Home /News /kolkata /
কোনও জল্পনা নয়, কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর সমতুল পদ পেলেন শুভেন্দু, হেস্টিংসে নিজস্ব অফিস

কোনও জল্পনা নয়, কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর সমতুল পদ পেলেন শুভেন্দু, হেস্টিংসে নিজস্ব অফিস

তৃণমূলে থাকাকালীন দু' বার সাংসদ নির্বাচিত হয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী৷ দীর্ঘ সময় রাজ্যের মন্ত্রী ছিলেন তিনি৷ যদিও বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার আগে বিধায়ক পদও ছেড়ে দেন তিনি৷

তৃণমূলে থাকাকালীন দু' বার সাংসদ নির্বাচিত হয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী৷ দীর্ঘ সময় রাজ্যের মন্ত্রী ছিলেন তিনি৷ যদিও বিজেপি-তে যোগ দেওয়ার আগে বিধায়ক পদও ছেড়ে দেন তিনি৷

বছর শেষের সন্ধেয় বড় চমক ৷ পদে নির্লোভ শুভেন্দুকে বড় সম্মান বিজেপির

  • Last Updated :
  • Share this:

#কলকাতা: গেরুয়া শিবিরে যোগ দেওয়ার মুহূর্ত থেকেই দাবি করে এসেছেন কোনও পদের লোভে নয়, দলের সামান্য এক কর্মী হিসেবেই কাজ করতে চান তিনি ৷ পতাকা লাগাতে, দেওয়াল লিখতেও আপত্তি নেই ৷ কিন্তু দল যে তাঁর জন্য বড় কিছুই পরিকল্পনা করে রেখেছে সে ইঙ্গিত মিলেছিল আগেই ৷ বছর শেষের সন্ধেয় বড় চমক ৷ বিজেপিতে যোগদানের একমাসও হতে না হতেই হাইকম্যান্ডের নির্দেশে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর সমতুল মর্যাদার পদে শুভেন্দু অধিকারী ৷ শুধু তাই নয় হেস্টিংসে বিজেপির নতুন কার্যালয়ে নন্দীগ্রামের প্রাক্তন বিধায়কের জন্য তৈরি নিজস্ব অফিসঘর ৷

১৯ ডিসেম্বর বঙ্গ রাজনীতিতে এযাবৎকালের সবথেকে বড় পালাবদল ৷ রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে বিজেপির মাস্টারস্ট্রোক ৷ খোদ পদ্ম শিবিরের সেনাপতি অমিত শাহ নিজ হাতে বঙ্গ রাজনীতির অন্যতম দাপুটে নেতা শুভেন্দুর হাতে পতাকা তুলে দিয়ে বরণ করে নেন বিজেপিতে ৷ এযাবৎকালে তৃণমূলত্যাগী ছোট বড় কোনও নেতার কপালেই এমন অভ্যর্থনা মঞ্চ জোটেনি ৷ ১৯ ডিসেম্বর মেদিনীপুরের মাঠের সভামঞ্চ থেকেই শাহ স্পষ্ট করে দিয়েছিলেন শুভেন্দুকে নিয়ে অনেক বড় কোনও পরিকল্পনা আছে হাইকম্যান্ডের ৷ নিজের বক্তব্যেও জানিয়েছিলেন, ‘শুভেন্দু ভাইয়ের নেতৃত্বে এবার আমরা ২১-এর নির্বাচনে তৃণমূলকে উৎখাত করব ৷’

বিজেপির গত এক দশকেরও বেশি সময় ধরে বিজেপির বিজয়রথের ব্লুপ্রিন্ট তৈরি করেছে হাইকম্যান্ডের যে কজন নেতা, ২১-এ বাংলা জয় প্রজেক্টেও দায়িত্ব তারাই ৷ তাদেরই ইচ্ছেতে, বিশেষত অমিত শাহের ইচ্ছেতেই দলে যোগদানের এক মাস ঘুরতে না ঘুরতেই জুট কর্পোরেশন অফ ইন্ডিয়া-র চেয়ারম্যান অর্থাৎ কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর সমান মর্যাদার পদের দায়িত্বে শুভেন্দু ৷ ৩ জানুয়ারি থেকে এই দায়িত্ব সরকারিভাবে তিনি গ্রহণ করবেন বলে জানা গিয়েছে ৷

শুভেন্দু অধিকারীকে যে দলের আর-পাঁচজন নেতার সঙ্গে এক পংক্তিতে ফেলছে না পদ্মশিবির তা স্পষ্ট ৷ দলের মধ্যেও গুরুত্ব বোঝাতে বেশ কিছু সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব ৷ হেস্টিংসে বিজেপির নতুন নির্বাচনী কার্যালয়ে শুভেন্দুর জন্য তৈরি হয়েছে নিজস্ব অফিস ঘর ৷ এমন সম্মান নব নিযুক্ত কোনও নেতা তো দূরস্থান দলের প্রথম সারির সব নেতার কপালেও জোটেনি ৷

শিরোনামে তিনি বরাবরই থাকতেন, তবে বিজেপিতে যোগদানের পরের মুহূর্ত থেকেই তৃণমূলের নিশানার সঙ্গে সহ্গে বঙ্গ রাজনীতির লাইমলাইটে শুভেন্দু ৷ বিজেপি বনাম তৃণমূল ছাড়িয়ে এখন বাংলার রাজনৈতিক ময়দানে নজর কাড়ছে শুভেন্দু বনাম তৃণমূল ৷

রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে, বাংলা রাজনীতিতে ভূমিপুত্র শুভেন্দুকে বিজেপির পোস্টার বয় হিসেবে তুলে ধরতে চাইছে দল ৷ তাঁর জনপ্রিয়তা, সংগঠন বিজেপির পালের হাওয়াকে যে আরও মসৃণ করবে তা বলাই বাহুল্য ৷ একইসঙ্গে শুভেন্দু অধিকারীকে এত বড় সম্মান দেওয়ার মাধ্যমে তৃণমূলকেও এরকম বার্তা দিল বিজেপি বলে মনে করছেন রাজনৈতিক মহলের একাংশ ৷

Abir Ghosal and Arnab Hazra

Published by:Elina Datta
First published:

Tags: Suvendu Adhikary