নয়া চেহারায় তৃণমূলের ইলেকশন 'ওয়ার রুম', দাবার বোর্ডে মোক্ষম চাল দিল তৃণমূল

নয়া চেহারায় তৃণমূলের ইলেকশন 'ওয়ার রুম', দাবার বোর্ডে মোক্ষম চাল দিল তৃণমূল
নতুন চমক তৃণমূলের।

মণীষীদের ছবি থেকে নয়া স্লোগান ভোটের লড়াইয়ে পুরোদমে স্থান বাইপাসের তৃণমূল ভবনের।

  • Share this:

#কলকাতা: বাইপাসের ধারে চেনা তৃণমূল ভবনের চেহারা আমূল গেল বদলে। বাংলা নিজের মেয়েকেই চায় - এই স্লোগান, ব্যানার, কাট আউটে সাজিয়ে তোলা হয়েছে তৃণমূল ভবন। এ ছাড়া মানুষের দৃষ্টি আকর্ষণ করার জন্যে রাখা হয়েছে বাংলার গর্ব মমতা ব্যানার। সবুজ বাড়িতে নীল-সাদা ব্যানারে বিধানসভা ভোটের আগে নয়া চেহারায় তৃণমূলের ইলেকশন হেড কোয়ার্টার। তৃণমূল নেতাদের কটাক্ষ, বিজেপি যখন শহরের পাঁচ তারা হোটেলে ইলেকশন হেড কোয়ার্টার বানাচ্ছে সেখানে আমরা আমাদের জমিতে থেকেই মানুষের কাছে, কর্মীদের কাছে পৌছে যাবো।

শনিবারের বারবেলায় 'বাংলার নিজের মেয়েকেই চায়' এই স্লোগান লঞ্চ করল তৃণমূল কংগ্রেস। আর এদিন থেকেই তাদের ভোটের কন্ট্রোল রুম বানিয়ে ফেলল তাদের অফিসকে। এছাড়া ভবনে রাখা হয়েছে মণীষীদের পোস্টারের কোলাজ। বাংলায় এসে মণীষীদের অপমান করা হচ্ছে। বিজেপির এই অ্যাজেন্ডার বিরোধিতা বিভিন্ন সভা থেকেই ইতিমধ্যেই তৃণমূল সুপ্রিমো করতে শুরু করেছেন। তারা যে মণীষীদের সম্মান করেন সেই বার্তা এভাবে আরও একবার দিল তৃণমূল কংগ্রেস।

যদিও জোড়া ফুল শিবিরের দাবি, বাংলার শিক্ষা, সংস্কৃতি, কৃষ্টি সবেতেই বাংলার মানুষের পাশে রয়েছেন তারা। এই নয়া মেকওভারে সেই বাংলার ছোঁয়া রাখা হচ্ছে। একটা সময় এই তৃণমূল কংগ্রেস ভবনে নির্বাচনের সময় কন্ট্রোল রুম বানানো হত। জেলার প্রতিটি বুথে বুথে কর্মীদের সাথে যোগাযোগ রাখতেন। এবার করপোরেট লুকে সেই কাজ সারবেন নেতারা।

তবে শাসক দলের সাংসদ সুখেন্দু শেখর রায় জানিয়েছেন, "বিজেপির প্রচুর পয়সা। ওরা পিএম কেয়ার ফান্ড, ইলেকটোরাল বন্ড থেকে প্রচুর টাকা করেছে। আমরা মানুষের পাশে। মানুষের সাথে। তাই আমরা আমাদের জায়গায় এই ওয়ার রুম বানিয়ে ফেলেছি।" রাজ্যের মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় জানিয়েছেন, "ওদের টাকা আছে ওরা পনেরো তলা, কুড়ি তলা বিল্ডিংয়ে ভোটের কাজ করতে পারে। আমাদের আছে মমতা। জনগণ যার পাশে আছে। তাই আমরা এখান থেকেই লড়াই চালাব ভোটে।"

Published by:Arka Deb
First published: