যেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী হওয়ার সাহস না দেখায়৷' কথা বলতে গিয়ে আবেগে গলা ধরে আসে অশতীপর বৃদ্ধের৷

বাদলবাবুর বক্তব্যের শেষে ফের তাঁর দিকে এগিয়ে যান মুখ্যমন্ত্রী৷ বাদলবাবুকে বসাতে নির্দেশ দেন তিনি৷

দীর্ঘদিন ধরে বাম রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত বাদলবাবু যেদিন মমতাকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জেতানোর ডাক দিলেও ঘটনাচক্রে এ দিনই ভবানীপুর কেন্দ্রে নিজেদের প্রার্থী ঘোষণা করেছে সিপিএম৷ কংগ্রেস মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী না দিলেও সে পথে হাঁটেনি বামেরা৷ ভবানীপুরে সিপিএমের প্রার্থী হচ্ছেন শ্রীজীব বিশ্বাস৷

Published by:Debamoy Ghosh
First published: