corona virus btn
corona virus btn
Loading

আজ থেকে কলকাতার বাসে 'ত্রিধারা' আসন, কী এই নতুন ব্যবস্থা....

আজ থেকে কলকাতার বাসে 'ত্রিধারা' আসন, কী এই নতুন ব্যবস্থা....

২০৫ ও ২০৫ এ রুটের মোট ৩৬ টি বাসে এদিন থেকে চালু হয়ে গেল ত্রিধারা আসন।

  • Share this:

#কলকাতা:  সোমবার থেকে কলকাতায় বেসরকারি বাসে চালু ত্রিধারা আসন। ২০৫ ও ২০৫ এ রুটের মোট ৩৬ টি বাসে এদিন থেকে চালু হয়ে গেল ত্রিধারা আসন। কি এই ত্রিধারা আসন? যারা তৃতীয়লিঙ্গের  মানুষ তাদের জন্য যে আসন। তারই নাম দেওয়া হয়েছে ত্রিধারা। বাস সংগঠনের বক্তব্য, ধীরে ধীরে সমস্ত বেসরকারি বাসেই এই ব্যবস্থা চালু করবেন তারা। অভিযোগ তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ যারা রয়েছেন, তারা বাসে উঠলেই তাদের হেনস্থার শিকার হতে হচ্ছে।

মহিলাদের আসনে বসতে গেলে তাদের কটূ কথা শোনানো হয়। সাধারণ আসনে বসতে গেলে তাদের বলা হয় মহিলাদের আসনে গিয়ে বসতে। এছাড়া নানা অছিলায় তাদের বাসের মধ্যে কটূক্তি শুনতে হয়। ট্রান্স জেন্ডার বোর্ডের চেয়ারম্যান রঞ্জিতা সিংহকে এই অসুবিধার মধ্যে পড়তে হয়েছিল। কলকাতা মেট্রোয় মহিলাদের আসনে বসতে গিয়ে তাকে কটূক্তির মধ্যে পড়তে হয়েছিল। এমনকি তাকে মেট্রো থেকে নেমে যেতেও বাধ্য করা হয়েছিল। অভিযোগ বিভিন্ন গণ পরিবহণে প্রত্যেকদিন এই ভাবেই হেনস্থার শিকার হতে হচ্ছে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষদের। তাই এবার গণ পরিবহণের অন্যতম মাধ্যম বাসে যারা যাতায়াত করেন তাদের জন্যে আসন সংরক্ষণ করা হল। গত সপ্তাহেই বাস ইউনিয়ন সংগঠনের কাছে এই আসন সংরক্ষণ নিয়ে আবেদন জানান কলকাতার প্যাডম্যান শোভন মুখোপাধ্যায়, কলকাতা পুরসভার কাউন্সিলর অনিতা কর মজুমদার।

প্রাথমিক আলোচনা চলার পরে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষের জন্যে আসন সংরক্ষণ করতে রাজি হয় ২০৫ ও ২০৫ এ ইউনিয়নের সদস্যরা। সেই পরিপ্রেক্ষিতেই আজ থেকে তাদের বাসে ত্রিধারা আসন চিহ্নিত করে দেওয়া হল। মোট ৩৬ টি বাসে আপাতত এই ব্যবস্থা চালু হয়েছে। কলকাতার প্যাডম্যান শোভন মুখোপাধ্যায় জানিয়েছেন, "এই কাজ করতে পেরে ভালো লাগছে। রুপান্তরকামী মানুষরা তো আর সমাজের বিচ্ছিন্ন  মানুষ নন। তাই তাদের জন্যে বাসে আসন সংরক্ষণ করতে পেরে ভালো লাগছে।" বাসে এই ব্যবস্থা নিয়ে খুশি বাস মালিক সংগঠনের প্রতিনিধিরাও। জয়েন্ট কাউন্সিল অফ বাস সিন্ডিকেটের সাধারণ সম্পাদক তপন বন্দোপাধ্যায় জানিয়েছেন, "আমি বরাবর এই ধরণের মানুষদের পাশে থাকতে চাই। আমাদের সংগঠনের বাস মালিকদের জানিয়েছি এই অবস্থা সম্পর্কে। আশা করি রাজ্যের প্রতিটি বাসে এই ব্যবস্থা চালু হবে।"

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: August 17, 2020, 9:58 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर